scorecardresearch

বড় খবর

আবেশের পেসে থেঁতলে গেল KKR! জঘন্য ব্যাটিংয়ে চুরমার প্লে অফের স্বপ্ন

আবেশ খান, জেসন হোল্ডার এবং ব্যাট হাতে কুইন্টন ডিককের দাপটে কেকেআর বিশ্রী হার হজম করে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নেওয়া নিশ্চিত করে ফেলল।

লখনৌ সুপার জায়ান্টস: ১৭৬/৭
কেকেআর: ১০১/১০

কুৎসিততম ব্যাটিং। সেই সঙ্গে জঘন্য বোলিং। মরসুমের খারাপতম পারফর্ম করে কেকেআর এবারের মত প্লে অফের আগেই বিদায় নেওয়া নিশ্চিত করে ফেলল লখনৌ সুপার জাযান্টসের বিরুদ্ধে। ১৭৭ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে নাইট রাইডার্স ধসে গেল মাত্র ১০১ রানে। ব্যাট করতে নেমে কেকেআর ক্রিজে টিকল মাত্র ১৪.৩ ওভার। আবেশ খান- জেসন হোল্ডারদের সামনে কেকেআর অসহায়ভাবে আত্মসমর্পণ করে বসল। লখনৌয়ের দুই সিমারই তিনটে করে উইকেট নিয়ে ধ্বংস করে দিলেন কেকেআরকে। ৭৫ রানে হেরে সেই সঙ্গে শনিবারই প্লে অফ স্বপ্নে ফুলস্টপ পড়ে গেল।

প্রথম ওভারেই বাবা ইন্দ্রজিৎ-এর প্রস্থান পর্ব দিয়ে শুরু। তারপর খেলা যত গড়িয়েছে কেকেআর ব্যাটিং অর্ডারে আয়ারাম-গয়ারাম পর্ব শুরু হয়েছে। আন্দ্রে রাসেল (১৯ বলে ৪৫) এবং সুনীল নারিন (১২ বলে ২২) না থাকলে কেকেআরের দলগত স্কোর হাফসেঞ্চুরি পেরোত কিনা, সন্দেহ।

তিনজন রানের খাতা খোলার আগেই আউট। দুই অঙ্কের রানে পৌঁছেছেন মাত্র তিনজন। বাকিদের স্কোর পরপর লিখলে অনেকটাই টেলিফোন নম্বরের মত দেখায়- ০,৬,২,৬, ০, ১, ০,২! এতেই প্রকট কেকেআর কীভাবে চূড়ান্তভাবে লাঞ্ছিত হল পুণের এমসিএ স্টেডিয়ামে।

আরও পড়ুন: মুম্বইয়ে চিরতরে বাদ পড়ছেন পোলার্ড! প্রাক্তন তারকার মন্তব্যে জল্পনা তুঙ্গে

কেকেআর আগের রাজস্থান ম্যাচের জয়ী একাদশ অপরিবর্তিত রেখে দল সাজিয়েছিল। চোটের কারণে উমেশ যাদবের বদলে দলে এসেছিলেন হর্ষিত রানা। সেই হর্ষিত রানা ২ ওভারে ২৭ রান খরচ করার পরে বাকি ওভার বল করানোর সাহস পেলেন না ক্যাপ্টেন শ্রেয়স আইয়ার। আন্দ্রে রাসেল অন্য ম্যাচের মত এদিনও নাইটদের মধ্যে সফলতম। ৪ ওভারে মাত্র ২২ রানের বিনিময়ে ২ উইকেট তুললেন। শিভম মাভি ৪ ওভারে ৫০ রান খরচ করে বসলেন।

১৮ ওভার শেষে লখনৌ ১৪২-এ আটকে ছিল। রাজস্থানকে যেভাবে ১৬০-এর মধ্যে বেঁধে রেখেছিল নাইটরা, সেরকম পারফরম্যান্সের পুনরাবৃত্তি করতে চলেছেন নাইটরা, ভাবা হচ্ছিল। তবে ম্যাচের গতিপথ পুরো বদলে দিল ১৯ তম ওভার। শিভম মাভি সেই ওভারে পাঁচ ছক্কা হজম করলেন। ৩০ রান খরচ করে রাশ পুরোটাই আলগা করে দিলেন। ওভারের প্ৰথম তিন বলে স্টোয়িনিস তিনটে টানা ছক্কা হাঁকানোর পরে চতুর্থ বলে আউট হয়ে যান অজি তারকা। ক্রিজে নেমে শেষ দুই বলেই পরপর ছক্কা হাঁকিয়ে মাভিকে তুলোধোনা কর ছাড়েন।

লখনৌয়ের হয়ে ব্যাট হাতে প্রায় সকলেই কিছু না কিছু অবদান রাখলেন। ডিকক ২৯ বলে ৫০ করে যাওয়ার পরে দীপক হুডা (২৭ বলে ৪১), ক্রুনাল পান্ডিয়া (২৭ বলে ২৫), বাদোনি (১৫), মার্কাস স্টোয়িনিস (১৪ বলে ২৮), জেসন হোল্ডার (৪ বলে ১৩) করে যান।

কেকেআরকে হারিয়ে লিগ টেবিলের শীর্ষে পৌঁছে গেল লখনৌ। গুজরাটের সঙ্গে সমসংখ্যক ১৬ পয়েন্টে থাকলেও রান রেটে কেএল রাহুল ব্রিগেড অনেকটা এগিয়ে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Ipl news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Ipl 2022 helpless kkr succumb to lsgs avesh khan quinton de kocks superlative performance