চরম দুঃসংবাদ ISL-এ! দেশের সেরা লিগের তকমা হারানোর পথে সুপার লিগ

ভারতীয় ফুটবলের জন্য যে রোডম্যাপ তৈরি করছে সিওএ তাতে প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে আইলিগকেই। এমনটাই সূত্রের খবর।

চরম দুঃসংবাদ ISL-এ! দেশের সেরা লিগের তকমা হারানোর পথে সুপার লিগ

ভারতীয় ফুটবলের সংবিধান খোলনলচে বদলে ফেলছে বর্তমানে ফেডারেশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত সিওএ কমিটি। নতুন সংবিধান করার জন্য যে ড্রাফট তৈরি করা হচ্ছে সেখানে আইলিগকে দেশের একনম্বর লিগ হিসাবে মর্যাদা দেওয়া হচ্ছে। আইএসএল নয়।

আইলিগ যেহেতু দুই লিগের মধ্যে ‘সিনিয়র’ তাই আইএসএল গুরুত্ব পাচ্ছে না কমিটি অফ এডমিনিষ্ট্রেটরদের কাছে। তিন সদস্যের কমিটির পক্ষ থেকে সমস্ত রাজ্য ফুটবল সংস্থা এবং ফিফাকে যে চূড়ান্ত খসড়া পাঠানো হয়েছে, সেখানে বলা হয়েছে, আইলিগই ফেডারেশনের তরফ থেকে শীর্ষ লিগের মর্যাদা পাবে।

আরও পড়ুন: ইস্টবেঙ্গলের তরফে কেউ যোগাযোগই করেনি! বিরক্ত হয়ে এবার ক্লাব ছাড়লেন ক্যাপ্টেনও

বলা হচ্ছে, সিনিয়র মোস্ট লিগের স্বীকৃতি, অধিকার এবং সরাসরি নিয়ন্ত্রণ থাকবে ফেডারেশনের হাতে। সেই সঙ্গে চালু থাকবে রেলিগেশন এবং প্রমোশন। এশিয়ান চ্যাম্পিয়ন্স লিগে অংশগ্রহণের জন্য যে নিয়ম মেনে চলা আবশ্যক।

সেই সংবিধানে বলা হয়েছে, অন্য কোনও সংস্থাকে দায়িত্ব দিতে পারবে না ফেডারেশন। এমনটাও বলা হয়েছে। সুপ্রিম কোর্টে সিওএ-র এই ড্রাফট বিনা বাধায় কোনও চ্যালেঞ্জ ছাড়াই অনুমোদন পেলে আইলিগের শীর্ষ লিগের মর্যাদা পাওয়া কার্যত নিশ্চিত।

আরও পড়ুন: ইস্টবেঙ্গলে কি ফের কোচ হচ্ছেন আলেহান্দ্রো! এক টুইটেই জল্পনার দাবানল ছড়ালেন স্প্যানিশ বস

সেই ড্রাফট অবশ্য কনফ্লিক্ট অফ ইন্টারেস্ট হিসাবে বিবেচিত হওয়ার যাবতীয় কারণ থাকছে। ২০১৪ সাল থেকেই আইএসএল আয়োজন করছে ফেডারেশনের মার্কেটিং পার্টনার এফডিএসএল।

ফেডারেশনের সঙ্গে এফডিএসএল ২০১০-এ ৭০০ কোটি টাকার চুক্তি করেছিল। সেই চুক্তির বক্তব্য অনুযায়ী, আইএসএল হবে ‘দেশের সবথেকে মর্যাদা সম্পন্ন সিনিয়র ফুটবল লিগ’। সেই ক্লজ অনুযায়ী, আরও বলা হয়েছে, আইলিগ সাময়িক বা চিরস্থায়ী ভাবে বন্ধ করে দেওয়া যেতে পারে।

সুপ্রিম কোর্ট নিযুক্ত সিওএ কমিটির অন্যতম সদস্য এসওয়াই কুরেশি জানিয়েছেন, ২০১৯-এ এএফসি এবং ফেডারেশনের যে যুগ্ম বৈঠক হয়েছিল, সেখানে এই ড্রাফটের খসড়া পেশ করা হয়েছিল। স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে বৈঠকে বলা হয়েছিল, আইএসএল শীর্ষ লিগের মর্যাদা পাবে এবং ২০২৪/২৫ মরশুম থেকে প্রমোশন-রেলিগেশন চালু হবে ১০ বছর ফ্র্যাঞ্চাইজি চুক্তি শেষের পর।

ঘটনা হল, আইলিগ চ্যাম্পিয়ন গোকুলাম কেরালা এবং চার্চিল ব্রাদার্স সিওএ-কে স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, তাঁরা প্রস্তাবিত চুক্তির খসড়াপত্রে মোটেই সই করেননি। সিওএ-র এক কর্তা টাইমস অফ ইন্ডিয়াকে জানিয়েছেন, আইলিগকে শীর্ষ লিগের মর্যাদা দিয়ে এফডিএসএল-এর ক্ষমতা খর্ব করার উদ্দেশ্য থাকছে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: I league to get priority over isl in aiff coa draft

Next Story
নামি সংস্থার CEO থেকে বিদেশিকে বিয়ে! ললিত মোদির মেয়ের লাইফস্টাইল চোখ ধাঁধাবে