বড় খবর

উত্তেজক ম্যাচে জয় ভারতের, এক ওভারেই ঘুরল খেলা

সিরিজে ১-২ পিছিয়ে খেলতে নেমেছিল টিম ইন্ডিয়া। ব্যাটিং ব্যর্থতার রোগ সারিয়েই জিততে চেয়েছিল টিম কোহলি।

ভারত: ১৮৫/৮ (২০ ওভার)

ইংল্যান্ড: ১৭৭/৮ (২০ ওভার)

দারুণভাবে চতুর্থ ম্যাচে জিতে সিরিজে ২-২ সমতা ফিরিয়ে আনল ভারত। মোতেরায় চলতি সিরিজে প্রথমবার প্রথমবার শুরুতে ব্যাটিং করা দল জয়লাভ করল। ভারতের ১৮৬ রান তাড়া করতে নেমে ইংল্যান্ড নির্ধারিত ২০ ওভারে তুলল ১৭৭/৮। ভারতের জয় এল ৮ রানের ব্যবধানে।

শার্দুল ঠাকুরের একটা ওভারেই ম্যাচে ফিরে এল ভারত। ভারতের ১৮৬ রান তাড়া করতে নেমে বেন স্টোকস-জনি বেয়ারস্টো-র যুগলবন্দি ম্যাচ প্রায় জিতিয়ে দিয়েছিল। চতুর্থ উইকেটে ৬৫ রান যোগ করে ইংল্যান্ডকে জয়ের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিয়েছিলেন। তবে ১৫তম ওভারে রাহুল চাহারকে হাঁকাতে গিয়ে আউট হয়ে ফিরে যান বেয়ারস্টো।

তারপরেই খেল দেখান শার্দুল। ১৭তম ওভারের প্রথম ২ বলে পরপর বেন স্টোকস এবং ইয়ন মর্গ্যানকে ফিরিয়ে। বিধ্বংসী ফর্মে থাকা বেন স্টোকস সেই সময় ২২ বলে ৪৬ রানে ব্যাটিং করছিলেন। মর্গ্যান সদ্য ক্রিজে এসেছিলেন।

তারপর ইংল্যান্ড ক্রমশ ম্যাচ থেকে হারিয়ে যায়। শেষ ওভারে ইংল্যান্ডের জয়ের জন্য দরকার ছিল ২৩ রান। শার্দুল ঠাকুরকে ছক্কা, চার হাঁকিয়ে ম্যাচে সাময়িক উত্তেজনা ফিরিয়ে এনেছিলেন আর্চার। কিন্তু ওখানেই শেষ। তার আগে জেসন রয় ৪০ করে ইংল্যান্ডকে দারুণ শুরুয়াত দেন। ভারতীয়দের মধ্যে ৩ উইকেট নেন শার্দুল ঠাকুর। ২ টো করে শিকার হার্দিক পান্ডিয়া এবং রাহুল চাহারের।

টসে হেরে এদিন ফের শুরুতে ব্যাট করতে হয় ভারতকে। দুই ওপেনার কেএল রাহুল এবং রোহিত শর্মা এদিনও ব্যর্থ। শুরুতেই ফিরে গিয়েছিলেন রোহিত শর্মা (১২ বলে ১২)। এর পরে রাহুল-সূর্যকুমার জুটি ভালোই টানছিলেন দলকে। ৪২ রান যোগও করে ফেলেন। তবে কেএল রাহুল আউট হয়ে যান স্টোকসের স্লো বল পড়তে না পেরে। কোহলি মাত্র ১ রান করে আদিল রশিদের শিকার হন। এগিয়ে এসে রশিদকে হাঁকাতে চেয়েছিলেন ক্যাপ্টেন। তবে গুগলি বুঝতে না পেরে ব্যাটে বলে সংযোগ না করতে পেরে স্ট্যাম্প আউট হয়ে যান কোহলি।

এরপরেই ভারত কর্তৃত্ব নিয়ে ম্যাচে ফেরে সূর্যকুমার-পন্থের জুটিতে। ভারত যখন ম্যাচের মোমেন্টাম ধরে নিয়েছে, সেই সময়েই আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্তের শিকার সূর্যকুমার। স্যাম কুরানের বল সুইপ করেছিলেন সূর্যকুমার। ডেভিড মালান বাউন্ডারি লাইনের ধার থেকে ছুটে এসে দুরন্ত ক্যাচ ধরেন। পরে রিপ্লেতে দেখা যায় বল তালুবন্দি করার সময় মাটিতে স্পর্শ করে যায় বলে। তবে সবাইকে অবাক করে দিয়ে তৃতীয় আম্পায়ার আউটের সিদ্ধান্ত বহাল রাখেন।

ক্যামেরা ড্রেসিংরুমের ধরলে দেখা যায় কোহলি স্বয়ং ক্ষোভ প্রকাশ করছেন সিদ্ধান্তে। সূর্যকুমার এদিন নিজের ইনিংসে হাফডজন বাউন্ডারি এবং তিনটে ওভার বাউন্ডারি হাঁকান। এরপরে শ্রেয়স আইয়ারের ঝোড়ো এবং পন্থের ক্যামিওয় ভর করে ভারত সওয়া দুশো রান খাড়া করে বোর্ডে।

ভারতের প্রথম একাদশ:
রোহিত শর্মা, কেএল রাহুল, সূর্যকুমার যাদব, বিরাট কোহলি, শ্রেয়স আইয়ার, ঋষভ পন্থ, হার্দিক পান্ডিয়া, ওয়াশিংটন সুন্দর, শার্দুল ঠাকুর, ভুবনেশ্বর কুমার, রাহুল চাহার

ইংল্যান্ডের প্রথম একাদশ: জেসন রয়, জস বাটলার, ডেভিড মালান, জনি বেয়ারস্টো, ইয়ন মর্গ্যান, বেন স্টোকস, স্যাম কুরান, ক্রিস জর্ডন, জোফ্রা আর্চার, আদিল রশিদ, মার্ক উড

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Sports news here. You can also read all the Sports news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: India vs england 4th t20 full match report and analysis

Next Story
বিতর্কিত সিদ্ধান্তে থামল উপেক্ষিত সূর্যকুমারের ফিফটি, তুঙ্গে ক্ষোভ, দেখুন ভিডিও
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com