scorecardresearch

বড় খবর

দু-দিনেই টেস্ট জিতে ইতিহাস ভারতের! পিচ নিয়ে বিতর্ক থামছেই না

বিতর্কের পিচেই ভারত দ্বিতীয় দিনে তৃতীয় টেস্ট জিতে ফেলল। মাত্র ৪৯ রান প্রয়োজন ছিল ভারতের।

দু-দিনেই টেস্ট জিতে ইতিহাস ভারতের! পিচ নিয়ে বিতর্ক থামছেই না

ইংল্যান্ড: ১১২/১০ ও ৮১/১০

ভারত: ১৪৫/১০ ও ৪৯/০

দু-দিনও নয় পুরোপুরি। পাঁচ সেশনে দেড় দিনেই জিতে গেল ভারত। পাঁচদিনের টেস্ট মাত্র দু দিনেই খতম করে ফেলল ভারত। মোতেরার আলোচিত পিচে ভারতের সামনে জয়ের জন্য টার্গেট ছিল মাত্র ৪৯ রান। কোনো উইকেট না হারিয়েই ভারত সেই রান স্কোরবোর্ডে তুলে ফেলল। ১০ উইকেট হাতে নিয়ে এল ভারতের জয়। শুভমান গিল ১৫ এবং রোহিত শর্মা ২৫ রানে অপরাজিত থাকলেন। রুটের বলে ওভার বাউন্ডারি হাঁকিয়ে জয়সূচক রান তুলে নেন হিটম্যান।

রাঙ্ক টার্নারে প্রথম ইনিংসে ব্যাট হাতে সাবলীল ৬৬ করে গিয়েছিলেন রোহিত শর্মা। আর দ্বিতীয় ইনিংসেও ওয়ানডের মেজাজে ব্যাট করে রোহিত এমন পিচে করে গেলেন ২৫।

আরো পড়ুন: মোদি স্টেডিয়ামে কীভাবে আদানি-রিল্যায়েন্স এন্ড! আসল রহস্য জানা গেল এবার

তবে ভারতের দুরন্ত জয়ের নায়ক কেরিয়ারের মাত্র দ্বিতীয় টেস্ট খেলতে নামা অক্ষর প্যাটেল। দুই ইনিংস মিলিয়ে এগারো শিকার তরুণ স্পিনারের। ম্যাচের সেরাও তিনি।

প্রথম দিনের মত এদিনও ইংরেজদের ঘাতকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হন তিনি। গুড লেংথে বল করে গতির হেরফের ঘটিয়ে বল দারুণ সক্ষমতায় মিক্স আপ করে ইংরেজদের ধ্বংস করে দিয়েছেন একাই। অন্যপ্রান্তে দোসর হিসাবে পাশে পেয়েছেন অশ্বিনকে। তবে অশ্বিন নন, ঘরের মাঠ মোতেরার পিচে একাই দুই দলের মধ্যে তফাৎ গড়ে দিয়েছেন তিনি।

অক্ষরের ১১উইকেট শিকারের সঙ্গে রবিচন্দ্রন অশ্বিনও দুই ইনিংস মিলিয়ে ৭ উইকেট দখল করলেন। বিপক্ষের ২০ উইকেটের ১৯টিই দখল করলেন স্পিনাররা। সেইসঙ্গে এদিন জোফ্রা আর্চারকে আউট করার সঙ্গেই কেরিয়ারের ৪০০ টেস্ট উইকেট নেওয়ার মাইলফলক গড়ে ফেলেন তিনি। দ্রুততম ৪০০ উইকেট শিকার করার নিরিখে তিনি আপাতত দ্বিতীয় স্থানে। শীর্ষে কিংবদন্তি মুথাইয়া মুরলিধরণ। চতুর্থ ভারতীয়।হিসাবে এই কীর্তি গড়লেন অশ্বিন। তার আগে অনিল কুম্বলে (৬১৯), কপিল দেব (৪৩৪), হরভজন সিং (৪১৭) ৪০০ উইকেটের ক্লাবে পৌঁছেছিলেন।

এর আগে ভারত ২০১৮ সালে আফগানিস্তানকে দুদিনের মধ্যে হারিয়ে টেস্ট জিতেছিল। ইংল্যান্ড দু-দিনের মধ্যে শেষবার টেস্ট হারে ঠিক ১০০ বছর আগে, ১৯২১-এ অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে।

ভারতের জয়েও আবার প্রশ্ন উঠে গিয়েছে আন্ডারপ্রিপেয়ার্ড পিচ নিয়ে। প্রশ্ন উঠে গেল মোতেরার পিচ আন্তর্জাতিক ম্যাচ আয়োজন করার উপযুক্ত কিনা, তা নিয়েই। প্রথম দিনে দুই দলের ১৩ উইকেটের পর এদিন মাত্র দুটো সেশনেই ১৭ উইকেট! পিচ নিয়ে আয়োজক হিসাবে বিসিসিআই যে অস্বস্তিতে পড়বে, তা লিখে দেওয়াই যায়। যদিও আইসিসি সাফ জানিয়ে দিয়েছে, পিচের জন্য কোনো পয়েন্ট কাটা হবে না ভারতের।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Motera test india wins day night pink ball test within two days