বড় খবর

গুগল-উইকিপিডিয়াকে হুমকি পাকিস্তানের

ধর্মীয় নেতা মির্জা মাসরুর আহমদকে বর্তমান “খলিফা” বা ইসলামের নেতা হিসাবে নামকরণ করা হয়েছে। এই সিদ্ধান্তকেই বিরোধীতা করেছে পাকিস্তান।

অপ্রীতিকর বিষয়বস্তুর খবর ছড়িয়ে দেওয়ার জন্য শুক্রবার উইকিপিডিয়া এবং গুগলকে হুমকি দিয়েছে পাকিস্তান। পাকিস্তান টেলিযোগযোগ কর্তৃপক্ষ (পিটিএ) গুগল থেকে অবিলম্বে “বেআইনী সামগ্রী” সরিয়ে আহ্বান জানিয়েছে। ধর্মীয় নেতা মির্জা মাসরুর আহমদকে বর্তমান “খলিফা” বা ইসলামের নেতা হিসাবে নামকরণ করা হয়েছে। এই সিদ্ধান্তকেই বিরোধীতা করেছে পাকিস্তান।

বলা হয়েছে, তারা দেশের প্রভাবশালী ধর্মীয় বিশ্বাসের বিরোধিতা করে। গুগল প্লে স্টোরে “পবিত্র কোরানের অপ্রমাণিত সংস্করণ”-কে রাখা হয়েছে এমনটাই বলা হয়েছে। পিটিএ প্রকাশিত এক বিবৃতিতে বলেছে, “নবী করিম-এর ক্যারিক্যাচারের হোস্টিং এবং উইকিপিডিয়ায় মির্জা মাসরুর আহমদকে একজন মুসলমান হিসাবে চিত্রিত করার মাধ্যমে বিভ্রান্তিমূলক, ভুল, এবং প্রতারণামূলক তথ্য প্রচার সম্পর্কিত অভিযোগও পাওয়া গেছে।” পিটিএ টুইটার হ্যান্ডেলে এমনটাই জানিয়েছে।

পাকিস্তানের নিপীড়িত সংখ্যালঘু আহমদিয়া মুসলিম সম্প্রদায়ের সদস্যরা মির্জা মাসরুর আহমদকে খলিফা হিসাবে সম্মানিত করেছে। বলা হয়, “প্ল্যাটফর্মগুলি না মেনে চললে, পিটিএকে বৈদ্যুতিন অপরাধ প্রতিরোধ আইন ২০১৬ (পিইসিএ) এবং ২০২০ বিধিমালার অধীনে আরও পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হবে।”

এই মাসে পাকিস্তান সরকার একটি খসড়া নীতিমালা অনুমোদনের মাধ্যমে ডিজিটাল ক্ষেত্রের উপর আরও বেশি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করেছে। সমালোচকরা বলেছে যে এর মাধ্যমে সেন্সরশিপের দ্বার খুলে দিয়েছে। ইমরানের দেশের নেতা-কর্মীদের মত যে সরকার এবং পাকিস্তানের শক্তিশালী সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে সমালোচনা রোধ করতে কর্তৃপক্ষ ডিজিটাল স্থান নিয়ন্ত্রণ করতে চাইছে দেশ।

চলতি বছরের অক্টোবরে পাকিস্তান আপত্তিজনক কন্টেন্টের কারণে ভিডিও শেয়ারিং প্ল্যাটফর্ম টিকটোককে নিষিদ্ধ করেছিল। সপ্তাহ আগে, দেশটি “অনৈতিক” এবং “অশ্লীল” বিষয়বস্তু সীমাবদ্ধ করার জন্য টিন্ডার এবং গ্রিন্ডার সহ বেশ কয়েকটি ডেটিং অ্যাপগুলিকে নিষিদ্ধ করেছিল।

Get the latest Bengali news and World news here. You can also read all the World news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Pakistan threatens google wikipedia over sacrilegious content

Next Story
পুলিশকে লক্ষ্য করে একাধিক বিস্ফোরণ, কেঁপে উঠল কাবুল
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com