ATK Mohun Bagan fans voices against club's decision to pull out of calcutta football league Sports: কলকাতা লিগে অবনমন ঘটানো হোক 'পলায়ন' বাগানকে! ক্ষিপ্ত সমর্থকদের 'অভিশাপ' এবার প্রকাশ্যে | Indian Express Bangla

কলকাতা লিগে অবনমন ঘটানো হোক ‘পলায়ন’ বাগানকে! ক্ষিপ্ত সমর্থকদের ‘অভিশাপ’ এবার প্রকাশ্যে

কলকাতা লিগে এবার অংশ নিচ্ছে না এটিকে মোহনবাগান। এতেই ফুঁসে উঠেছেন সবুজ মেরুন সমর্থকরা।

কলকাতা লিগে অবনমন ঘটানো হোক ‘পলায়ন’ বাগানকে! ক্ষিপ্ত সমর্থকদের ‘অভিশাপ’ এবার প্রকাশ্যে

এটিকে মোহনবাগান কলকাতা লিগে অংশ নিচ্ছে না। স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে ৭২ ঘন্টা আগেই। আর প্রিয় দলের এমন সিদ্ধান্তে এবার সরাসরি ক্ষোভ সবুজ মেরুন সমর্থকদের। এমনিতেই ‘রিমুভ এটিকে’ আন্দোলন এখনও জারি রয়েছে। এর পাশাপাশি কলকাতা লিগ থেকে নাম প্রত্যাহার করায় সমর্থকদের রোষের মুখে এটিকে এমবি টিম ম্যানেজমেন্ট। নতুন করে প্রিয় দলের জন্য বয়কট ট্রেন্ড চালু হয়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

কলকাতা লিগে অংশগ্রহণ নিয়ে প্ৰথম থেকেই টালবাহানা করে আসছিল এটিকে মোহনবাগান শিবির। প্ৰথমে আইএফএ-র বকেয়া অর্থের কথা জানিয়ে টুর্নামেন্ট থেকে সরে আসতে চায় সবুজ মেরুন শিবির। তড়িঘড়ি আইএফএ-র তরফে বকেয়ার কিছু অংশ মিটিয়ে বাকি টাকা কিস্তিতে দেওয়ার কথা জানানো হয়। এরপরে এটিকে মোহনবাগানের তরফে জানানো হয়, জাতীয় দলে ৮-৯ জন ফুটবলার ডাক পেলে দল নামাতে অসুবিধা হবে। কারণ তাঁদের কোনও রিজার্ভ দলই নেই। শেষমেশ ইগর স্টিম্যাচের জাতীয় দলে ডেকে নেওয়া হয় তিন বাগান তারকাকে- আশিক কুরুনিয়ান, লিস্টন কোলাসো এবং দীপক টাংরি। চোটের জন্য কলকাতার শিবির থেকে ফেরত পাঠানো হয় টাংরিকে।

আরও পড়ুন: সবুজ-মেরুনের ত্রাস হয়ে ওঠা ক্লাবেই বাগানের চ্যাম্পিয়ন বিদেশি! পুজোর আগেই বড় আপডেট

মাত্র দু-জন ফুটবলারকে ছাড়ার পরেও নতুন বাহানা হিসাবে সবুজ মেরুন ম্যানেজমেন্টের তরফে হাজির করা হয় এফডিএসএল-এর সঙ্গে চুক্তির বিষয়।

আইএফএ-র তরফে একাধিকবার বৈঠক করেও এটিকে মোহনবাগান শিবিরের মন বদলানো যায়নি। শেষমেশ চিঠি পাঠিয়ে শনিবার রাতে বাগান শিবিরের পক্ষ থেকে আইএফএ-কে জানিয়ে দেওয়া হয়, আইএসএল-এর এফডিএসএল-র কাছ থেকে অনুমতি না পাওয়াতেই তারা কলকাতা লিগে খেলতে পারবেন না।

এমন ঘটনার পর থেকেই এটিকে মোহনবাগানকে ‘পলায়ন বাগান’ বলে দাগিয়ে দেওয়া হচ্ছে লাল-হলুদ সমর্থকদের পক্ষ থেকে। পুরো ঘটনাপ্রবাহে বেজায় বিরক্ত মেরিনার্স শিবির। সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই তীব্র ক্ষোভের দাবানল আছড়ে পড়ছে ক্রমাগত। এমনকি টুর্নামেন্টের অংশ না নেওয়ার জন্য দলকে যাতে অবনবন ঘটিয়ে লোয়ার ডিভিশনে খেলতে পাঠিয়ে দেয় আইএফএ, সেই দাবিতেই সোচ্চার হয়েছেন অনেকে।

অনেক পোস্টের বক্তব্য, কলকাতা লিগকে অসম্মান, মোহনবাগানের ইতিহাসে কখনও এমনটা আগে ঘটেনি। ডুরান্ডে শোচনীয় ফলাফল করেছে হুয়ান ফেরান্দো ছেলেরা। প্ৰথম রাউন্ড থেকেই বিদায় নিতে হয়েছে। তারপরে এএফসি-র ইন্টার জোনাল সেমিফাইনালেও হার। এমন আবহে বারবার সমর্থকদের ক্ষোভের নিশানায় পড়ছেন সবুজ মেরুন কর্তারা। এবার কলকাতা লিগ থেকে নাম প্রত্যাহারের ঘটনায় সেই আগুন যে আরও দাউদাউ হয়ে উঠবে আগামী দিনে, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

আরও পড়ুন: আজীবন মোহনবাগানিই থাকব! ইস্টবেঙ্গল ছেড়ে ‘বিষাক্ত’ লাল-হলুদ সমর্থকদের ধুয়ে দিলেন সপ্তক

আইএফএ কি সত্যিসত্যি দৃষ্টান্ত স্থাপন করে এটিকে মোহনবাগানকে নিচু লিগে খেলতে পাঠানোর সাহস দেখাতে পারবে নাকি আরও একবার ছাড় দেওয়া হবে এটিকে মেরিনার্সদের- আগামী দিন সেটাই বলে দেবে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Atk mohun bagan fans voices against clubs decision to pull out of calcutta football league

Next Story
সূর্যের তেজে, বিরাট গর্জনে গুটিয়ে গেল অজিরা! বিশ্বকাপের আগে সিরিজ জিতে হুঙ্কার ভারতের