scorecardresearch

বড় খবর

দিনের খেলার বাছাই খবর: স্যামিকে ‘কালু’ বলেন ইশান্ত, কার্লসেনকে চমক টিনএজারের

আজকের দিনের খেলার সেরা খবর পড়ুন এক ক্লিকে। স্যামির বক্তব্যের প্রমাণ মিলল ইশান্তের টুইটে। ম্যাগনাস কার্লসেনকে চমকে দিয়ে শিরোনামে ভারতের সারিন। নিশামের টুইট।

আইপিএলে বর্ণবিদ্বেষের অভিযোগ এনেছিলেন ড্যারেন স্যামি। তাঁকে এবার পাল্টা দিলেন ইরফান পাঠান থেকে পারভেজ রসুল। যদিও স্যামিকে ‘কালু’ বলা ইশান্তের পোস্ট ভাইরাল। এদিকে, দাবার কিংবদন্তি ম্যাগনাস কার্লসেনকে অনলাইন দাবায় তীব্র চ্যালেঞ্জ ছুড়ে শিরোনামে ভারতীয় টিনএজার। পাশাপাশি মহিলাদের বিশ্বকাপ আয়োজনে বিড প্রত্যাহার ব্রাজিলের। এদিকে এশিয়ান কাপের ভবিষ্যৎ এখনও জানা গেল না। বাচ্চাকে নিয়ে দুঃস্বপ্ন ক্রোমার।

ভাইরাল ইশান্তের পুরোনো পোস্ট

জোর বিতর্ক বাধিয়ে দিয়েছেন ড্যারেন স্যামি। আইপিএলে বর্ণবিদ্বেষের প্রসঙ্গ তুলে হইচই ফেলে দিয়েছেন ক্যারিবিয়ান তারকা। স্যামির দাবি প্রাক্তন সানরাইজার্স সতীর্থ ইরফান পাঠান কিংবা পারভেজ রসুল উড়িয়ে দিলেও সমস্যার শেষ এখনই হচ্ছে না। বিতর্কের সময়েই ইশান্ত শর্মার একটি ইনস্টাগ্রাম পোস্ট ভাইরাল হয়েছে। সেই পোস্টে দেখা যাচ্ছে স্যামিকে ‘কালু’ বলে সম্ভোধন করেছেন সানরাইজার্স টিম মেট ইশান্ত শর্মা।

স্যামি অভিযোগ করে বলেছিলেন, তাঁর বেশ কিছু আইপিএল টিমমেট তাকে ‘কালু’ বলে ডাকতেন। অনেকেই আবার সেই সম্ভোধন শুনে হাসাহাসি করত। স্যামির বক্তব্যকে মান্যতা দিতেই ইশান্ত শর্মার সেই পুরোনো ইন্সটা-পোস্ট ভাইরাল।

সেখানে দেখা যাচ্ছে, ২০১৪ সালের সানরাইজার্স এর চার ক্রিকেটারকে- ড্যারেন স্যামি, ইশান্ত শর্মা, ভুবনেশ্বর কুমার এবং ডেল স্টেইনকে। ২০১৪ সালের ১৪ মে সেই ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেছিলেন তিনি। ক্যাপশনে লেখা, “আমি, ভুবি, কালু এবং গান রাইজার্স।” এরপরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই পোস্ট ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। পুরোনো পোস্টে স্যামিকে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করার জন্য তুলোধনা করা হচ্ছে ইশান্ত শর্মাকে।

স্যামির অভিযোগ মানছেন না পাঠান

৪৮ ঘন্টা আগেই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছিলেন ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটার ড্যারেন স্যামি। আমেরিকার বেনজির বর্ণবিদ্বেষ কাণ্ডের প্রেক্ষিতে সরাসরি আইপিএলের দিকে আঙুল তুলেছিলেন। জানিয়ে দেন, আইপিএলে সানরাইজার্সের হয়ে খেলার সময় তাকে বর্ণবিদ্বেষের শিকার হতে হয়েছে।

স্যামির সেই অভিযোগের পাল্টা এবার ইরফান পাঠান, পারভেজ রসুল জানিয়ে দিলেন, এমন কোনো বিষয়ের কথা জানা নেই। ২০১৪-র আইপিএলে সানরাইজার্স এর জার্সিতে খেলেছেন পাঠান। তিনি এদিন ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানিয়ে দেন, “যদি সেরকম কিছু হত, তাহলে নিশ্চয়ই আমাদের নজরে আসত। কিংবা টিম মিটিংয়ে এই বিষয়ে আলোচনা হত। এমন কোনো ঘটনার কথা আমার জানা নেই। এই মন্তব্যের দায়িত্ব ওকেই নিতে হবে।”

