বড় খবর

‘চিটফান্ড মামলায় বৃহৎ ষড়যন্ত্রের অংশ শোভন’, গ্রেফতারের দাবি কুণালের

প্রয়োজনে তাঁর মুখোমুখি বসিয়ে কলকাতার প্রাক্তন মেয়রকে জেরার দাবি করেছেন কুণাল।

আইকোর টিটফান্ড মামলায় ‘বৃহৎ ষড়যন্ত্রের অংশ’ শোভন চট্টোপাধ্যায়। এই অভিযোগেই বিজেপি নেতার গ্রেফতারের দাবি তুললেন তৃণমূল মুখপাত্র তথা সারদা মামলায় অভিযুক্ত কুণাল ঘোষ। প্রয়োজনে তাঁর মুখোমুখি বসিয়ে কলকাতার প্রাক্তন মেয়রকে জেরার দাবি করেছেন কুণাল।

আইকোরের এজেন্টদের বার্ষিক সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে শোভন চট্টোপাধ্যায়ের যোগ দেওয়ার একটি ছবি এদিন প্রকাশ্যে আনেন কুণাল ঘোষ। ছবিতে দেখা যাচ্ছে আইকোরের কর্ণধার ও তাঁর স্ত্রীর মাঝে দাঁড়িয়ে রয়েছেন শোভনবাবু। কুণাল ঘোষের প্রশ্ন, ‘এজেন্টদের অনুষ্ঠানে গিয়ে কী করছিলেন শোভনদা? সংস্থার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ না হলে কেন যাবেন এজেন্টদের অনুষ্ঠানে।’ জেলের মধ্যে কী ভাবে আইকোর সংস্থার মালিক অনুকূল মাইতির মৃত্যু হল তা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করেছেন তিনি।

সুদীপ্ত সেনের নিজের লেখা বয়ানে সারদা কর্তা কোর্টকে লাইসেন্স সংক্রান্ত কিছু তথ্য দেন। সেখানে কলকাতার মেয়র ও ১ কোটি টাকা নিয়ে একাধিক রহস্য রয়েছে বলেও অভিযোগের ইঙ্গিত স্পষ্ট করেন কুণাল। সাংবাদিক বৈঠকে কুণাল ঘোষ বলেন, ‘আইকোরের হয়ে জনমানসে ভালো বার্তা দিয়েছিলেন শোভন চট্টোপাধ্যায়। নারদায় হাত পেতে কে টাকা নিয়েছিলেন? সারদায় ১ কোটি টাকা কে পেয়েছেন, জবাব দিন শোভনদা! নিজেদের বাঁচাতেই বিজেপিতে গিয়েছেন মুকুল রায়, শোভন চট্টোপাধ্যায় ও শুভেন্দু অধিকারীরা। এরাই দিদিকে ভুল বুঝিয়ে গিয়েছেন। আসল ঘটনা জানতে দেনননি কখনও। আর এখন মানসিক আঘাত করছেন।’

আইকোরের এজেন্টদের বার্ষিক সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে শোভন চট্টোপাধ্যায়ের যোগ দেওয়ার একটি ছবি এদিন প্রকাশ্যে আনেন কুণাল ঘোষ।

আইকোর চিটফান্ড প্রসঙ্গে কুণাল ঘোষ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকে একটি চিঠিও লেখেন বলেও জানান। যার প্রেক্ষিতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে তারা বিষয়টিকে গুরুত্বের সঙ্গে দেখছেন।

দীর্ঘ টানাপোড়েনের পর সোমবারই বিজেপির হয়ে প্রকাশ্যে রাজনীতি শুরু করেছেন শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়। সভা থেকে তৃণমূল নেত্রীকে তীব্র ভাষায আক্রমণ শানান শোভন। অভিযোগ করে বলেন, তৃণমূলকে ক্ষমতায় আনতে যে নেতা ও কর্মীরা সামনে থেকে লড়াই করেছিলেন, তাঁদেরই ক্রমে দলে ব্রাত্য করা হয়েছে। কুণাল ঘোষের নাম করে বলেন ‘এঁদের মতো মানুষরাই দলটার ক্ষতি করে দিল।’ ওই সভাতেই দুর্নীতি ও কাট-মানি নিয়ে জোড়া-ফুল শিবিরকে নিশানা করেছিলেন বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়।

মনে করা হচ্ছে শোভন-বৈশাখীর তোপের ২৪ ঘন্টা কাটতে না কাটতেই এদিন পাল্টা দিলেন কুণাল। চিটফান্ডকাণ্ডে শোভন চট্টোপাধ্যায়কে ‘বৃহৎ ষড়যন্ত্রের অংশ’ বলে অভিযোগ করে তাঁর গ্রেফতারের দাবি তুললেন। শোভন বান্ধবী বৈশাখী প্রতি তৃণমূল মুখপাত্রের প্রশ্ন, ‘বৈশাখীদেবী প্রশ্ন করছেন টাকা কে নিয়েছে,’ তিনি চাইলেই পাশে বসা শোভন চট্টোপাধ্যায়কে দেখে নিতে পারতেন।’

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Politics news here. You can also read all the Politics news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Tmc spokesperson kunal ghosh demand the arrest of sovan chaterjee on icore chit fund case

Next Story
দিলীপ ঘোষই হবেন মুখ্যমন্ত্রী! অবশেষে বিজেপির ‘প্ল্যান’ ফাঁস করলেন সাংসদ
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com