scorecardresearch

বড় খবর

কেকেআরের কাছে হার, বাংলার ঋদ্ধিমানকে তুলোধোনা করলেন ওয়ার্নার

আফগানিস্তানের বিগ হিটার মহম্মদ নবির আগে খেলতে পাঠানো হয়েছিল ঋদ্ধিমানকে। সেই পরিকল্পনা যে ঠিক ছিল, তার সপক্ষে যুক্তি দিয়েছেন ওয়ার্নার।

কেকেআরের কাছে হার, বাংলার ঋদ্ধিমানকে তুলোধোনা করলেন ওয়ার্নার

কেকেআরের বিরুদ্ধে হারের পর দলের মিডল অর্ডারকে একহাত নিলেন অধিনায়ক ডেভিড ওয়ার্নার। নাইটদের কাছে সাত উইকেটে হেরে অজি অধিনায়ক জানালেন, “আমরা বিপক্ষ বোলারদের উপর আরো চাপ তৈরি করতে পারতাম। মিডল ওভারে আরো বাউন্ডারি হাকাতেই পারতাম আমরা।”

ওয়ার্নারের তির আসলে মনীশ পাণ্ডে (৩৮ বলে ৫১) ও ঋদ্ধিমান সাহার (৩১ বলে ৩০) ব্যাটিংয়ের দিকে। দুজনেই কেকেআরের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের সামনে সেভাবে ফোঁস করে উঠতে পারেননি।

আরো পড়ুন: স্থাপত্যবিদ থেকে ক্রিকেটার! বরুণের রহস্য বল চমকাল ওয়ার্নারকেও

চোট পাওয়া বিজয় শঙ্করের জায়গায় এদিন খেলানো হয় বঙ্গ ক্রিকেট তারকাকে। তবে নিজের ইনিংসে একাধিক ডট বল খেলেন। শেষ পর্যন্ত রান আউট হয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরে আসেন ঋদ্ধি।

সেইজন্যই ঋদ্ধিকে পরোক্ষে বার্তা দিয়ে ওয়ার্নার জানিয়েছেন, “যেভাবে আমরা একের পর এক ডট বল খেলেছি, তাতে আমি হতাশ। মিডল ওভারে ৩৫-৩৬ টা ডট বল খেলা হয়েছে। টি২০ ক্রিকেটে এটা কোনোভাবেই মেনে নেওয়া যায় না। আমাদের মানসিকতাই বদলাতে হবে।”

আফগানিস্তানের বিগ হিটার মহম্মদ নবির আগে খেলতে পাঠানো হয়েছিল ঋদ্ধিমানকে। সেই পরিকল্পনা যে ঠিক ছিল, তার সপক্ষে যুক্তি দিয়ে ওয়ার্নার বলেছেন, “আমি যখন আউট হয়ে যায়, তখন একজন ব্যাটসম্যানের প্রয়োজন ছিল যে পার্টনারশিপ গড়তে পারবে। এটা দুর্ভাগ্যজনক যে কেকেআর দারুণ বল করেছে লেংথের হেরফের ঘটিয়ে। আমরা সেভাবে বিগ হিট করতে পারিনি।”

অজি তারকা বলে দিয়েছেন, স্কোরবোর্ডে আর মাত্র ২০-৩০ রান যোগ করলেই তা দারুণ স্কোর হত। ওয়ার্নার নিজে ৩০ বলে ৩৬ করার পর কেকেআরের মিস্ট্রি স্পিনার বরুণ চক্রবর্তীর বলে আউট হয়ে যান।

Read the full article in ENGLISH

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Ipl 2020 david warner slams teams middle orders performance against kkr