স্যামির বর্ণবিদ্বেষের অভিযোগ মানছেন না কাশ্মীরের তারকা ক্রিকেটার পারভেজ রসুলও। তিনি সাফ জানিয়েছেন, “দলে খেলার সময় কখনো আমার চোখে এমনটা ধরা পড়েনি। আমি যে মরশুমে হায়দরাবাদের হয়ে খেলি সেবার এক ম্যাচে স্যামি ক্যাপ্টেনও হয়। তখন তো সেরকম কিছু বলেনি। টিম হিসাবে আমদের দলের পরিবেশ ভীষণ খোলামেলা ছিল। প্রত্যেক ক্রিকেটারই প্রাণবন্তভাবে একে অন্যের সঙ্গে মিশত। এমনকি স্যামিও বেশ বন্ধুত্বপূর্ণ ছিল। ওর সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলো খুব ভালো ছিলো।”

কার্লসেনকে কড়া চ্যালেঞ্জ ভারতীয় টিনএজারের

বর্তমান বিশ্বের এক নম্বর দাবাড়ু যে তিনি, তা নিয়ে কোনো সংশয় নেই। অবলীলায় প্রতিপক্ষকে বধ করতে ওস্তাদ তিনি। সেই বিস্ময় দাবাড়ু ম্যাগনাস কার্লসেনকেই শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বিতার মুখে ফেলে দিয়েছেন ভারতের বছর ষোলোর এক কিশোর। যা নিয়ে আপাতত দাবার বিশ্বে তুমুল হইচই। ভারতের সেই বিস্ময় কিশোর নিহাল সারিন এক মিনিটের একাধিক চেজ শুট আউটে মুখোমুখি হয়েছিলেন নরওয়ের কিংবদন্তির। ক্রিকেটের টি২০ র ধাঁচে দাবার সেই বুলেট গেমস এর পরে স্কোরকার্ড কার্লসেন ১৯, নিহাল সারিন ১৩।

শুধু এখানেই শেষ নয়, নিহাল সারিন গত সপ্তাহেই ব্লিৎজ গেমসে হারান কার্লসেনকে। ব্লিৎজ গেমসে দাবাড়ুরা প্রতিপক্ষকে মাত করার জন্য মাত্র ৩ মিনিট সময় পান।এরপরেই নিহাল সারিনকে দাবার ‘টি২০ স্পেশালিস্ট নামে ডাকা শুরু হয়ে গিয়েছে। স্বয়ং কার্লসেন ভারতীয় দাবাড়ুকে বলেছেন, “অন্যতম সেরা ব্লিৎজ খেলোয়াড়”।

দেশবাসীকে শুভেচ্ছা নিশামের

করোনা মুক্ত নিউজিল্যান্ড। সোমবারই দেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তরফে বলা হয়েছে, শেষ করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি সুস্থ হয়ে ফিরে গিয়েছেন। এরপরেই নিউজিল্যান্ড আপাতত করোনা মুক্ত। সোমবারের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, নিউজিল্যান্ডে আপাতত একজন ব্যক্তিও করোনা সংক্রমণের কবলে নেই। শেষ ১৭ দিন নতুন কোনো করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির সন্ধানও পাওয়া যায়নি।

করোনা মুক্ত হওয়ার পরই ফার্ন পাতার দেশ আপাতত সেলিব্রেশনের মেজাজে। স্পোর্টস স্টেডিয়ামে ঠাসা ভিড় করা হোক, বা মিউজিক্যাল কনসার্ট এ একে অন্যকে আলিঙ্গন করা, যাতায়াতের সময় কড়া নিয়মবিধি মুছে ফেলা- বিশ্বের প্রথম দেশ হিসাবে এমনটাই করতে চলেছে নিউজিল্যান্ড।

দেশবাসীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন, তারকা ক্রিকেটার জিমি নিশাম। বিশ্বকাপের ফাইনালের ট্র্যাজিক হিরো সোমবার একটি টুইট করেন। যেখানে তিনি দেশবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়ে লেখেন কোন তিন কারণে নিউজিল্যান্ড করোনা মুক্ত হল। জিমি নিশাম লেখেন, “করোনা ভাইরাস মুক্ত নিউজিল্যান্ড! প্রত্যেককে শুভেচ্ছা। আরো একবার কিউয়িদের তিনটে বৈশিষ্ট্য নজরে এল- সঠিক পরিকল্পনা, দৃঢ়তা এবং কাজের প্রতি টিমওয়ার্ক!”

