scorecardresearch

বড় খবর

সেরার সেরা সাইডব্যাককে ছিনিয়ে বাগানকে জবাব বেঙ্গালুরুর! সাত বছর পর কলকাতা ত্যাগ সুপারস্টারের

তিন বছরের জন্য বেঙ্গালুরু এফসিতে সই করলেন এটিকে মোহনবাগানের প্রবীর দাস। বড় ধাক্কা সবুজ মেরুন শিবিরের।

দুপুরের দিকেই এটিকে মোহনবাগান আশিক কুরুনিয়ানের চুক্তির কথা প্রকাশ্যে এনেছিল। বিকেল গড়াতে না গড়াতেই পাল্টা দিল বেঙ্গালুরু এফসি। আশিককে হারালেও বেঙ্গালুরু তুলে নিল সবুজ মেরুনের ঘরের ছেলে প্রবীর দাসকে। আসন্ন মরশুম থেকে প্রবীরকে সুনীল ছেত্রীদের সঙ্গে খেলতে দেখা যাবে।

তিন বছরের জন্য বঙ্গ তারকা ফুটবলারকে সই করালো ব্লুজ-রা। সোদপুরের প্রবীরের উত্থান পৈলান এরোজ থেকে। কলকাতা ছাড়াও খেলেছেন গোয়ান ক্লাবেও। বিশাল অভিজ্ঞতা থাকা প্রবীরকে তুলে নিয়ে বেঙ্গালুরু যে সপ্তাহের শুরুতেই চমক দিল তা এই বলার অপেক্ষা রাখে না।

২০১২/১৩ সিজনে প্রবীর পৈলানের জার্সিতে নজরকাড়া ফুটবল খেলেছিলেন। সেখান থেকে নাম লেখান ডেম্পোয়। তারপর আর ফিরে তাকাতে হয়নি। আইলিগ থেকে সরাসরি আইএসএলে খেলেন টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী বছরেই। লোনে সেবার নেমেছিলেন এফসি গোয়ার হয়ে। তারপরে লোনে চলে যান দিল্লি ডায়নামোজে।

আরও পড়ুন: ইউরোপে যুব স্তরে খেলা দেশের সেরা দুই প্রতিভা এবার বাগানে! দলবদলে সবুজ-মেরুন চমক

দিল্লি থেকে কলকাতায় প্রত্যাবর্তন করেন মোহনবাগানের হয়ে খেলবেন বলে। তারপরে এটিকে। পৃথক পৃথকভাবে এটিকে এবং মোহনবাগানে খেলার পরে এটিকে-মোহনবাগানের জার্সিও চাপিয়েছেন সংযুক্তির পরবর্তী পর্যায়ে। সবমিলিয়ে টানা সাত বছর কলকাতায় কাটিয়েছেন প্রবীর।

২০১৯/২০ আইএসএল সিজনে প্রবীর দাস এসিস্ট করার নিরিখে দ্বিতীয় হয়েছিলেন। সেবার পাঁচটি গোলের ক্ষেত্রেই অবদান ছিল তাঁর। সেবার এটিকের জার্সিতে আইএসএলের খেতাব জয়ের স্বাদও পান তিনি। শেষ দু-বছর এটিকে মোহনবাগানের হয়ে ৩৯টি ম্যাচ খেলেছেন।

আরও পড়ুন: তিরির হাত ধরে স্পেনে সম্মানিত সবুজ মেরুন জার্সি! বিদেশে বেনজির স্বীকৃতি ভারতীয় ফুটবলকে

২০১২-য় এএফসির অনুর্দ্ধ-১৯ পর্যায়ে খেলার সময়েই ভারতের যুব দলে জায়গা পান। তুর্কিমেনিস্তানের বিরুদ্ধে যুব এএফসি কাপের কোয়ালিফায়ারে অভিষেক ঘটে তাঁর। অনুর্দ্ধ-২৩ জাতীয় দলে অভিষেক ঘটে সিরিয়ার বিরুদ্ধে এএফসির অনুর্দ্ধ-২৩ চ্যাম্পিয়নশিপের কোয়ালিফায়ারে।

আইএসএল এবং ফেডারেশন কাপ জয়ী তারকা বেঙ্গালুরুতে সই করার পরে বলে দিলেন, “প্ৰথম থেকেই বেঙ্গালুরু এফসির ফুটবল পছন্দ করতাম। ক্রান্তিবীরা স্টেডিয়ামে আগেও খেলেছি। সমর্থকদের উৎসাহ বরাবর বাড়তি এনার্জি এনে দেয়। বেঙ্গালুরু এফসির জার্সিতে মাঠে নামার জন্য মুখিয়ে রয়েছি। ক্লাবের সাফল্যের শরিক হতে বদ্ধপরিকর। তাঁদের আকাঙ্খার জন্য আমার ওপর আস্থা রাখার জন্য ক্লাবের মালিক এবং ম্যানেজমেন্টকে ধন্যবাদ জানাতে চাই।”

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Isl transfer bengaluru fc signs atkmbs side back prabir das on three year deal