বড় খবর

ঘুম কাড়ছে ওমিক্রন, এপ্রিলের শেষেই ৭৫ হাজার মৃত্যুর আশঙ্কা

ইতিমধ্যেই বিশ্বের একাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়েছে করোনার এই নয়া ভ্যারিয়েন্ট।

প্রতীকী ছবি

ওমিক্রন হানায় তটস্থ গোটা বিশ্ব। ভাইরাসের নয়া প্রজাতি কার্যত ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি করেছে ব্রিটেনে। শনিবার নতুন করে ব্রিটেনে ৬০০ ওমিক্রন আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। হাড় হিম করা একটি সাম্প্রতিক সমীক্ষা শোরগোল ফেলে দিয়েছে ব্রিটেনজুড়ে। ওমিক্রন হানা রুখতে সব ধরনের সুরক্ষা নেওয়া না হলে আগামী বছরের এপ্রিলের মধ্যেই ভাইরাসের এই নয়া প্রজাতি প্রাণ কাড়তে পারে ২৫ থেকে ৭৫ হাজার ব্রিটেনবাসীর।

ব্রিটেনজুড়ে আতঙ্ক বাড়াচ্ছে ওমিক্রন। ইতিমধ্যেই বিশ্বের একাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়েছে করোনার এই নয়া ভ্যারিয়েন্ট। অত্যন্ত সংক্রামক এই ভাইরাস নিয়ে আগেভাগেই বিশ্বকে সতর্ক করেছিল WHO। বিশ্বের অন্য দেশগুলির তুলনায় ব্রিটেনেই দ্রুত হারে ছড়াচ্ছে ওমিক্রন। ফি দিন দেশে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। শনিবার ব্রিটেনে ৬০০-র বেশি ওমিক্রন আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। সংক্রমিতের এই সংখ্যা আরও বাড়ার আশঙ্কাই বেশি।

সম্প্রতি লন্ডন স্কুল অফ হাইজিন অ্যান্ড ট্রপিক্যাল মেডিসিন এবং দক্ষিণ আফ্রিকার স্টেলেনবোশ ইউনিভার্সিটির গবেষকরা নতুন একটি সমীক্ষা চালিয়েছেন। ভ্যাকসিনের বুস্টার ডোজের মতো ভ্যাকসিনের ক্ষমতা এবং কার্যকারিতা-সহ বিভিন্ন পরিস্থিতি বিবেচনা করে বিভিন্ন অনুমান করেছেন গবেষকরা। করোনা বিধি নিষেধের শিথিলতার জেরেই ইংল্যান্ডে Omicron B.1.1.529 ভ্যারিয়েন্টের প্রবর্তন SARS-CoV2 সংক্রমণ যথেষ্ট বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে।

আরও পড়ুন- কমল দেশের দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা, ওমিক্রন রুখতে কোভিড-বিধি কার্যকরে জোর

ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে ওমিক্রন। তবে ওমিক্রন নিয়ে এখনও পর্যন্ত যে তথ্য মিলেছে তাতে ডেল্টার মতো মারাত্মক হয় তো এর প্রভাব নাও হতে পারে। এমনই মনে করছেন গবেষকদের একাংশ। তবে এখনই এব্যাপারে নিশ্চিতভাবে কিছু জানাতেও অস্বীকার করেছেন কেউ কেউ।

Read full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and World news here. You can also read all the World news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Omicron could cause 75000 deaths in uk by end of april warns study

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com