scorecardresearch

ক্রমশ ছড়িয়ে পড়ছে করোনার বিলিতি স্ট্রেন, এবার হানা দক্ষিণ কোরিয়ায়

দক্ষিণ কোরিয়ার আধিকারিকরা দ্রুত ভ্যাকসিনেশন কর্মসূচি চালু করার প্রচেষ্টা শুরু করেছে যাতে রুখতে পারা যায় কোভিডের নয়া সংক্রমণ।

চিন্তা বৃদ্ধি করে দক্ষিণ কোরিয়াতে মিলল ব্রিটেনের করোনা ভাইরাসের স্ট্রেন। সোমবারই এই খবর জানান হয়েছে। এরপরই দক্ষিণ কোরিয়ার আধিকারিকরা দ্রুত ভ্যাকসিনেশন কর্মসূচি চালু করার প্রচেষ্টা শুরু করেছে যাতে রুখতে পারা যায় কোভিডের নয়া সংক্রমণ।

কোরিয়া ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন এজেন্সি (কেডিসিএ) সোমবার জানিয়েছে যে করোনার এই স্ট্রেন যে মারাত্মক সংক্রামক সে বিষয়ে সন্দেহ নেই। কারণ তিনজন লোককে পাওয়া গিয়েছিল যারা লন্ডন থেকে দক্ষিণ কোরিয়ায় প্রবেশ করেছিলেন। রবিবার মধ্যরাত পর্যন্ত ৮০৮টি নতুন আক্রান্তের খবর এসেছে।

যদিও সবরকম সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিচ্ছে দক্ষিণ কোরিয়া প্রশাসন। জানুয়ারি মাসেও কোভিড বিধি কড়াভাবে পালনের নিয়ম জারি হয়েছে। ভ্যাকসিনেশন নিয়েও সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে এই দেশের সরকারকে। মার্কিন মুলুকে, ব্রিটেনে ভ্যাকসিন দেওয়ার কাজ চালু হলেও কেন আরও সময় নিচ্ছে দক্ষিণ কোরিয়া তা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। যদিও প্রেসিডেন্টের মত ভ্যাকসিনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার দিকটি বিবেচনা করা হচ্ছে আগে।

এদিকে, দেশের চার রাজ্যে সোমবার থেকে শুরু হল ভ্যাকসিন দেওয়ার কাজ। আসাম, গুজরাত, অন্ধ্রপ্রদেশ ও পাঞ্জাব এই চার রাজ্যে এই ভ্যাকসিনেশনের ড্রাই-রান চলবে। স্বাস্থ্যমন্ত্রক সূত্রে জানা গিয়েছে, এই চার রাজ্যের দু’‌টি জেলায় কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের পরীক্ষামূলক কর্মসূচী চালানো হবে।

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Stay updated with the latest news headlines and all the latest World news download Indian Express Bengali App.

Web Title: First varient of coronavirus uk found in south korea