বড় খবর

আইপিএল শুরুর আগেই চ্যাম্পিয়ন নাইট রাইডার্স, মাঝরাতে হুল্লোড় শাহরুখেরও

কায়রণ পোলার্ড নিজের চার ওভারে চার উইকেট নিয়ে সেন্ট লুসিয়াকে মাত্র ১৫৪ রানে অলআউট করে দেন। পোলার্ড বাদে ফাওয়াদ আহমেদ এবং আলি খান জোড়া উইকেট নেন।

আইপিএল এখনো শুরুই হয়নি। তবে এর মধ্যেই শাহরুখের মুখে হাসি ফুটিয়ে চ্যাম্পিয়ন নাইট রাইডার্স। ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ জিতে নিল ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। আর এতেই উছ্বাস প্রকাশ করেছেন স্বয়ং শাহরুখ খান।

ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের ফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিল টিকেআর এবং সেন্ট লুসিয়া জৌকস। প্রথমে ব্যাট করে সেন্ট লুসিয়া স্কোরবোর্ডে তোলে ১৫৪। সেই রান তাড়া করতে নেমে লেন্ডল সিমন্স (৮৪) এবং ড্যারেন ব্রাভো (৫৮) অবিচ্ছেদ্য ১৩৮ রানের পার্টনারশিপ গড়ে নাইটদের জয় নিশ্চিত করেন।

আরো পড়ুন: আইপিএল ছাড়ার পরেই সর্বনাশ! ৪ কোটি টাকার প্রতারণার শিকার হরভজন

এই নিয়ে টুর্নামেন্টে একটাও ম্যাচ না হেরে টানা ১২টা ম্যাচ জিতে চ্যাম্পিয়নের শিরোপা পেল টিকেআর। সিপিএলে এমন রেকর্ড আর কোনো দলের নেই। সবমিলিয়ে চতুর্থবার ট্রফি জিতল শাহরুখের দল।

তার আগে কায়রণ পোলার্ড নিজের চার ওভারে চার উইকেট নিয়ে সেন্ট লুসিয়াকে মাত্র ১৫৪ রানে অলআউট করে দেন। পোলার্ড বাদে ফাওয়াদ আহমেদ এবং আলি খান জোড়া উইকেট নেন। শুরুতে অবশ্য ভালোই সূচনা উপহার দিয়েছিলেন সেন্ট লুসিয়ার দুই ওপেনার মার্ক ডয়েল এবং আন্দ্রে ফ্লেচার। দুজনে ৬৭ রানের পার্টনারশিপ গড়েন। তবে মিডল অর্ডারের ব্যর্থতায় সেই সূচনা আর বড় ইনিংসের মুখ দেখেনি।

ব্রাভো উইনিং স্ট্রোক মারার সঙ্গেই শাহরুখ আনন্দে আত্মহারা হয়ে যান। সঙ্গে সঙ্গে তিনি টুইট করেন, “আমি টিকেআর। আমরাই শাসন করি। দারুণ খেললে তোমরা ছেলেরা। তোমরা আমাদের গর্বিত করেছ। দর্শক ছাড়াই তোমরা পার্টি কোরো। লাভ ইউ।”

প্রসঙ্গত করোনা ভাইরাসের কারণে এবারের সিপিএল দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা হয়েছে। জৈব নিরাপদ পরিবেশে ত্রিনিদাদ ও টোব্যাগোর মাত্র দুটো ভেন্যুতেই এবারের ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের আয়োজন করা হয়েছিল।

Read the full article in ENGLISH

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Trinbago knight riders clinches cpl title for the record fourth time beating st lucia zouks

Next Story
চূড়ান্ত ডামাডোল! সরাসরি সাসপেন্ড দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড, সংশয়ে ক্রিকেটাররা
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com