scorecardresearch

বড় খবর

ফ্রান্সেই চরম অপমানিত জিদান, ক্ষোভে ফুঁসে উঠলেন এমবাপেও

জিদানকে চূড়ান্ত অপমান ফ্রান্সের প্রধানের, পাশে দাঁড়ালেন এমবাপে

ফ্রান্সেই চরম অপমানিত জিদান, ক্ষোভে ফুঁসে উঠলেন এমবাপেও

ফ্রান্সেই চূড়ান্ত অপমানিত হতে হয়েছিল জিনেদিন জিদানকে। ফ্রান্স ফুটবল সংস্থার প্রধান নোয়েল লে গ্রায়েত রবিবার জিদানকে নিয়ে বিষ্ফোরক মন্তব্য করে বসেন। তারপরেই জিদানকে সমর্থন করতে মাঠে নামলেন কিলিয়ান এমবাপে।

ওয়ার্ল্ড কাপে ফ্রান্সের তারকা এমবাপে টুইটারে লিখে দেন, জিদান মানেই ফ্রান্স। একজন কিংবদন্তিকে এভাবে অসম্মান করা যায় না।”

প্রাক্তন প্লে মেকার জিনেদিন জিদানকে সর্বকালের অন্যতম শ্রেষ্ঠ ফুটবলার হিসাবে গন্য করা হয়। ১৯৯৮-এ ফ্রান্সকে প্ৰথমবার বিশ্বকাপ জিততে সাহায্য করেন কিংবদন্তি। ২০০০-এ জিদানের হাত ধরেই লে ব্ল্যুজ-রা ইউরোপীয়ান চ্যাম্পিয়নশিপ জেতে। এমবাপের মতই তিনিও দুটো ওয়ার্ল্ড কাপ ফাইনালে গোলের নজির রয়েছে তাঁর। একবার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পাশাপাশি এমবাপের মতই একবার রানার্স হন।

আরও পড়ুন: মেসির সঙ্গে পুরনো শত্রুতার জের! দেশ আর্জেন্তিনা নয়, ফ্রান্সকেই চ্যাম্পিয়ন চেয়েছিলেন তেভেজ

ফ্রান্সের ফুটবল প্রধান নোয়েল ল্য গ্রায়েত কিছুদিন আগেই ম্যানেজার দিদিয়ের দেশ-এর চুক্তি বাড়িয়ে দিয়েছেন ২০২৬ পর্যন্ত জাতীয় দলের কোচের পদে। তিতে সরে যাওয়ার পর ব্রাজিলের পরবর্তী কোচ হিসেবে তীব্রভাবে ভেসে উঠছে জিদানের নাম। এই বিষয়েই ফ্রান্সের এক রেডিও শো-তে জিদানকে প্রশ্ন করা হয়েছিল। ল্য গ্রায়েত আরএমসি-তে বলে দেন, “ও যদি ব্রাজিলে যায়, আমি অবাকই হব। তবে ওঁর যা খুশি তা উনি করতেই পারেন। ওঁর সঙ্গে কখনই আমার সাক্ষাৎ হয়নি। আমরা কখনই দিদিয়েরকে ছাড়তে চাইনি। জিদান যদি ব্রাজিলে যায়, তাহলে কি আমি হতাশ হব? আমার সত্যি কিছু যায় আসে না। উনি যেখানে খুশি বড় দলে, কোনও জাতীয় দলে যেতেই পারেন। জিদান কি আমার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেছিল? একদমই নয়। ও ফোন করলে আমি ফোন-ই তুলতাম না।”

ফ্রান্সের ক্রীড়ামন্ত্রী আমেলি ওদিয়া কাস্তেরার সঙ্গে একদমই সম্পর্ক ভাল নয় নোয়েল ল্য গ্রায়েত-এর। তিনি আরও একধাপ এগিয়ে জিদানের কাছে গ্রায়েত-কে ক্ষমা চাইতে বলেছেন। এমনকি ফেডারেশনের সভাপতি পদ উল্লেখ করার সময়েই ইনভার্টেড কমা ব্যবহার করেন। যাতে বিতর্ক আরও তীব্র হয়েছে। তাঁর টুইট বয়ান, “খেলার একজন কিংবদন্তিকে চূড়ান্ত লজ্জাজনক অপমান। যাতে আমরা সকলেই আহত। ফ্রান্সের একজন ক্রীড়া সংস্থার ‘প্রেসিডেন্টের’ এমন মন্তব্য করা উচিত নয়। অনুগ্রহ করে জিদানের কাছে ক্ষমা চেয়ে নিন।”

এর আগে ফরাসি ফুটবল সংস্থার প্রধান লা গ্র্যায়েতের বিরুদ্ধে যৌন অপরাধের অভিযোগ উঠেছিল। তারপরেই ফরাসি ফুটবল সংস্থার বিরুদ্ধে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছিলেন ক্রীড়ামন্ত্রী।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Kylian mbappe defends great zinedine zidane after france chief noel le grat disrespectful comment