বড় খবর

বিরাট-রোহিতের ঝামেলা! প্রকাশ্য়ে এবার মুখ খুললেন টিম ইন্ডিয়ার কোচ

সর্বভারতীয় এক প্রচারমাধ্যমের বিস্ফোরক প্রতিবেদনে লেখা হয়েছিল, দুই তারকার লবি সম্পূর্ণ আলাদা। এতেই ভারতীয় ক্রিকেটে বিভাজন দেখা গিয়েছে। এবং এতে দলের বন্ডিং-ই ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে।

Virat Kohli and Rohit Sharma
বিরাট কোহলি ও রোহিতের ঝামেলা নিয়ে গুঞ্জন বাড়ল (বিসিসিআই)

বিরাট কোহলি বনাম রোহিত শর্মা! এই ট্যাগ লাইনকে নস্য়াৎ করে দিয়েছিলেন বিসিসিআই কর্তা ২৪ ঘণ্টা আগেই। এবার দুই মহাতারকা ক্রিকেটারের দ্বন্দ্ব নিয়ে মুখ খুললেন জাতীয় দলের বোলিং কোচ ভরত অরুণ। বিশ্বকাপের সময়েই নাকি লেগে গিয়েছিল দুই তারকার। সর্বভারতীয় এক প্রচারমাধ্যমের বিস্ফোরক প্রতিবেদনে লেখা হয়েছিল, দুই তারকার লবি সম্পূর্ণ আলাদা। এতেই ভারতীয় ক্রিকেটে বিভাজন দেখা গিয়েছে। এবং এতে দলের বন্ডিং-ই ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে।

তবে বোলিং কোচ ভরত অরুণ স্পোর্টসস্টার-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সরাসরি প্রকাশ্যে এসে প্রথমবার মুখ খুললেন। সেখানেই জানিয়ে দিয়েছেন, একদমই ভ্রান্ত খবর। তাঁর বক্তব্য, “ওদের দু-জনের মধ্যে সম্পর্ক না দেখলে বিশ্বাস করা কঠিন। রোহিত মাঝেমাঝেই আলোচনার জন্য কোহলির কাছে ছুটে যায়। একে অন্যের দক্ষতা নিয়ে দারুণ শ্রদ্ধাশীল। কোহলি দারুণভাবে দলকে নেতৃত্ব দিচ্ছে। খুব দ্রুত কোহলি একজন অধিনায়ক হিসেবে পরিণত হয়ে উঠছে। এবং কোহলির সঙ্গে পূর্ণ সমর্থন রয়েছে রোহিতের। জাতীয় দলের স্পিরিট গোটা বিশ্বকাপ জুড়েই সময় দারুণ ছিল।”

আরও পড়ুন কোহলি-রোহিতের ঠাণ্ডা যুদ্ধেই বিপর্যয়, টিম ইন্ডিয়ায় ফাঁস বিরাটের ‘অনাচার

কোহলি বনাম রোহিতের ‘ঝামেলা’ কতটা গুরুতর, জবাব দিল বোর্ড

সেই প্রতিবেদনে কোচ ভরত অরুণের বিরুদ্ধেও অভিযোগের আঙুল তোলা হয়েছিল। জানানো হয়েছিল, বিরাট কোহলির এবং রবি শাস্ত্রী নিজেদের পছন্দের ক্রিকেটারদের প্রথম একাদশে বরাবর প্রাধান্য় দিয়ে এসেছেন। বোলিং কোচ ভরত অরুণও কোহলির ঘনিষ্ঠ। বিশ্বকাপের পরেই গোটা সাপোর্ট স্টাফদের চুক্তি বাড়ানো হয়েছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর পর্যন্ত। সেখানে ব্যাটিং কোচ সঞ্জয় বাঙ্গারকে ছাঁটাই করা হতে পারে এমনটাও বলা হয়েছিল। তবে রবি শাস্ত্রী, ভরত অরুণদের চুক্তি বাড়ানোয় প্রচ্ছন্ন ভূমিকা ছিল কোহলিরও।

টিম ইন্ডিয়ার ডামাডোলের খবর প্রচারমাধ্যমে আসার পরে বোর্ড কর্তা আবার জানিয়েছিলেন, “পুরোপুরি ভ্রান্ত খবর পরিবেশন করা হচ্ছে। জানানো হচ্ছে, দুই ক্রিকেটারের সংঘাত হচ্ছে সাম্প্রতিক সময়ে। এটা একদমই অনভিপ্রেত।” অর্থাৎ বোর্ডের তরফে সরাসরি নাকচ করে দেওয়া হচ্ছে এই প্রতিবেদনকে। কেন বোর্ড এই যুক্তি মানছে না, তা-ও স্পষ্ট করে বলা হয়েছে। সেই কর্তাই জানিয়েছেন, “কোন ক্রিকেটার অন্য ক্রিকেটারকে দূরে ঠেলতে চাইবে। এটা তারাই করবে, যাঁরা কোনওদিন ক্রিকেটটাই খেলেননি। বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার পরেই কিছু প্রচারমাধ্যমের প্রয়োজন ছিল জম্পেশ শিরোনামের। যেভাবে নিজেদের ব্যক্তিস্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য বিষয় ঘুরিয়ে পরিবেশন করছেন, তা রীতিমতো হতাশার।”

কোচ ভরত অরুণ বিভেদের চিত্র নাকচ করে দিলেও প্রশ্ন যদিও রয়েই যাচ্ছে।

Web Title: Bharat arun rubbishes rumour of having rift between virat kohli and rohit sharma

Next Story
নির্বাসিত জিম্বাবোয়ের সঙ্গে দ্বি-পাক্ষিক সিরিজ নিয়ে কী ভাবছে ভারত?Zimbabwe tour of India: Do BCCI have backup plan for January home series in 2020 after ICC ban?
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com