scorecardresearch

বড় খবর

‘গালাগালি দিন, আত্মহত্যা করবেন না’, তাপসকে বিরাট ইঙ্গিত রাজ্যের প্রাক্তন এই মন্ত্রীর

দলের প্রতি তাপস চট্টোপাধ্যায়ের ক্ষোভ-অভিমান নিয়ে তাঁকে ইঙ্গিতপূর্ণ ‘টিপস’ একদা রাজ্যের দাপুটে এই মন্ত্রীর।

‘গালাগালি দিন, আত্মহত্যা করবেন না’, তাপসকে বিরাট ইঙ্গিত রাজ্যের প্রাক্তন এই মন্ত্রীর
বিজয়া সম্মিলনীতে আমন্ত্রণ না পেয়ে দলেরই শীর্ষ নেতৃত্বের উপর 'অভিমানী' তাপস চট্টোপাধ্যায়।

নিউটাউন-রাজারহাটের তৃণমূল বিধায়ক তাপস চট্টোপাধ্যায়ের দলের প্রতি ক্ষোভ-অভিমান বিতর্কে এবার মুখ খুললেন মদন মিত্র। ”গালাগালি দিন, আত্মহত্যা করবেন না। খেলা অনেক বাকি, দেখতে থাকুন।” তাপস চট্টোপাধ্যায়ের মন্তব্যের পাল্টা বলতে গিয়ে বিরাট ইঙ্গিতপূর্ণ মন্তব্য কামারহাটির তৃণমূল বিধায়কের।

‘কালারফুল মদন’ আবারও শিরোনামে। এবার দলেরই এক বিধায়কের অভিমান প্রসঙ্গে মন্তব্য করতে গিয়ে ইঙ্গিতপূর্ণ বক্তব্য পেশ একদা রাজ্যের দাপুটে মন্ত্রী মদন মিত্রের। বুধবার নিউটাউনের ইকো পার্কে বিজয়া সম্মিলনীর আয়োজন করেছিল রাজ্য সরকার। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ছাড়াও তাঁর মন্ত্রিসভার একাধিক সদস্যের পাশাপাশি বেশ কয়েকজন তৃণমূল বিধায়কও উপস্থিত ছিলেন সেই অনুষ্ঠানে।

তবে বুধবারের সেই বিজয়া সম্মিলনীর অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণই পাননি স্থানীয় তৃণমূল বিধায়ক তাপস চট্টোপাধ্যায়। যা নিয়ে বৃহস্পতিবার দলের শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে একরাশ ক্ষোভ-অভিমান উগরে দিতে দেখা গিয়েছে তাপসকে। সেই প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে মদন মিত্র এদিন বলেন, ”একটা সরকারের পক্ষে সবাইকে ডাকা সম্ভব নয়। আমিও গত কয়েক বছর সরকারি অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ পাইনি। আমন্ত্রণ পাওয়ার কথাও নয়। কারণ আমি সেই প্যারামিটারে পড়ি না।”

আরও পড়ুন- বিজয়া সম্মিলনীতে ‘ব্রাত্য’ তাপস, ‘চাকরেরা বোধ হয় ডাক পান না’, অভিমানী বিধায়ক

এরপরেই মদনের ইঙ্গিতপূর্ণ মন্তব্য, ”আমরা ভুলে যাই যে অতীতে আমরা সবাই রত্নাকর ছিলাম, পরে বাল্মিকী হয়েছি। তাপস নিজেকে গালিগালাজ করেছেন, দলকে দেননি। তাপসকে বলব গালাগালি দিন, আত্মহত্যা করবেন না। খেলা অনেক বাকি, দেখতে থাকুন।”

আরও পড়ুন- দুই তাপসের ‘বিষ’ বোমা, এখনও চুপ তৃণমূল! আজই মুখ খুলবেন মমতা?

উল্লেখ্য, বুধবার সন্ধেয় তাঁর বিধানসভা কেন্দ্র এলাকার ইকো পার্কে সরকারি অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ না পেয়ে দলের শীর্ষ নেতৃত্বের প্রতি ক্ষোভ উগরে দিয়েছিলেন তাপস চট্টোপাধ্যায়। কোনও রাখঢাক না রেখেই তিনি বলেছিলেন, ”দলে দুটি শ্রেণি, বাবু ও চাকর। চাকরেরা ডাক পান না। আমি বোধ হয় দ্বিতীয় শ্রেণিতেই পড়ি। আমার বিধানসভা কেন্দ্র এলাকায় এই অনুষ্ঠান হয়েছে। তবে আমি এই অনুষ্ঠান সম্পর্কে কিছু জানি না। আগেও ডাক পাইনি। সেবার পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে জানিয়েও সদুত্তর পাইনি। ওখানে যাঁরা উপস্থিত ছিলেন আমি কি তাঁদের মধ্যেও পড়ি না? দলে বাবু ও চাকরদের শ্রেণির মধ্যে আমি বোধ হয় দ্বিতীয় শ্রেণিভুক্ত।”

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Madan mitras controversial statement in regarding tapas chatterjee issue501202