scorecardresearch

আইপিএল নিয়ে চূড়ান্ত তৎপরতা বোর্ডের, সবুজ সঙ্কেত দেবেন অমিত শাহ-ই

সেপ্টেম্বর-অক্টোবরের উইন্ডোতে যদি আইপিএলের দিনক্ষণ ঠিক করে ফেলে বিসিসিআই। তাহলে ফ্র্যাঞ্চাইজিরা কয়েক সপ্তাহ আগেই ক্রিকেটার নিয়ে অনুশীলন শুরু করে দেবে।

সোমবারেই টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের স্থগিত করে দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছে আইসিসির তরফে। অক্টোবর-নভেম্বরে টুর্নামেন্ট চালু হওয়ার কথা ছিল। তবে সরকারিভাবে এমন ঘোষণার পরেই উল্লসিত আইপিএল প্রেমীরা। এরপর এই উইন্ডোতে আইপিএল আয়োজনে কার্যত কোনো বাধা রইল না। সম্ভবত সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতেই এই টুর্নামেন্ট খেলা হবে। আইসিসির বিবৃতি অনুযায়ী, কোভিড পরিস্থিতির অসুবিধার কারণে পিছিয়ে গিয়েছে বিশ্বকাপ।

জানা গিয়েছে, আইপিএল আয়োজনের পরবর্তী পদক্ষেপ হিসাবে বোর্ডের তরফে আপাতত কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের কাছে আবেদন জানাবে। প্রটোকল অনুযায়ী, বোর্ডকে শুধু স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকই নয়, একইসঙ্গে ক্রীড়ামন্ত্রক, বিদেশমন্ত্রীকেও এই বিষয়ে জানাতে হবে। তবে এই মুহূর্তে স্বাস্থ্যমন্ত্রকের সঙ্গে আলোচনা করে কোভিড বিষয়ক সমস্ত সিদ্ধান্ত নিচ্ছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।

বর্তমান পরিস্থিতিতে ভারতে যে আইপিএল আয়োজন করায় বোর্ড সবুজ সংকেত পাবে না, তা একপ্রকার নিশ্চিত। তবে বোর্ড কর্তারা মনে করছে, সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে। আগামী সপ্তাহেই বোর্ডের কর্তাদের সঙ্গে সম্ভবত বৈঠকে বসছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

বোর্ডের এক কর্তা বলছেন, ইউএই-তে আইপিএল আয়োজনের অন্যতম কারণ হল, সেখানকার দুই বিমান সংস্থা এমিরেটস এবং এতিহাদ এয়ারলাইন্স নিয়মিত বিমান পরিষেবা চালু করেছে। পাশাপাশি, অন্য দেশের মত ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইন নীতিও বলবৎ নেই সেখানে।

বোর্ডের তরফে আপাতত ফ্র্যাঞ্চাইজিদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলা হচ্ছে। জানা গিয়েছে, কেকেআর, মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স, দিল্লি ক্যাপিটালস এবং রাজস্থান রয়্যালস বেশ কিছুদিন আগে থেকেই ইউএই তে খেলার পরিকল্পনা সেরে ফেলেছে। তার আগে বোর্ড সমস্ত ক্রিকেটারদের নিয়ে দেশের কোনো আজ গ্রিন জোনে ক্রিকেটারদের নিয়ে ক্যাম্প করতে চায়।

আইপিএল চেয়ারম্যান ব্রিজেশ প্যাটেল ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানালেন, এখনো পর্যন্ত সূচি চূড়ান্ত করা হয়নি। “এক সপ্তাহের মধ্যেই আমরা গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠক আয়োজন করছি। সেখানেই দিনক্ষণ সংক্রান্ত যাবতীয় সূচি চূড়ান্ত করা হবে। আইপিএল আয়োজনের জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের অনুমতি পেলেই ফ্রাঞ্চাইজিদের জানিয়ে দেওয়া হবে সরকারিভাবে।” জানিয়েছেন তিনি।

টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে এত দেরি করায় আইসিসিকে একহাত নিয়ে ব্রিজেশ প্যাটেল আরো বলেছেন, “অনেক আগেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া যেত। এত দেরি করল কেন, তা এখনো জানি না। প্রত্যেক বোর্ড মেম্বারদের নিজস্ব নীতি মেনে চলার আরো সময় দেওয়া উচিত। আমরাও অনেক আগেই আইপিএল নিয়ে সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলতে পারতাম।”

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Sports news download Indian Express Bengali App.

Web Title: With t20 world cup gets postponed bcci thinking of ipl