মাধ্যমিক চলাকালীন বন্ধ থাকবে ইন্টারনেট, প্রশ্ন ফাঁস রুখতে কড়া পদক্ষেপ রাজ্যের

"মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী ও অভিভাবকরা রাস্তায় যেখানেই থাকবেন সরকারি ও বেসরকারি বাসে তাঁদের তুলে নিতে হবে’’।

By: Kolkata  Updated: February 18, 2020, 08:04:35 AM

মাধ্যমিকের প্রশ্নপত্র মোবাইলে ছড়ানো রুখতে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে বড়সড় পদক্ষেপ করল রাজ্য সরকার। অতীত থেকে শিক্ষা নিয়ে এবার আগাম বেশ কয়েকটি জেলায় মাধ্যমিক পরীক্ষা চলাকালীন প্রথম ২ ঘণ্টা ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। সূত্রের খবর, বিশেষত উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে বেশি নজর দিচ্ছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। নজর রয়েছে উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনাতেও। রাজ্যের চিহ্নিত ৪২টি ব্লকে ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখা হবে বলে পর্ষদ সূত্রে জানা গিয়েছে। সোমবার নবান্নে এ বিষয়ে একটি উচ্চপর্যায়ের প্রশাসনিক বৈঠক হয়।

গত বছর মাধ্যমিক পরীক্ষার প্রায় প্রতিদিন প্রতিটি প্রশ্নপত্রের হুবহু ছবি হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে হলের বাইরে বেরিয়ে এসেছে। এই নিয়ে হইচই কম হয়নি। গ্রেফতার করা হয়েছিল পরীক্ষার্থীদের। তবুও আটকানো যায়নি প্রশ্ন বেরিয়ে যাওয়া। ক্রমাগত বাংলা, ইংরেজি, ইতিহাস প্রশ্নপত্রের ছবি হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে অন্যত্র ছড়িয়ে পড়েছে। পরীক্ষার হলে মোবাইলের নিষেধাজ্ঞা সত্বেও বন্ধ করা যায়নি এই কর্মকাণ্ড। প্রশ্ন ফাঁস বলে চিৎকার-চেঁচামেচি জুড়ে দিয়েছিল বিরোধীরা। যদিও  শিক্ষামন্ত্রী প্রশ্ন ফাঁসের কথা মানতেই চাননি। কিন্তু এবার আর কোনও ঝুঁকি নিতে চাইছে না মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। পরীক্ষা শুরুর প্রথম ২ ঘণ্টা ইন্টারনেট সংযোগই বিচ্ছিন্ন করে দিচ্ছে। যাতে সোশাল মিডিয়ার মাধ্যমে প্রশ্নপত্রের ছবি পরীক্ষাকেন্দ্রের বাইরে না বেরিয়ে যায়।

আরও পড়ুন: মাধ্যমিকে ব্যাপক কড়াকড়ি, জেনে নিন পরীক্ষার খুঁটিনাটি

গতবছর মাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হওয়ার পর প্রশ্নপত্র মোবাইলে ঘুরতে থাকে। একদিন মালদা, তো পরের দিন দক্ষিণ দিনাজপুর। প্রায় প্রতিটি পরীক্ষার প্রশ্নপত্রের ছবিই মোবাইল ফোনে ছড়িয়ে পড়েছিল। মধ্যশিক্ষা পর্ষদ তখনই বেশ কিছু ক্ষেত্রকে চিহ্নিত করেছিল। সোমবার নবান্নে রাজ্যের স্বরাষ্ট্র সচিবের সঙ্গে বৈঠক করেন পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়। সূত্রের খবর, এই বৈঠকে ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। অন্যদিকে বিধানসভায় পরিবহণমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী জানিয়েছেন, “মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী ও অভিভাবকরা রাস্তায় যেখানেই থাকবেন সরকারি ও বেসরকারি বাসে তাঁদের তুলে নিতে হবে। তাছাড়া পরীক্ষার্থীদের বাাসে স্পিড গভর্নর বাধ্যতামূলক করেছি।”

রাজ্যে কোনও জায়গা অশান্ত হলে সরকারি স্তরে প্রথম কাজ নেট যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া। এই রাজ্যে গত একবছরে এমন অসংখ্য ঘটনা ঘটেছে। এই নেট বন্ধ নিয়ে মামলা আদালত পর্যন্ত গড়িয়েছে। এবার কোনওরকম প্রশ্ন ফাঁসের ঘটনা এড়াতে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য। সূত্রের খবর, মালদা, মুর্শিদাবাদ, উত্তর দিনাজপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা-সহ কয়েকটি জেলার ৪২ ব্লকে নেট বন্ধ করে দেওয়া হবে ২ ঘণ্টার জন্য। এই পরিষেবা বন্ধ রাখার ফলে ৪২টি ব্লকের পরীক্ষা হল থেকে প্রশ্নপত্র বেরিয়ে আসা সম্ভব নয় বলে মনে করছে পর্ষদ।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get all the Latest Bengali News and West Bengal News at Indian Express Bangla. You can also catch all the West-bengal News in Bangla by following us on Twitter and Facebook

Web Title:

Madhyamik examination 2020 internet system block at 42 block in west bengal

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com.
Advertisement

BIG NEWS
X