বড় খবর

তিন মাস ইএমআই পিছনোর স্বস্তি কাড়তে আসরে সাইবার লুটেরা

মার্চ থেকে মে মাস পর্যন্ত দিতে হবে না ইএমআই। কিন্তু এই স্বস্তিতেও থাবা বসিয়েছে সাইবার লুটেরা।

লকডাউনের জেরে আর্থিক মন্দা শুরু হয়েছে বিশ্ব জুড়ে। তাই ঋণের বোঝা থেকে সাময়িক স্বস্তি দিতে, সাধারণ মানুষ ও শিল্প-ব্যবসায়ী সংস্থাগুলিকে ছাড় দিয়েছে ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক। মার্চ থেকে মে মাস পর্যন্ত দিতে হবে না ইএমআই। তবে, তিন মাস পরে সুদসহ ঋণ মেটাতে হবে। কিন্তু এই স্বস্তিতেও থাবা বসিয়েছে সাইবার লুটেরারা।

ঠিক কী করছে সাইবার জালিয়াতিরা?

‘তিন মাসের জন্য ইএমআই বন্ধ করতে চান, নাকি যা আছে তাই রাখতে চান?’ এমনতর কিছু প্রশ্ন করছে সাইবার জালিয়াতিরা। তারা এও জানাচ্ছে, যেহুতু লকডাউন চলছে, তাই তারা ফোন মারফত কাজ করছে। এরপর অ্যাকাউন্টের তথ্য জেনে ফোনে আসা ওটিপি জানাতে বলছে তাদের। এছাড়াও, মাসিক কিস্তির টাকা পরিশোধের জন্য তিন মাসের বর্ধিত সুবিধা নিতেও ফোন করছে। এক্ষেত্রেও ফোনে আসা ওটিপি চাইছে তারা।

ইতিমধ্যে গ্রাহকদের সতর্ক করা শুরু করেছে ব্যাঙ্কগুলি। সম্প্রতি, এক টুইটে ভারতীয় স্টেট ব্যাঙ্ক (এসবিআই) জানায়, সাইবার জালিয়াতিরা নতুন ফন্দিতে গ্রাহকদের ঠকাচ্ছে। এদের হাত থেকে বাঁচতে সর্বদা সতর্ক থাকুন। ইএমআই তিন মাসের জন্য স্থগিত করতে বা অতিরিক্ত ইএমআইয়ের সুবিধা পেতে ওটিপির প্রয়োজন হয় না।

এইডিএফসি ব্যাঙ্কের চিফ ইনফরমেশন সিকিউরিটি অফিসার জানিয়েছেন, “নতুন পদ্ধতিতে ব্যাঙ্ক গ্রাহকদের থেকে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছে সাইবার জালিয়াতরা। তাই ফোনে আসা কোনোরকম ওটিপি শেয়ার করবেন না। আরবিআই-এর নির্দেশিকা মেনে ইএমআই পরিশোধের সময়ের ছাড়ের সুযোগ আপনাকে দিতে গেলে ব্যাঙ্ক কোনও গ্রাহকের থেকে কখনওই ওটিপি, নেটব্যাঙ্কিং বা মোবাইল ব্যাঙ্কিং-এর পাসওয়ার্ড, কাস্টমার আইডি, ইউপিআই পিন নাম্বার চাইবে না।”

Get the latest Bengali news and Technology news here. You can also read all the Technology news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Cyber crime coronavirus emi scam alert online fraudsters

Next Story
করোনা পরিস্থিতিতে ‘হাইটেক’ বিয়ে, ভিডিও কলে চলল একের পর এক নিয়ম
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com