scorecardresearch

বড় খবর

নজর পঞ্চায়েতে, বিরোধীদের টেক্কা দিতে তাক লাগানো প্রচার কর্মসূচি তৃণমূলের

কী কী থাকছে এই কর্মসূচিতে?

নজর পঞ্চায়েতে, বিরোধীদের টেক্কা দিতে তাক লাগানো প্রচার কর্মসূচি তৃণমূলের
কয়লাকাণ্ডে দিল্লির ইডি দফতরে হাজিরা তৃণমূল নেতার।

বছর ঘুরলেই রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচন। হাতে বেশি সময় নেই। বিরোধীদের টেক্কা দিয়ে প্রচারে ঝাঁপাচ্ছে তৃণমূল। তাই পঞ্চায়েত নির্বাচনকে সামনে রেখে নয়া কর্মসূচি নিল বাংলার শাসক দল।

কী নয়া কর্মসূচি তৃণমূলের?‌

গত বিধানসভায় জোড়া-ফুলের জয়ে মহিলা ভোটের গুরুত্ব ছিল অপরিসীম। পঞ্চায়েতেও মহিলা ভোটকে পাখির চোখ করল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দল। এবার পঞ্চায়েত ভোটে মহিলাদের আসন আরও বাড়তে পারে। যা মাথায় রেখেই তৃণমূলের নয়া কর্মসূচির নাম ‘চলো গ্রামে যাই।’

গ্রামে গ্রামে গিয়ে এবার সভা করবে মহিলা তৃণমূলের নেতৃত্ব। মহিলাদের উন্নয়নে মমতা সরকার কী কী প্রকল্প করেছে তা প্রচার করা হবে। এছাড়া গ্রামীণ মহিলাদের রাজনীতিতে সক্রিয় অংশগ্রহণের জন্যও এই সভা। আগামী ১ নভেম্বর থেকে আড়াই মাসব্য়াপী চলবে কর্মসূচি।

‘চলো গ্রামে যাই’ কর্মসূচির নেতৃত্বে থাকবেন পশ্চিমবঙ্গ মহিলা কংগ্রেসের রাজ্য সভানেত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য। এছাড়া গ্রামে গ্রামে ঘুরবেন মালা রায়, শশী পাঁজা, কাকলি ঘোষদস্তিদার–সহ অন্যান্য হেভিওয়েট তৃণমূল নেত্রীরা। চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য বলেছেন, ‘বুথস্তরে গিয়ে গিয়ে আমরা সভা করব। সেখানকার মানুষদের কথা শুনব। রাজ্যের উন্নয়নমুখী প্রকল্পগুলির কথা তাঁদের কাছে তুলে ধরব। এভাবে আমরা দলনেত্রীর নির্দেশে শুধু ভোট নয়, সর্বদা তাঁদের পাশে থাকার বার্তা দেব।’‌

উল্লেখ্য, এবার পঞ্চায়েত নির্বাচনে বাংলায় মোট ভোটার ৭ কোটি ২০ লক্ষ। এর মধ্যে মহিলা ভোটারের সংখ্যা প্রায় সাড়ে ৩ কোটি। অর্থাৎ মোট ভোটারের প্রায় ৪৯ শতাংশ। ফলে তাঁদের মন জয়ই লক্ষ্য তৃণমূলের।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Cholo grame jai tmc women cell pancayat election 2023