বড় খবর

প্রশান্ত স্পর্শে ‘ব্র্যান্ড মমতা’কে স্বমহিমায় ফেরাতে মরিয়া তৃণমূল

মমতার এই ‘মেকওভারের’ পিছনে মেঘনাদ রূপে রয়েছেন ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর।

mamata, Prashant kishor, মমতা, প্রশান্ত কিশোর
মমতা ও প্রশান্ত কিশোর।

দৃঢ়চেতা, বিরোধীদের প্রতি কঠোর মনোভাবাপন্ন মমতা চিরকালই লড়াইয়ের মঞ্চে দাপট দেখিয়ে গেছেন। কিন্তু, এহেন মমতাকে হঠাৎ যদি আগামী দিনে কমনীয়, নরম মনোভাবাপন্ন দেখায়, তবে অবাক হওয়ার কিছু নেই। কারণ, মমতার এই ‘মেকওভারের’ পিছনে মেঘনাদ রূপে রয়েছেন ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর। রাজনৈতিক মহলের মতে, একদা মোদীর জয়ের স্বপ্ন পূরণের নেপথ্য কারিগর প্রশান্ত এবার বঙ্গে ‘ব্র্যান্ড মমতা’র দাপট কায়েম রাখার দায়িত্ব নিয়েছেন। ২০১৯ সালের লোকসভা ভোটে মোদী হাওয়ায় ভর করে বঙ্গে ১৮টি আসনে জয় ছিনিয়ে নিয়েছে বিজেপি। এরপরই বহু বিধায়ক, কাউন্সিলররা ঘাসফুল শিবির ত্যাগ করে পদ্ম শিবিরে আশ্রয় নিতে শুরু করেছেন। এমতাবস্থায় ২০২১ এর বিধানসভা ভোটে বাংলায় গড় রক্ষায় ‘পেশাদারী সহায়তা’র প্রয়োজন হয়ে পড়েছে তৃণমূল কংগ্রেসের।

ওয়াকিবহাল মহলের মতে, লোকসভা ভোট পরবর্তী বাংলার পরিস্থিতি দেখে তৃণমূল অনুভব করেছে যে রাজ্যে আক্রমণাত্মক পথ নিয়ে চলা বিজেপিকে প্রতিরোধ করার জন্য দলের ভাবমূর্তি নতুন করে তৈরি করা প্রয়োজন। তৃণমূলের শীর্ষস্থানীয় এক নেতা বলেন, “আমরা আশা করছি যে প্রশান্ত কিশোরের দাওয়াই বিধানসভা নির্বাচনে বেশ কিছু পরিবর্তন ঘটাতে পারবে। যদি আপনাকে আক্রমণাত্মক বিজেপির বিরুদ্ধে লড়াই করতে হয়, তবে নিজেদেরও শক্তিশালী আদর্শে, সংগঠিত কর্পোরেট-এর মতো হতে হবে। প্রশান্ত কিশোর আমাদের এই ভাবনার সঙ্গে একমত হয়েই কাজ করছেন”।

আরও পড়ুন- ‘দিদি কে বলো’-র নয়া উদ্যোগ, মানুষের কাছে পৌঁছতে কার্টুনে প্রচার মমতার

 

জানা যাচ্ছে, বিধানসভা ভোটের কথা মাথায় রেখে তৃণমূল নেতাদের ‘মেপে পা ফেলার’ পরামর্শ দিয়েছেন প্রশান্ত কিশোর। বিরোধীপক্ষের আক্রমণেও নিজেদের ঠান্ডা রেখে সংযত বাক্য প্রয়োগ করতেও নির্দেশ দেন এই স্ট্র্যাটেজিস্ট। প্রসঙ্গত, লোকসভা নির্বাচনের সময় অমিত শাহ এবং উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের মতো শীর্ষস্থানীয় বিজেপি নেতাদের সভা বাতিল করার অভিযোগে মমতা সরকারকে প্রায়ই সমালোচিত হতে হয়েছিল। তৃণমূলের বিরুদ্ধে ওঠা সেই অভিযোগকে নস্যাৎ করতে এবার থেকে বিরোধীদের কর্মসূচি বিনা বাধায় অনুষ্ঠিত হতে দেওয়ার পরামর্শও দেন তিনি।

আরও পড়ুন- ‘দিদিকে বলো’, শুনবেন মমতা

তৃণমূলের ঘাঁটি শক্ত করতে এবার ‘শিবির বদল’-এও রাশ টানতে চলেছেন প্রশান্ত কিশোর। উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে লোকসভা নির্বাচনের সময় ১৭ জন কংগ্রেস বিধায়ক এবং ৩ জন বাম নেতা তৃণমূল শিবিরে যোগদান করে। কিন্তু প্রশান্ত কিশোর তৃণমূল কংগ্রেসের নির্বাচনী রণনীতিকারের দায়িত্ব নেওয়ার পর সেই শিবির বদলের ছবি আর দেখতে পাওয়া যাচ্ছে না।

জানা যাচ্ছে, তৃণমূল নেত্রীকে সামনে রেখেই ঘুঁটি সাজাচ্ছেন প্রশান্ত কিশোর। এমনকি দলের বৈঠককে ঘিরেও যেন কোনও ‘ভুল ব্যাখ্যা’ না যায় সেদিকেও নজর দিচ্ছে প্রশান্ত কিশোরের দল, এমনটাই খবর।

Read the full story in English

Get the latest Bengali news and Politics news here. You can also read all the Politics news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: With prashanta kishore midas touch tmc hopes to rejuvenate brand mamata

Next Story
৩৭০ ধারা রদের পিছনে ‘রহস্য’ দেখছে বাংলার কংগ্রেস ও সিপিএমcpm, congress, সিপিএম, কংগ্রেস, article 370, ৩৭০ ধারা
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com