scorecardresearch

বীরভূমের পর হুগলি, কোয়ারেন্টাইন সেন্টার ঘিরে উত্তেজনা

খাদ্য সরবরাহ দফতরের একটি গুদামকে কোয়ারেন্টাইন সেন্টার হিসেবে তৈরি করা হবে একথা শুনেই ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন এলাকার মানুষজন।

ছবি- উত্তম দত্ত

বীরভূমের পর এবার হুগলি। কোয়ারেন্টাইন সেন্টার তৈরি হওয়া নিয়ে গোলমাল বাঁধল হুগলির গোঘাট ১নং ব্লকের ভাদুর এলাকায়। খাদ্য সরবরাহ দফতরের একটি গুদামকে কোয়ারেন্টাইন সেন্টার হিসেবে তৈরি করা হবে একথা শুনেই ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন এলাকার মানুষজন। তাঁদের বক্তব্য, কোনো মতেই এখানে সেন্টার করতে দেওয়া যাবে না। রবিবার দিনভর তাই খাদ্য দফতরের সামনে বিক্ষোভ দেখান গ্রামের মহিলারা। বাঁশ দিয়ে রাস্তা আটকে  দেন গ্রামের পুরুষরা।

করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় স্বাস্থ্য দফতরের নির্দেশে কোয়ারান্টাইন সেন্টার করার জন্য স্কুল, কলেজ, হোটেল নিতে শুরু করেছে জেলা প্রশাসন। সেই মতো হুগলির গোঘাটেতেও কাজ শুরু করা হয়েছে। আর তাতেই বাধা দেন গ্রামবাসীদের একাংশ এবং তাতে শামিল হন  আশেপাশের গ্রামের বাসিন্দারাও।

শিল্পা শীল নামে এক গৃহবধূ বলেন , “শুনেছি সরকার থেকে এখানকার গোডাউনে করোনা ভাইরাসের রোগী রাখবে, আমরা এটা করতে দেব না। জনবসতিতে আমরা সাধারণ মানুষ ছেলে মেয়ে নিয়ে বসবাস করি। এখানে কোনো ক্যাম্প করতে দেব না। চাল রাখুক, গম রাখুক কিন্তু কোনো রোগী এখানে থাকবে না। আমাদের এখানে করোনা ভাইরাস এখনও ঢোকেনি। তাই আমরা ওই করোনা সেন্টার এখানে করতে দেবো না। দেখি সরকার এখানে কি ভাবে করে!”

উল্লেখ্য, শনিবার কোয়ারেন্টাইন সেন্টারকে কেন্দ্র করে বীরভূমে তুলকালাম হয়। ঘটনায় মৃত্যূও হয় একজনের। ঘটনা সম্পর্কে বিজেপির জেলা সভাপতি শ্যামাপদ মণ্ডল জানান, ‘গ্রামের মানুষই বলছে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। তাছাড়া ওই গ্রামের আমাদের তেমন লোকজন নেই। তৃণমূল নিজেদের বিরোধ চাপা দিতে এসব বলছেট। বীরভূম জেলা পুলিশ সুপার শ্যাম সিং বিষয়টিকে ‘গ্রাম্য বিবাদের জের’ বলেছেন।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Quarantine centre clash between villagers and govt