scorecardresearch

বড় খবর

সৌরভ থেকে জয় শাহ, ডালমিয়া! বোর্ডে দৃষ্টিকটুভাবে কায়েম পরিবার তন্ত্র, রাজনৈতিক প্রভাব

বোর্ডে পরিবারতন্ত্র রীতিমত আলোচনার জন্ম দিয়েছে। প্রভাবশালী রাজনৈতিক নেতা অথবা বোর্ডের প্রাক্তন আধিকারিকরা বোর্ডের মসনদে।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার পুত্র মহানারায়মন সিন্ধিয়া গোয়ালিয়র ডিভিশন ক্রিকেটের সহ সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন চলতি মাসের শুরুতেই। ভারতীয় ক্রিকেটে যখন পারফরম্যান্সই নির্বাচনের একমাত্র মাপকাঠি, তখন এই মুহূর্তে বিখ্যাত বাবাদের পদাঙ্ক অনুসরণ করে ক্রিকেট প্রশাসনের অন্দরমহলে প্রবেশ বেশ কিছু অপ্রীতিকর প্রশ্ন উঠে আসছে।

পরিসংখ্যান বলছে, বোর্ডের ৩৮ জন সদস্যের এক তৃতীয়াংশই রাজনৈতিক প্রভাবশালী ব্যক্তিত্ব অথবা প্রাক্তন আধিকারিকদের আত্মীয়স্বজন। এরাই বর্তমানে বোর্ডের হর্তাকর্তা। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বোর্ডের এক কর্তা জানালেন, “এর আগে ক্রিকেট সংস্থাগুলোয় এত বেশি পরিবারতন্ত্র চালু ছিল না।”

সুপ্রিম কোর্ট নিযুক্ত বোর্ডের লোধা কমিটির বক্তব্যকে কার্যত বুড়ো আঙুল দেখিয়ে এই কীর্তি হয়ে চলেছে। ২০১৬-য় বোর্ডের সংবিধান ঝাড়াই বাছাইয়ের সময় এই বিষয়ে স্পষ্ট আপত্তি জানানো হয়েছিল। সরাসরি বলা হয়েছিল, ক্রিকেট প্রশাসনে ৭০ উর্দ্ধ ব্যক্তিরা থাকতে পারবেন না। ছয় বছর ক্রিকেট প্রশাসনে থাকার পর বাধ্যতামূলকভাবে তিন বছর কুলিং অফ পিরিয়ডে যাওয়ার নিদান দেওয়া হয়েছে।

ক্রিকেট প্রশাসনে পরিবারতন্ত্র কীভাবে কায়েম হয়েছে, দেখে নেওয়া যাক-

জয় শাহ – বোর্ডের বর্তমান সচিব, গুজরাট ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন যুগ্ম সচিব। বাবা অমিত শাহ গুজরাট ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট এবং বর্তমান কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

অরুণ ধুমল – বোর্ডের কোষাধ্যক্ষ। ভাই অনুরাগ ঠাকুর যিনি বোর্ডের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট এবং বর্তমানে যুব কল্যাণ এবং ক্রীড়া দফতরের প্রতিমন্ত্রী।

মহানারায়মন সিন্ধিয়া – গোয়ালিয়র ক্রিকেট ডিভিশনের ভাইস প্রেসিডেন্ট। বাবা জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া, মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট। বর্তমানে চম্বল ক্রিকেট সংস্থার প্রেসিডেন্ট।

ধনরাজ নাথওয়ানি – গুজরাট ক্রিকেট সংস্থার ভাইস প্রেসিডেন্ট। বাবা পরিমল নাথওয়ানি, গুজরাট ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন ভাইস প্রেসিডেন্ট।

প্রণব আমিন – বরোদা ক্রিকেট সংস্থার প্রেসিডেন্ট। বাবা চিরায়ু আমিন বরোদা ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট, অন্তর্বর্তীকালীন আইপিএল চেয়ারম্যান।

অজিত লেলে – বরোদা ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন সচিব। বাবা প্রয়াত জয়বন্ত লেলে বরোদা ক্রিকেট সংস্থা এবং বোর্ডের প্রাক্তন সচিব।

জয়দেব শাহ – সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট সংস্থার প্রেসিডেন্ট। বাবা নিরঞ্জন শাহ সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট সংস্থা এবং বোর্ডের প্রাক্তন সচিব।

অভিষেক ডালমিয়া – সিএবি’র প্রেসিডেন্ট। বাবা জগমোহন ডালমিয়া সিএবি, বিসিসিআই এবং আইসিসি প্রেসিডেন্ট।

সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় – বর্তমানে বোর্ডের প্রেসিডেন্ট। দাদা স্নেহাশিস গঙ্গোপাধ্যায় সিএবির সাম্মানিক সচিব। কাকা দেবাশিস গঙ্গোপাধ্যায় সিএবির কোষাধ্যক্ষ। বোর্ডের প্রেসিডেন্ট হওয়ার আগে সৌরভ সিএবির সচিব এবং প্রেসিডেন্টও ছিলেন।

রোহন জেটলি – ডিডিসিএ (দিল্লি এন্ড ডিস্ট্রিক্ট ক্রিকেট এসোসিয়েশন) প্রেসিডেন্ট। বাবা প্রয়াত অরুণ জেটলি ডিডিসিএ-র প্রেসিডেন্ট এবং আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সদস্য ছিলেন।

অদ্বৈত মনোহর – বিদর্ভ ক্রিকেট সংস্থার প্রেসিডেন্ট। বাবা শশাঙ্ক মনোহর, বিদর্ভ ক্রিকেট সংস্থা, বিসিসিআই এবং আইসিসির প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট।

মহিম ভার্মা – উত্তরাখন্ড ক্রিকেট সংস্থার সচিব। বাবা পিসি ভার্মা, উত্তরাখন্ড ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন সচিব।

সঞ্জয় বেহরা – ওড়িশা ক্রিকেট সংস্থার সচিব। বাবা আশীর্বাদ বেহরা ওড়িশা ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন সচিব।

নিধিপতি সিংহানিয়া – উত্তরপ্রদেশ ক্রিকেট সংস্থার প্রেসিডেন্ট। কাকা প্রয়াত যদুপতি সিংহানিয়া ইউপি ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট।

বিপুল ফাদকে – গোয়া ক্রিকেট সংস্থার সচিব। বাবা বিনোদ ফাদকে গোয়া ক্রিকেট সংস্থার প্রাক্তন সচিব।

কেছেনগুলি রিও – নাগাল্যান্ড ক্রিকেট সংস্থার প্রেসিডেন্ট। বাবা নিউফিউ রিও, এনসিএ প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট এবং নাগাল্যান্ডের মুখ্যমন্ত্রী।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Ipl news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Bcci administration political influence sourav ganguly jay shah avishek dalmiya