scorecardresearch

বড় খবর

‘গর্বিত বাঙালি’, কালী নিয়ে নিজের ভাবনায় অনড় তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র

‘প্রতিবাদ না-করার জন্যই বিজেপি তাদের হিন্দুত্বের ভাবনা আমাদের ওপর চাপিয়ে দিতে পারছে। কারণ, আমরা বিষয়টি এড়িয়ে গিয়েছি। আর, হিন্দুধর্ম তাদের কোনও সম্পত্তি নয়। আমি এক ইঞ্চিও জমি ছাড়ব না,’ জানিয়েছেন মহুয়া।

mahua moitra

আর পাঁচ জনের মত বিজেপির ধর্মীয় ভাবনায় তিনি সন্ত্রস্ত্র হতে নারাজ। তাই প্রতিবাদ চালিয়েই যাবেন। এমনটাই জানালেন কৃষ্ণনগরের তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র। সম্প্রতি দেবী কালীকে নিয়ে তাঁর বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য দেশজুড়ে ঝড় বয়ে গিয়েছে। এই রাজ্যই শুধু নয়, গোটা দেশেই বিজেপি নেতা-কর্মীরা মহুয়া মৈত্রের বিরুদ্ধে এফআইআর করেছেন। শুধু তাই নয়, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী পর্যন্ত তীব্র সমালোচনা করেছেন কৃষ্ণনগরের তৃণমূল সাংসদের কালী-কথার। কৃষ্ণনগরের বিজেপি সাংসদকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল,

এই বিতর্কে আপনি কি সবচেয়ে কঠিনতম চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছেন?
তাই বলে নিজের অবস্থান থেকে সরতে নারাজ মহুয়া জানিয়েছেন, বিশ্বাস যার যার, ধর্ম সবার। সেই নীতিতেই তিনি বিশ্বাস রাখেন। আর, সেজন্যই কালী নিয়ে নিজের বক্তব্য থেকে সরতে নারাজ। এনিয়ে তাঁর বিরুদ্ধে যে পদক্ষেপই হোক, তিনিও পালটা লড়াই চালিয়ে যাবেন। মহুয়ার কথায়, ‘আমার অবস্থান অত্যন্ত পরিষ্কার। আমি একজন শক্তি উপাসক। মা কালীর ভক্ত। আর, আমি তাই নিজের বক্তব্যে অনড়। তিনি মদ এবং মাংস গ্রহণ করেন।’

আরও পড়ুন- পিএম কেয়ার্স ফান্ড মামলায় বিপাকে মোদী সরকার, ভর্ৎসনা আদালতের

আপনার বক্তব্য কি ধর্মীয় ভাবনাকে আঘাত করেছে? আপনার কী মত?
এই ব্যাপারে মহুয়া বলেন, ‘না-না, কোনভাবেই না। এটি একটা চায়ের কাপে ঝড় তোলার মত ব্যাপার। আসলে মিডিয়া গেরুয়া বাহিনীকে বিশাল গুরুত্ব দিচ্ছে। কিন্তু, এই সব ব্যাপারে আমার কিছু যায় আসে না। আমি সত্যকথা বলেছি। আর এখনও সেই নিয়ে অনড়। আসলে, এতে আমার সহ-নাগরিকদের বলার জন্য একটা দুর্দান্ত সুযোগ তৈরি হয়েছে। কিন্তু, এখন আমাদের সময় এসেছে উত্পীড়ন বন্ধ করার। যথোপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়ার। আমি একজন গর্বিত বাঙালি এবং আমৃত্যু নিজের মতে অনড় থাকব।’

মহুয়া বলেন, ‘অনেকেই আমাকে বলছেন, মহুয়া এই সময়ে ধর্মের ব্যাপারে কথা বল না। কিন্তু, না। এই প্রতিবাদ না-করার জন্যই বিজেপি তাদের হিন্দুত্বের ভাবনা আমাদের ওপর চাপিয়ে দিতে পারছে। কারণ, আমরা বিষয়টি এড়িয়ে গিয়েছি। আর, হিন্দুধর্ম তাদের কোনও সম্পত্তি নয়। আমি এক ইঞ্চিও জমি ছাড়ব না।’

Read full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Mahua moitra will not tiptoe around religion