বাংলাতেও করোনা? হাসপাতালে ভর্তি ৭, নজরদারিতে ১১৩৬

আগাম সব ধরনের সতর্কতার আশ্বাস দিচ্ছে রাজ্য প্রশাসন।জেলা প্রশাসনগুলোর সঙ্গে আজ বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী।

By: Kolkata  Updated: March 6, 2020, 12:39:02 PM

মারণ করোনা ভাইরাসের গ্রাসে কী এ রাজ্যেও? আতঙ্কে বাংলা। তবে, আগাম সব ধরনের সতর্কতার আশ্বাস দিচ্ছে রাজ্য প্রশাসন।

চিন ছাড়িয়ে বিশ্বজুড়ে করোনা ভাইরাসের থাবা। বাদ যায়নি এ দেশও। ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩০। এই পরিস্থিতিতে সতর্ক রাজ্য প্রশাসন। ইতিমধ্যেই সব জেলা প্রশাসন ও সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালগুলোকে সজাগ থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে নবান্নের তরফে। বিদেশ থেকে এ রাজ্যে আগত সব যাত্রীদের বিমানবন্দরে পৃথক করে শারীরিক পরীক্ষা করা হচ্ছে। স্বাস্থ্য দফতরের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, চলতি মাসের ৪ তারিখ পর্যন্ত ১,২৫২ জনকে নজরদারিতে রাখা হয়েছিল। এখনও পর্যন্ত মোট ৭ জনকে বেলেঘাটা আই ডি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে তিন জনকে শুক্রবার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বাড়িতে নজরদারিতে রয়েছেন ১,১৩৬ জন। এঁরা প্রত্যেকেই সুস্থ রয়েছেন বলে জানা গিয়েছে।

আজ, শুক্রবার সব জেলাশাসক ও জেলা স্বাস্থ্য আধিকারিকদের নিয়ে ভিডিও কনফান্সের মাধ্যমে বৈঠক করবেন রাজ্য প্রশাসনের শীর্ষ আধিকারিকরা। এই বৈঠকে থাকতে পারেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও।

করোনা জীবাণু রয়েছে সন্দেহে বাংলা থেকে ২৯ জনের রক্তের নমুনা পুনের ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ ভাইরলোজি ও কলকাতার এনআইসিইডি-তে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে। তবে, কোনও ক্ষেত্রেই করোনার জীবাণু মেলেনি। রাজ্যের বিভিন্ন হাসপাতালে ৯২ শয্যার প্রস্তুতি রয়েছে।

আরও পড়ুন: মুরগী, মটন, সামুদ্রিক মাছে করোনা! কী বলছেন বিশেষজ্ঞরা?

রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর এক বিবৃতিতে জানিয়েছে যে, মার্চ ২০২০ পর্যন্ত কলকাতা ও বাগডোগরা বিমানবন্দরে ৪২,৯১৩ জনের করোনা ভাইরাসের প্রাথমিক পরীক্ষা হয়েছে। করোনা আতঙ্কে দেশের অন্যান্য বিমানবন্দরের মত কলকাতা বিমানবন্দরে সতর্কতা জারি করা হয়েছে। বিমানবন্দরের কর্মী থেকে নিরাপত্তারক্ষী সবাই মাস্ক মুখে কাজ করছেন। এছাড়া, নেপাল ও বাংলাদেশ সীমান্ত সহ রাজ্যের সাতটি চেক পয়েন্টেও স্ক্রিনিং চলেছে। এ রাজ্যে আসা বিভিন্ন দেশের জাহাজের ৩,১৩২ ক্রিউ মেম্বারেরও স্ক্রিনিং হয়েছে।

স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য বলেন, ‘করোনা ভাইরাসের প্রকোপ ঠেকাতে রাজ্য আগাম সতর্কতামূলক সব ব্যবস্থাই করেছে।’

নবান্নের পক্ষ থেকে সব জেলাশাসক ও স্থানীয় প্রশাসনগুলিকে সতর্ক করা হয়েছে। মাস্ক ও গ্লাভস সহ করোনা ঠেকাতে যা যা প্রয়োজন তা প্রস্তুত রাখতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

কলকাতা পুরনিগমের তরফেও আধিকারিকদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষ। বলেন, ‘করোনা আক্রান্তের খবর পেলেই যাতে সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নেওয়া যায় তার জন্য পুরসভা প্রস্তুত। তবে এখনও পর্যন্ত রাজ্যে বা কলকাতা পুর এলাকায় করোনা আক্রান্তের খবর মেলেনি।’

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get all the Latest Bengali News and West Bengal News at Indian Express Bangla. You can also catch all the West-bengal News in Bangla by following us on Twitter and Facebook

Web Title:

West bengal kolkata corona virus one admitted to isolation ward 1136 under home surveillance

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com.
Advertisement

ট্রেন্ডিং
বিহারী তাস
X