scorecardresearch

বড় খবর

ঘরওয়াপসি অব্যাহত, বর্ধমানে মন্ত্রীর হাত ধরে দলে যোগ দাপুটে নেতার

দলবদলের পালা চলছেই। অন্য দল ছেড়ে একের পর এক নেতা-কর্মী ফিরছেন তৃণমূলে।

ঘরওয়াপসি অব্যাহত, বর্ধমানে মন্ত্রীর হাত ধরে দলে যোগ দাপুটে নেতার
রাজ্যের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথের হাত ধরে তৃণমূল কংগ্রেসে ফিরলেন দাপুটে নেতা।

রাজ্যের পুরসভা নির্বাচনের মুখে তৃণমূলের পুরনো নেতা-কর্মীদের ঘরে ফেরার পালা চলছেই। পাশাপাশি অন্য দল থেকেও অনেকে তৃণমূল যোগ দিচ্ছেন। রবিবার বর্ধমানে রাজ্যের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথের হাত ধরে তৃণমূল কংগ্রেসে ফিরলেন দাপুটে নেতা সুজিত ঘোষ। একইসঙ্গে ওই দিন তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন জেলা কংগ্রেসের এসসি ও এসটি সেলের নেতা কৈলাশ পাশোয়ান ও বেশ কয়েকজন আইনজীবী।

রবিবার বর্ধমানের সংস্কৃতি লোকমঞ্চে যোগদান অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ, জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায়, জেলা সভাধিপতি তথা রায়নার বিধায়ক শম্পা ধাড়া, জেলা নেতা উজ্জ্বল প্রামাণিক। সুজিত ঘোষের হাতে পতাকা তুলে দেন স্বপন দেবনাথ ও রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায়। এদিকে জেলা বিজেপির দাবি, সুজিত ঘোষ তাঁদের দলে থাকলেও সেভাবে কখনও কাজ করেননি। স্বপন দেবনাথ বলেন, ‘কয়েকশো কর্মী-সমর্থক নিয়ে দলে যোগ দিলেন সুজিত ঘোষ। এতে দলের শক্তিবৃদ্ধি ঘটবে।’

ঘাসফুল শিবিরে যোগ দিয়ে সুজিত ঘোষ বলেন, ‘আমি ২০০৩ থেকে তৃণমূল কংগ্রেস করেছি। মাঝে শারীরিক অসুস্থতার জন্য রাজনীতি থেকে দূরে ছিলাম। দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে বাংলার উন্নয়ন কর্মযজ্ঞে সামিল হতে চাই। তাই সক্রিয় রাজনীতিতে ফিরলাম।’ বিজেপি থেকে কি ফিরলেন তৃণমূলে? এই প্রশ্নের জবাবে ডাকাবুকো এই নেতা বলেন, ‘আমি কোনওদিনই সেভাবে বিজেপি করিনি। ভুল বুঝিয়ে দলে নেওয়ার চেষ্টা করেছিল। একটা অনুষ্ঠানে হয়তো হাজির ছিলাম। তবে এটা বলতে তৃণমূলের সংগঠন শক্তিশালী করতে দলের নেতৃত্ব যা নির্দেশ দেবে তাই করব। এরাজ্যে বিজেপির কোনও প্রাসঙ্গিকতা থাকবে না।’

আরও পড়ুন- নিম্নচাপ-অক্ষরেখার জোড়াফলায় আজও বৃষ্টি, আবহাওয়ার বদল কবে?

বিধানসভা নির্বাচনের পর থেকেই তৃণমূলের পুরনো কর্মীরা ঘরে ফিরছেন। পুরসভা নির্বাচনের আগে দলকে আরও সংগঠিত করতে উদ্যোগী হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে এরাজ্যে ১৮টি আসনে জয় পেয়েছিল গেরুয়া শিবির। তারপর ২০২১ বিধানসভা নির্বাচনে ২০০ আসনের লক্ষ্যে লড়াই করলেও ৭৭ আসনে দৌড় থেমে যায় বিজেপির। এরাজ্যে কিছুতেই বিজেপিকে রাজনৈতিক জমি দিতে চাইছে না তৃণমূল কংগ্রেস।

জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি বিধায়ক রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায় বলেন, ‘সমাজসেবী সুজিত ঘোষ ৩০০ জন সমর্থক নিয়ে দলে যোগ দিলেন। তিনি কোনও দল করতেন না। অন্যদিকে কংগ্রেস নেতা কৈলাশ পাশোয়ান ও কয়েকজন আইনজীবী দলে যোগ এসেছেন। এদিন মেট ৫০০ জন দলে যোগ দিয়েছেন।’

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Politics news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Sujit ghosh rejoin tmc at burdwan in the prsence of minister swapan debnath