একুশেই মহাকাশে ভারতীয় মহিলার হাতে উড়বে দেশের পতাকা

দিন কয়েক আগেই ঠিক হয়, তিনজন মহাকাশচারীকে নিয়ে GSLV-Mk-3 পৃথিবী পৃষ্ঠ ছেড়ে উড়ে যাবে মহাকশের উদ্দেশ্যে। যাঁদের মধ্যে থাকবেন এক ভারতীয় মহিলা।

By: Amitabh Sinha New Delhi  Updated: Jan 10, 2019, 7:30:09 PM

এগিয়ে এলো মহাকাশে মানুষের হাতে ভারতীয় পতাকা ওড়ার দিন। ২০২২ নয়, ইসরো জানিয়েছে, ২০২১-এর মাঝামাঝি সময়েই গগনযান প্রকল্পের দৌলতে মহাকাশে পৌঁছবে ভারতীয় সভ্যতার ছোঁয়া। দিন কয়েক আগেই ঠিক হয়, তিনজন মহাকাশচারীকে নিয়ে GSLV-Mk-3 পৃথিবী পৃষ্ঠ ছেড়ে রওনা দেবে মহাকাশের উদ্দেশ্যে। যাঁদের মধ্যে থাকবেন এক ভারতীয় মহিলা। ইসরোর অন্যতম কর্মকর্তা কে সিভান ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে বলেন, কোন তিনজন মহাকাশচারী যাবে তার বাছাই পর্ব এখনও শুরু হয় নি।

তিনি বলেন, “আমরা চাই, স্পেস ফ্লাইটে মহিলার উপস্থিতি। গত বছর ১৫ অগাস্ট লালকেল্লার মঞ্চ থেকে প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, ভারতীয় পুত্র বা কন্যা, সবার অগাধ অধিকার রয়েছে স্পেস ফ্লাইটে যাত্রা করার। তবে এখনও আলোচনার পর্যায়ে রয়েছে মহাকাশযাত্রা। কারণ একজন মহাকাশচারীকে পাঠানোর আগে তাঁকে একাধিক ধাপ পার করতে হয়, দেখে নিতে হয় আদৌ তাঁরা পারবেন কিনা। অবশ্য এক্ষেত্রে ভারতীয় বায়ুসেনা ও অসামরিক বিমান বাহিনী প্রার্থী বাছাইয়ে সহায়তা করবে। রওনা দেওয়ার অনেক আগে থেকেই শুরু করতে হবে নির্বাচন পদ্ধতি।”

এখন অবধি প্রায় ৫৫০ জন মহিলা মহাকাশ বিজ্ঞানীর মধ্যে ৬০ জন মহিলা পাড়ি জমিয়েছেন মহাকাশে। যাঁদের মধ্যে রয়েছেন ভারতীয় বংশোদ্ভুত কল্পনা চাওলা, যিনি ২০০৩ সালে কলোম্বিয়া মহাকাশযান দুর্ঘটনায় নিহত হন।

আরও পড়ুন: সবুজ সংকেত পেল বাইশের গগনযান, মহাকাশে পাড়ি দেবেন তিন ভারতীয়

সাত দিনের মহাকাশ অভিযানে তিনজনকে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে ইসরো। কিন্তু প্রথম ফ্লাইট সম্পূর্ণ করে সকলকে পাঠানোর সম্ভাবনা কম বলেই জানিয়েছেন সিভান। প্রথম ফ্লাইটে কম সংখ্যক মহাকাশচারী রওনা দেবেন। এবং সাধারণ মানুষকে এই মূহুর্তে নেওয়ার ভাবনাচিন্তা নেই।

সিভান বলেন, ভারতীয় বিমান বাহিনীর ১০ জন প্রার্থীকে তালিকাভুক্ত করা হবে, যাঁদের প্রায় দেড় বছর ধরে চলবে প্রশিক্ষণ। নির্বাচন এবং প্রশিক্ষণ একটি সমান্তরাল প্রক্রিয়া হবে। মহাকাশচারীদের নির্বাচন করে তারপর তাদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে, এমনটা একেবারেই নয়। একটা বড় তালিকা থেকে ১০ জনকে বেছে নিয়ে তারপর সমানভাবে প্রশিক্ষণ দেওয়ার হবে সকলকে। সেখান থেকে চূড়ান্ত বাছাই হবে তিনজনের।

সিভান বলেন, “প্রশিক্ষণটি শুধু ভারতে হবে না, বিদেশের বিভিন্ন জায়গায় গিয়ে উন্নতমানের প্রযুক্তির সঙ্গে পরিচিত হবেন প্রার্থীরা। ইতিমধ্যে প্রশিক্ষণ দেওয়ার জন্য হাত বাড়িয়েছে রাশিয়া, ফরাসি সহ একাধিক সংস্থা। একইসঙ্গে সমস্ত স্পেস এজেন্সি সহযোগীতা করার ইচ্ছা প্রকাশ করেছে।”

প্রথম যাত্রীবাহী মহাকাশযানে ইসরোর কোনো বিজ্ঞানী পাড়ি জমাবেন না বলেও জানিয়েছেন সিভান। সমস্ত প্রার্থী ভারতীয় বিমানবাহিনী থেকেই নির্বাচিত হবেন।

ইসরো চেয়ারম্যান জানিয়েছেন, আগামী ১০ দিনে গগনযান অভিযান সংক্রান্ত ব্যবস্থাপনার কাঠামো স্থাপন করা হবে। এখনও এই মিশনের জন্য দল গঠিত হয়নি। কিছু বিজ্ঞানীকে গগনযান প্রকল্পের পরিকাঠামো নিয়ে কাজ শুরু করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Read the full story in English

Get all the Latest Bengali News and West Bengal News at Indian Express Bangla. You can also catch all the Technology News in Bangla by following us on Twitter and Facebook


Title: India’s first human space flight : একুশেই মহাকাশে ভারতীয় মহিলার হাতে উড়বে দেশের পতাকা

Advertisement