বড় খবর

টোকিও অলিম্পিকে ভোর পাঁচটায় ম্য়ারাথনের ভাবনা

হাতে আর ২৭৩ দিন। তারপরেই জাপানের রাজধানী টোকিওতে বসবে অলিম্পিকের আসর। স্পোর্টসের সবচেয়ে বড় ইভেন্টের জন্য় প্রহর গুনছে বিশ্ব। কিন্তু জুলাই-অগাস্ট মাসে জাপানের গরমের কথাই ভাবছে টোকিও সরকার।

2020 Olympic marathon may start at 5am to keep it in Tokyo
টোকিও অলিম্পিকে ভোর পাঁচটায় ম্য়ারাথনের ভাবনা (অলঙ্করণ-অভিজিত বিশ্বাস)

হাতে আর ২৭৩ দিন। তারপরেই জাপানের রাজধানী টোকিওতে বসবে অলিম্পিকের আসর। স্পোর্টসের সবচেয়ে বড় ইভেন্টের জন্য় প্রহর গুনছে বিশ্ব। কিন্তু জুলাই-অগাস্ট মাসে জাপানের গরমের কথাই ভাবছে টোকিও সরকার।

অ্যাথলিটদের স্বাচ্ছন্দ্য়ের কথা মাথায় রেখেই ভোরভোর ম্য়ারাথনের ইভেন্টগুলোকে রাখা হবে বলে মনে করা হচ্ছে। হতে পারে ভোর তিনটে কিম্বা সকাল পাঁচটা। প্রথমে কথা হয়েছিল যে, সূর্যোদয়ের ঠিক এক ঘণ্টা পরেই শুরু হবে ম্য়ারাথন। অর্থাৎ সকাল ছ’টা থেকে শুরু হবে এই ইভেন্ট।

এখন সময়টা বেশ কয়েক ঘণ্টা এগিয়ে আনার কথাই ভাবছে টোকিও সরকার। তারা অলিম্পিক আয়োজক ও ইন্টারন্যাশনাল অলিম্পিক কমিটিকে (আইওসি) এই প্রস্তাব দেওয়ার কথাই ভাবছে। এমনটাই রিপোর্ট জাপানিজ সংবাদ সংস্থা কিওডোর।

আরও পড়ুন: ভিডিও: বেসবলের আসরে বাইলস, ব্যাকফ্লিপে মাতালেন ‘জিমন্য়াস্টিক কুইন’

আইওসি এর আগে ভেবেছিল যে, টোকিও থেকে ৮০০ কিলোমিটার দূরে হোক্কাইডোর সাপোরোতে এই ম্য়ারাথান ইভেন্টটা সরিয়ে নিয়ে যাবে। তার কারণ একটাই। টোকিওর থেকে সাপোরোর তাপমাত্রা তুলনামূলক ভাবে অনেকটাই কম। আইওসি এক বিবৃতিতে জানিয়েছিল, “ দিনর বেলায় সাপোরোর তাপমাত্রা টোকিওর থেকে পাঁচ-ছয় ডিগ্রি কম থাকে।” কিন্তু টোকিও-র গর্ভনর ইউরিকো কোয়িকে বলেছেন যে, এভাবে আচমকাই ভেন্য়ু পরিবর্তনের বিরোধী তিনি। ফলে টোকিওতেই অলিম্পিকের সব ইভেন্ট হবে বলেই মনে করা হচ্ছে।

দোহার কাতারে অনুষ্ঠিত সদ্য়সমাপ্ত বিশ্ব ট্র্য়াক অ্যান্ড ফিল্ড চ্য়াম্পিয়নশিপে দৌড় শুরু হতো মধ্য়রাতে। প্রায় ৩৮ ডিগ্রি তাপমাত্রায় দৌড়েছেন অ্যাথলিটরা। পরিসংখ্য়ান বলছে ৬৮ জন জন মহিলা অ্যাথলিটদের মধ্য়ে ২৮ জন  ও ৭৩ জন পুরুষ অ্যাথলিটদের মধ্য়ে ১৮ জন দৌড়ই শেষ করতে পারেননি। আর এই ঘটনাই আরও বেশি করে ভাবিয়েছে টোকিও সরকারকে।

Read full story in English

Web Title: 2020 olympic marathon may start at 5am to keep it in tokyo

Next Story
জন্মদিনে হ্যাটট্রিক করলেন অভিমন্যুAbhimanyu Mithun
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com