বড় খবর

“পুরো নগ্ন মনে হচ্ছিল”, সিডনিতে বর্ণবিদ্বেষ কাণ্ডে ভয়াবহ অভিজ্ঞতা ভারতীয় দর্শকের

সিডনি টেস্ট চলাকালীনই সিরাজ, বুমরা জাতিবিদ্বেষের শিকার হওয়ার পরে সরকারিভাবে অভিযোগ জানানো হয়। রাহানে মুখ খুলে বলে দেন, বর্ণবিদ্বেষের শিকার হওয়া কোনোভাবেই কাম্য নয়।

“মনে হচ্ছিল জামা-কাপড় খুলে নেওয়া হয়েছে। পুরো উলঙ্গ আমি।” সিডনিতে খেলা দেখতে গিয়ে বেনজির ঘটনার সাক্ষী হয়ে এমনই অভিজ্ঞতা প্রকাশ্যে আনলেন এক ভারতীয় দর্শক।

সিডনি টেস্ট বিতর্ক দগ্ধ। ভারতীয় ক্রিকেটারদের উদ্দেশ্য করে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করা হয়েছে। এমন বিস্ফোরক অভিযোগ ওঠে। পরিস্থিতি সামাল দিতে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া এবং আইসিসি তৎপর হয়। ভারতের দুই পেসার মহম্মদ সিরাজ এবং জসপ্রীত বুমরার উদ্দেশের দর্শকদের একাংশ নোংরা কটূক্তি করতে থাকে। তৃতীয় দিনের শেষেই ভারত সরকারিভাবে অভিযোগ জানায়। চতুর্থ দিনে এই কারণে খেলা ১০ মিনিট বন্ধও রাখতে হয়।

টিম ইন্ডিয়ার প্রতি এমন বিদ্বেষমূলক আচরণের প্রতিবাদ করতেই সিডনি ক্রিকেট মাঠে বর্ণবিদ্বেষের বিরুদ্ধে প্ল্যাকার্ড এবং ব্যানার নিয়ে ঢুকতে চেয়েছিলেন সিডনি প্রবাসী ভারতীয় কৃষ্ণ কুমার। তবে তাঁকে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। যে চার ব্যানার নিয়ে তিনি প্রবেশ করতে চেয়েছিলেন, তা হল- “শত্রুতা ভাল, বর্ণবিদ্বেষ নয়”, “কোনো বর্ণবিদ্বেষ নয় বন্ধু”, “বাদামি চামড়াদেরও দাম রয়েছে”, “ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া- আরো বৈচিত্র্য প্লিজ”। ভারতীয় দলের পাশে থাকতেই এই চার ব্যানার নিয়ে গিয়েছিলেন তিনি টেস্টের পঞ্চম দিনে। তাঁকে ক্রিকেট মাঠের নিরাপত্তাকর্মী উল্টে বলে বসে, “যেখান থেকে এসেছ, সেখানে ফিরে যাও।” অর্থাৎ ভারতে ফিরে আসার দিকে ইঙ্গিত করেছেন সেই নিরাপত্তাকর্মী।

সিডনি মর্নিং হেরাল্ড-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে নিজের অভিজ্ঞতা জানিয়ে কৃষ্ণ কুমার বলেছেন, “আমাকে গার্ড বললেন, এই ইস্যুতে কিছু বলার প্রয়োজন হলে যেখান থেকে এসেছ, সেখানে ফিরে যাও। যেগুলো নিয়ে গিয়েছিলাম, সেগুলো আমার পেপার রোল দিয়ে বানানো ছোট ছোট ব্যানার। এই ঘটনার বিচার চাই। বর্ণ বিদ্বেষের প্রতিবাদ করতে গিয়ে নিজেকে সেই সময় পুরো নগ্ন মনে হচ্ছিল। বোধহয় কেউ আমার জামাকাপড় খুলে নিয়েছে। আমাকে কেন বর্ণবিদ্বেষের প্রতিবাদ করতে বাধা দেওয়া হবে, বিশেষ করে সেই মাঠে যেখানে ইচ্ছাকৃতভাবে এমনটা করা হয়েছিল?”

কৃষ্ণ কুমার আরো জানিয়েছেন, “ইন্ডিয়ানদের, আমাকে ওরা কারি মাঞ্চার (যারা গাদাগাদা তরকারি খায়) বলে বিদ্রুপ করছিল। ওরা এটা বারবার চিৎকার করে বলছিল।”

এমন ঘটনার পরেই নিউ সাউথ ওয়েলশ-এ অভিযোগ দায়ের করেন সরকারিভাবে। তাঁর অভিযোগ আপাতত খতিয়ে দেখছে স্টেডিয়াম কর্তৃপক্ষ। এদিকে পৃথকভাবে আইসিসি ও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া ভারতের তোলা বর্ণবিদ্বেষের অভিযোগ তদন্ত করে দেখছে।

আরো পড়ুন: রাহানে-রোহিতরা পাত্তাই দিলেন না পন্থকে, মাঠেই অপদস্থ তারকা, রইল ভিডিও

 

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Sports news here. You can also read all the Sports news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: India vs australia indian fans refused entry at scg

Next Story
‘বোলার’ রোহিতকে ব্যঙ্গ কার্তিকের, বিতর্কিত পোস্ট কেকেআর তারকার
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com