scorecardresearch

বড় খবর

‘২০১৯-য়ের পরই কেন অশান্ত ভাটপাড়া’, প্রশ্ন অর্জুনের বিধায়ক-পুত্র বিজেপির পবনের

দিলীপের দাবি, ‘দুষ্কৃতীরা তৃণমূলের মদতপুষ্ট। পুলিশ তাই ওদের গায়ে হাত দেবে না।’

‘২০১৯-য়ের পরই কেন অশান্ত ভাটপাড়া’, প্রশ্ন অর্জুনের বিধায়ক-পুত্র বিজেপির পবনের

ভাটপাড়ার প্রেমচাঁদ নগরের স্টেশন চত্বরে বোমা ফেটে মৃত্যু হয়েছে এক শিশুর। গুরুতর জখম আরেক শিশু। পুলিশ সূত্রে খবর, স্টেশন চত্বরে দুটি তাজা বোমা পড়েছিল। বল ভেবে খেলতে গিয়েছিল দু’টি বাচ্চা। একটি বোমা হাতে নিতেই সেটা বিকট শব্দে ফেটে যায়। বিস্ফোরণে মারাত্মকভাবে জখম হয় দু’টি বাচ্চাই। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় একজনের। অন্যজনের হাত উড়ে গিয়েছে বলে হাসপাতালসূত্রে জানা গিয়েছে।

এদিন সকাল ৭টা নাগাদ এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। ঘটনাস্থলে রয়েছে বিশাল পুলিশবাহিনী। তল্লাশিতে ওই এলাকা থেকে আরও একটি তাজা বোমা উদ্ধার হয়েছে।

কীভাবে বোমা স্টেশন চত্বরে এল তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এলাকার লোকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন ভাটপাড়ার বিজেপি বিধায়ক পবন সিং। কোথায় এই বোমা তৈরি হচ্ছে তা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন সাংসদ অর্জুন সিংয়ের বিধায়ক পুত্র পবন। পুলিশের ভূমিকা নিয়েও অসন্তোষ প্রকাশ করেন তিনি।

কী বলেছেন পবন সিং?

‘ভাটপাড়ায় লোকভা ভোটের পর থেকেই এই ধরণের ঘটনা প্রায় প্রত্যেক দিনই ঘটছে। পুলিশকে অনেকবার জানানো হয়েছে। তাও হচ্ছে। এইসব বোমা কোথায় তৈরি হচ্ছে? যারা করছে তাদের আগে ধরা দরকার। ২০১৯-য়ের আগে এই ধরণের সমস্যা ছিল না, কেন ২০১৯য়ের পরই এইরকম হচ্ছে?’

এইসবের জন্য রাজ্য সরকারকেই নিশানা করেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সহসভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন, ‘প্রতি সপ্তাহেই ওইসব এলাকা থেকে এই ধরণের খবর হচ্ছে। কেন এর সমাধান হচ্ছে না? কারা করছে? কেন দুষ্কৃতিরা ভয় পায় না? শাসক দল দুষ্কৃতিদের ব্যবহার করলে পুলিশও তাদের গায়ে হাত দেয় না। আইন-শৃঙ্খলা বলে কিছু নেই। সরকার পার্টি আর নেতা বাঁচাতেই ব্যস্ত। পুলিশ, সরকার এগুলো দুমিনিটে বন্ধ করতে পারে, কিন্তু করবে না ওরা।’

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Pawan singh on bhatpara bomb exploded child dead