বড় খবর

বাঁকুড়ার স্কুল থেকে শিশু পাচার! ভয়ঙ্কর অভিযোগে ধৃত অধ্যক্ষ, শিক্ষিকা-সহ ৮ জন

child trafficking: প্রিন্সিপাল এবং শিক্ষিকার বাড়ি থেকে উদ্ধার হয়েছে পাঁচটি শিশু। তাদের ভিন রাজ্যে পাচারের জন্য রাখা হয়েছিল কি না তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

স্কুলের প্রিন্সিপালই শিশু পাচারকারী! ভয়ঙ্কর অভিযোগে গ্রেফতার হলেন বাঁকুড়ার জওহর নবোদয় বিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ কমলকুমার রাজোরিয়া।

স্কুলের প্রিন্সিপালই শিশু পাচারকারী! ভয়ঙ্কর অভিযোগে গ্রেফতার হলেন বাঁকুড়ার জওহর নবোদয় বিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ কমলকুমার রাজোরিয়া। শুধু তিনি নন, ঘটনায় পুলিশের জালে স্কুলের শিক্ষিকা-সহ আরও সাতজন। প্রিন্সিপাল এবং শিক্ষিকার বাড়ি থেকে উদ্ধার হয়েছে পাঁচটি শিশু। তাদের ভিন রাজ্যে পাচারের জন্য রাখা হয়েছিল কি না তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

পাচারকাণ্ডে ধৃত অধ্যক্ষ-সহ তিনজনকে আরও জেরা করার জন্য সাত দিনের পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। বাকিদের ২ আগস্ট পর্যন্ত জেল হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছে আদালত। স্কুলের শিক্ষিকা সুষমা শর্মা-সহ তিন জন মহিলা গ্রেফতার হয়েছে এই মামলায়। পুলিশ জানিয়েছে, দুর্গাপুর স্টিল প্ল্যান্ট মেন গেট এলাকা থেকে এক সপ্তাহ আগে ৯ মাসের এক শিশুকে নিয়ে আসা হয়। কমলকুমার ওই শিশুকে সুষমার কাছে বিক্রি করেন বলে অভিযোগ।

তদন্তে নেমে পুলিশ জানতে পারে, সুষমার কোনও সন্তান নেই। কমলকুমারের বাড়িতেও কয়েকচি শিশু ছিল। তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, পাঁচ শিশুকে উদ্ধার করা হয়েছে। অনুমান, দুর্গাপুর স্টিল প্ল্যান্ট এলাকার কাদা রোড সংলগ্ন নিষিদ্ধপল্লি থেকে শিশুগুলিকে কিনে এনে পাচারের ছক ছিল। রাজস্থানের বাসিন্দা কমল। ধৃতদের মধ্যে এক চায়ের দোকানি রয়েছে। সে ক্রেতা ও বিক্রেতাদের মধ্যে লিংকম্যান বলে সন্দেহ পুলিশের।

আরও পড়ুন পাখিদের কলরবে মোহিত পুলিশ, স্থানীয় আস্তানা বটবৃক্ষে

এদিন স্কুলের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে শিশু পাচার চক্র চালানোর অভিযোগে স্কুলের সামনে বিক্ষোভ দেখান স্থানীয় বাসিন্দারা। গ্রেফতারের দাবিতে জাতীয় সড়ক অবরোধ করেন স্থানীয়রা। পরে বাঁকুড়া সদর থানার পুলিশ জেরা করার জন্য অধ্যক্ষকে থানায় নিয়ে গেলে তারপর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Westbengal news here. You can also read all the Westbengal news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Bankura school child trafficking principal arrested

Next Story
‘সিঙ্গুরের জন্য টাটারা দায়ী নয়’, বিনিয়োগ আহ্বান করে মন্তব্য পার্থ চট্টোপাধ্যায়েরTata, investment, TMC Government
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com