বড় খবর

“আমার সঙ্গে থাকতে হবে, নাহলে গুলি করে মারব,” হুমকি ইসরাতকে

এর আগে তাঁর দুই সন্তানকে অপহরণের অভিযোগও তুলেছিলেন তিনি। পরে পুলিশ তাঁর দুই সন্তানকে উদ্ধারও করেছিল।

ইসরাত জাহান।

তিন তালাক রদের অন্যতম মুখ হাওড়ার বাসিন্দা ইসরাত জাহানকে তাঁর ঘরে ঢুকে মারধর ও ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। ইসরাতের অভিযোগ, “প্রাক্তন স্বামী, ভাসুরসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেরা তাঁর বাড়িতে হামলা চালিয়েছে। কোনওরকমে এ যাত্রা প্রাণে বেঁচেছেন।” এই ঘটনায় চাঞ্চল ছড়িয়েছে হাওড়ার গোলাবাড়ি থানা এলাকায়।

বিজেপি নেত্রী ইসরাত বলেন, “বৃহস্পতিবার দুপুর একটা নাগাদ আমার ওপরে চড়াও হয় আমার প্রাক্তন স্বামী মুর্তুজা আনসারি, ভাসুর মুস্তাফা আনসারি সহ শ্বশুরবাড়ির লোকজন। আমাকে ব্যাপক মারধর করা হয়। ছিঁড়ে দেওয়া হয় জামা-কাপড়।” ইসরাতের অভিযোগ, “ওরা বলতে থাকে আমার সঙ্গে থাকতে হবে। তা নাহলে গুলি করে মেরে দেব। আমার মাথায় আগ্নেয়াস্ত্র ঠেকিয়ে প্রাক্তন স্বামী ও ভাসুর মুস্তাফা আনসারি ধর্ষণের চেষ্টা করে।” ইসরাতকে তাঁর শ্বশুরবাড়িতে থাকতে না দেওয়ার জন্যই এভাবে হামলা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন।

বৃহস্পতিবার গোলাবাড়ি থানায় এ বিষয়ে ইসরাত লিখিত অভিযোগও দায়ের করেন। হাওড়া জেলা হাসপাতালে চিকিৎসার জন্যে যান ইসরাত জাহান। এর আগে তাঁর দুই সন্তানকে অপহরণের অভিযোগও তুলেছিলেন তিনি। পরে পুলিশ তাঁর দুই সন্তানকে উদ্ধারও করেছিল। এদিনের ঘটনা প্রসঙ্গে হাওড়া সিটি পুলিশের এক পদস্থ র্কতা বলেন, “অভিযোগের তদন্ত হবে। অভিযুক্তদের জিজ্ঞাসাবাদ করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে”।

তিন তালাকের বিরুদ্ধে যে মামলা হয় সেই মামলায় অন্যতম ছিলেন ইসরাত। ইসরাত জানিয়েছেন, সেই মামলা জয়ের পর থেকেই এলাকায় নানাভাবে সামাজিক হেনস্থার শিকার হতে হচ্ছে। শ্বশুরবাড়ির অত্যাচারও শেষ হচ্ছে না।

Web Title: Ishrat jahan is threatened with death

Next Story
উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে আরও বৃষ্টির পূর্বাভাসweather, ঝড়-বৃষ্টির পূর্বাভাস, monsoon
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com