বিশ্বকাপে বিড প্রত্যাহার ব্রাজিলের

করোনা ভাইরাসে ব্যাপকভাবে বিপর্যস্ত। তাই আর্থিক অনিশ্চয়তার কারণ দেখিয়ে ব্রাজিল ফুটবল ফেডারেশন জানিয়ে দিল ২০২৩ এ মহিলা ফুটবল বিশ্বকাপের জন্য যে বিড দিয়েছিল তা প্রত্যাহার করে নিচ্ছে তারা। ফিফাকে জানিয়ে দিল, বিশ্বকাপ আয়োজনের জন্য কোনোরকম আর্থিক প্রতিশ্রুতির নিশ্চয়তা দিতে পারবে না। সেই সঙ্গে তাদের আরো সংযোজন, গত দশকে একাধিক প্রথমসারির স্পোর্টিং ইভেন্টের কারণে মহিলা বিশ্বকাপ আয়োজনে প্রতিবন্ধকতা তৈরি করেছে।

সোমবার নিজেদের প্রেস বিবৃতিতে ব্রাজিল ফুটবল সংস্থার তরফে আরো জানানো হয়, বিশ্বকাপ আয়োজনে যুগ্মভাবে অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড এবং জাপানের বিরুদ্ধে বিডের লড়াইয়ে তারা সমর্থন করবে কলম্বিয়াকে। এর আগে লাতিন আমেরিকার কোনো দেশ মহিলাদের বিশ্বকাপ আয়োজন করেনি। চলতি মাসের ২৩ তারিখেই এই বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

এসিসি বৈঠকে প্রথমবার সৌরভ

এশিয়া কাপ কি হবে নাকি হবে না, তা নিয়ে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল মঙ্গলবারেও কোনো সিদ্ধান্ত নিতে পারল না। করোনা সংক্রমণের প্রাক্কালে টুর্নামেন্ট বাতিলের সম্ভবনা থাকলেও তা এখনো পর্যন্ত সরকারিভাবে ঘোষণা করা হয়নি। সূচি অনুযায়ী সেপ্টেম্বর মাসে এশিয়া কাপ হতে চলেছে। এবার আয়োজক দেশ পাকিস্তান। ভারত পাকিস্তানে যেতে না চাইলে ইউএই-র মত নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলা হওয়ার কথা।

জানা গিয়েছে, আইসিসি টি২০ বিশ্বকাপ নিয়ে কী সিদ্ধান্ত নেয়, সেদিকেই তাকিয়ে রয়েছে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল। বিশ্বকাপ নিয়ে আইসিসি নিজেদের মতামত জানিয়ে দিলেই এশিয়া কাপ নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

এসিসির বোর্ড মিটিংয়ে সভাপতিত্ব করেন বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন। এই প্রথমবার মহাদেশীয় ক্রিকেট কমিটির বৈঠকে হাজির ছিলেন বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় এবং সচিব জয় শাহ।

বাচ্চাকে নিয়ে হয়রানির শিকার ক্রোমা

শহরের সমস্ত হাসপাতাল এখন করোনা মোকাবিলায় ব্যস্ত। অন্য রোগের চিকিৎসার জন্য মাথা খুঁড়তে হচ্ছে। সেই বিষয়েই প্রত্যক্ষ অভিজ্ঞতা হয়ে গেল কলকাতার জামাই ফুটবলার আনসুমানা ক্রোমার। নিজের সদ্যজাত বাচ্চাকে নিয়ে ক্রোমা আর তাঁর স্ত্রী পূজা ছুটলেন শহরের একপ্রান্ত থেকে অন্যত্র।

কয়েকদিন আগেই বাবা হয়েছেন ক্রোমা। তবে জন্মের পর থেকেই ক্রোমার কন্যা বিন্দুর শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়। জন্ডিসের লক্ষণ দেখা যায়। বর্তমানে পার্ক স্ট্রিটের এক হাসপাতালে অবশ্য ক্রোমার কন্যা সেরে উঠছে ধীরে ধীরে। এমনটাই জানালেন স্ত্রী পূজা।

একসপ্তাহ আগেই বিন্দু র জন্ম হয়। তবে তারপরে হঠাৎ শরীর খারাপ হয়ে পড়ায় শ্যামবাজারের সেই হাসপাতালেই নিয়ে যাওয়া হয় একরত্তিকে। বেড কম, এই অজুহাতে ফিরিয়ে দেওয়া হয় ক্রোমাদের। এরপর একাধিক হাসপাতালে ঘুরলেও ক্রোমাকে হতাশ হতে হয়।।শেষ পর্যন্ত পুলিশের হস্তক্ষেপে ক্রোমার মেয়েকে পার্ক স্ট্রিটের এক হাসপাতালে ভর্তি নেওয়া হয়।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Todays top news headlines sports latest updates 9 june