scorecardresearch

বড় খবর

নবম-দশম শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগে ‘দুর্নীতি’, ডিভিশন বেঞ্চে গেল SSC

এর আগে নবম-দশম শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি মামলায় সিবিআই অনুসন্ধানের নির্দেশ দিয়েছিল হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চ।

নবম-দশম শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগে ‘দুর্নীতি’, ডিভিশন বেঞ্চে গেল SSC
কলকাতা হাইকোর্ট।

নবম-দশম শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগে ‘দুর্নীতি’ মামলায় এবার ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ স্কুল সার্ভিস কমিশন (SSC)। মামলাটি গ্রহণ করেছে কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ। এর আগে রাজ্যের নবম-দশম শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি মামলায় সিবিআই অনুসন্ধানের নির্দেশ দিয়েছিল হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চ। বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের সেই নির্দেশকেই চ্যালেঞ্জ করে এবার বিচারপতি সৌমেন সেনের ডিভিশন বেঞ্চে আবেদন এসএসসি-র।

উল্লেখ্য, এর আগে কলকাতা হাইকোর্টের সিঙ্গল বেঞ্চ নবম-দশমে শিক্ষক নিয়োগে ‘দুর্নীতি’ মামলার শুনানিতে সিবিআই অনুসন্ধানের নির্দেশ দিয়েছিল। শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে দুর্নীতি হয়ে থাকলে বা কোনও আর্থিক অনিয়ম হলে তা খুঁজে বের করতে নির্দেশ দেওয়া হয় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাকে। বিচারপতি অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় সেই নির্দেশ দিয়েছিলেন।

অভিযোগ, ২০১৬ সালে নবম-দশম শ্রেণির শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তিতে এমন দুটি নামের খোঁজ মেলে যাঁদের নাম তালিকায় ছিল না। গত ৪ জানুয়ারি এসএসসির চেয়ারম্যান হাইকোর্টে একটি রিপোর্ট জমা দিয়েছিলেন। সেই রিপোর্টের তালিকাতেও ওই দুই অভিযুক্তের নাম ছিল না। তাতে বেজায় ক্ষুব্ধ হয়েছিলেন বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন- পরিকল্পিত বিশৃঙ্খলা, হেরে গিয়ে নাটক বিজেপির: মুখ্যমন্ত্রী

জয়েন্ট ডিরেক্টর পদমর্যাদার আধিকারিককে মাথায় রেখে তিনি এই মামলার অনুসন্ধানের নির্দেশ দিয়েছিলেন সিবিআইকে। শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির পিছনে কাদের মদত ছিল তা অভিযোগকারীদের সঙ্গে কথা বলে খুঁজে বের করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাকে।

আগামী ২৮ মার্চের মধ্যে সিবিআইকে এব্যাপারে প্রাথমিক রিপোর্টও হাইকোর্টে জমা দিতে নির্দেশ দিয়েছিল সিঙ্গল বেঞ্চ। তবে এরই মধ্যে ব্যাকফুটে থাকা এসএসসি ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হল। স্কুল সার্ভিস কমিশনের মামলাটি গ্রহণও করেছে ডিভিশন বেঞ্চ।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Westbengal news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Ssc at hc division bench in the corruption case in the appointment of teachers in the ninth and tenth classes