scorecardresearch

বড় খবর

ইজরায়েল-সংযুক্ত আরব আমিরশাহী ‘ঐতিহাসিক শান্তি চুক্তি’।।ভিসা নীতি শিথিল ট্রাম্পের

দুনিয়াজুড়ে কী ঘটল? বিশ্বের যেসব খবর না জানলে চলবেই না, তেমনই সব খবর এই প্রতিবেদনে।

world news, বিশ্বের খবর, দুনিয়ার খবর
একনজরে বিশ্বের খবর।

ইজরায়েল ও সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর মধ্য়ে ‘ঐতিহাসিক শান্তি চুক্তি’ হয়েছে বলে টুইট করে জানালেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। এদিকে, আমেরিকায় কর্মরত তথ্য়প্রযুক্তি ও স্বাস্থ্য় পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত ভারতীয় কর্মীরা খানিকটা স্বস্তি পেলেন। ভিসা নীতি শিথিল করল ট্রাম্প সরকার। অন্য়দিকে, শাওয়ারে জলের প্রবাহ কম কেন, এ নিয়ে অভিযোগ করেছিলেন খোদ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আর এরপরেই শাওয়ারে জলের প্রবাহ বাড়াতে উদ্য়োগী হল মার্কিন প্রশাসন। এজন্য় আইন শিথিল করা হবে। বিশ্বের এমনই খবর পড়ে নিন এক এক করে…

ইজরায়েল-সংযুক্ত আরব আমিরশাহী ঐতিহাসিক শান্তি চুক্তি, ঘোষণা ট্রাম্পের

trump
ছবি: টুইটার।

প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের মুখে বড়সড় সাফল্য় পেলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। মধ্য়প্রাচ্য়ের দুই দেশ ইজরায়েল ও সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর মধ্য়ে ‘ঐতিহাসিক শান্তি চুক্তি’ হয়েছে বলে টুইট করে জানালেন ট্রাম্প। এই চুক্তির ফলে দু’দেশের কূটনৈতিক সম্পর্ক স্বাভাবিক হবে।

*এদিন টুইটারে ট্রাম্প লিখেছেন, ”আজ বিরাট সাফল্য়! আমাদের দুই দারুণ বন্ধু ইজরায়েল ও সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর মধ্য়ে ঐতিহাসিক শান্তি চুক্তি হয়েছে”।

https://platform.twitter.com/widgets.js

*সংযুক্ত আরব আমিরশাহী তৃতীয় আরবের দেশ যারা ইজরায়েলের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক গড়ল।

* এদিকে, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের মুখে ট্রাম্পের এই কূটনৈতিক স্তরের সাফল্য় জো বিডেন শিবিরকে চমক দিল বলেই মনে করছে ওয়াকিবহাল মহলের একাংশ। (Read in English)

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

বিশ্বের অন্য়ান্য় খবর পড়ুন নীচে

আমেরিকায় কর্মরত ভারতীয়দের স্বস্তি, ভিসা নীতি শিথিল ট্রাম্পের

ছবি: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

আমেরিকায় কর্মরত তথ্য়প্রযুক্তি ও স্বাস্থ্য় পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত ভারতীয় কর্মীরা খানিকটা স্বস্তি পেলেন। ভিসা নীতি শিথিল করলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এইচওয়ানবি ও এলওয়ান ভিসায় কিছুটা ছাড় ঘোষণা করলেন ট্রাম্প। এই ভিসা রয়েছে যাঁদের, তাঁরা ফের আমেরিকায় ফিরে একই পদে কাজ করতে পারবেন। এই সিদ্ধান্তের ফলে মার্কিন মুলুকে কর্মরত ভারতীয়রা অনেকটাই হাঁফ ছেড়ে বাঁচলেন বলে মনে করা হচ্ছে।

*স্টেট ডিপার্টমেন্টের তরফে এক অ্য়াডভাইজরিতে বলা হয়েছে, যেসব বিদেশি নাগরিক আমেরিকায় ফিরে একই নিয়োগকর্তার কাছে একই পদে কাজ করতে চান, তাঁদের এইচওয়ানবি ও এলওয়ান ভিসা দেওয়া হবে।

* যেসব এইচওয়ানবি ভিসাধারী স্বাস্থ্য় পরিষেবায় যুক্ত, বিশেষত করোনা অতিমারী বা ক্য়ানসারের মতো বিভিন্ন গবেষণায় যুক্ত, তাঁরাও এই সুবিধা পাবেন বলে জানানো হয়েছে।

* উল্লেখ্য়, করোনা পরিস্থিতিতে গত ২২ জুন এইচওয়ানবি, এলওয়ান, জে ওয়ান ভিসায় নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল ট্রাম্প সরকার। এরফলে চরম সমস্য়ার মুখোমুখি হন আমেরিকায় কর্মরত বিদেশি নাগরিকরা।

* গত কয়েক সপ্তাহে সেক্রেটারি অফ স্টেটকে চিঠি লিখে স্বাস্থ্য় ক্ষেত্রে এই ভিসা নিষেধাজ্ঞা শিথিলের আর্জি জানানো হয়।

* করোনার ধাক্কায় এমনিতেই অর্থনীতি ধুঁকছে। এই পরিস্থিতিতে নতুন কর্মী নিয়োগ করলে আর্থিক সমস্য়ার মুখোমুখি হতে হবে নিয়োগকর্তাদের। সে কারণেই ভিসা নীতিতে কিছুটা শিথিলের পথে ট্রাম্প সরকার হাঁটল বলেই মনে করা হচ্ছে।

* অন্য়দিকে, সামনেই মার্কিন মুলুকে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। তাই ভিসা নীতি শিথিল করে এশিয়-আমেরিকানদের মন পেতে চাইছে রিপাবলিকান পার্টি, এমনটাই ব্য়াখ্য়া রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের একাংশের। (Read in English)

বিশ্বের অন্য়ান্য় খবর পড়ুন নীচে

অল্প জলে ট্রাম্পের চুলে সমস্যা হচ্ছে, আইন শিথিলের প্রস্তাব

trump
ছবি: টুইটার।

শাওয়ারে জলের প্রবাহ কম কেন, এ নিয়ে অভিযোগ করেছিলেন খোদ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আর এরপরেই শাওয়ারে জলের প্রবাহ বাড়াতে উদ্য়োগী হল ট্রাম্প সরকার। এজন্য় আইন শিথিল করা হবে।

* জুলাই মাসে হোয়াইট হাউসের সাউথ লনে ট্রাম্প বলেন, ”শাওয়ারহেডে আপনি শাওয়ার নেন, কিন্তু জল আসে না। আপনি হাত ধুতে চান, জল আসে না। সুতরাং কী করা যায়? আপনি সেখানে দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করুন? কারণ আমার চুল… আপনাদের ব্য়াপারে জানি না, কিন্তু আমার মাথার চুল পারফেক্ট হতে হবে”।

* উল্লেখ্য়, ১৯৯২ সাল থেকে ফেডেরাল আইনে বলা রয়েছে, প্রতি মিনিটে ২.৫ গ্য়ালনের বেশি জল শাওয়ারহেড দিয়ে বের হওয়া যাবে না।

*বুধবার ট্রাম্প সরকারের নয়া প্রস্তাব অনুযায়ী, প্রতি নলমুখ দিয়ে প্রতি মিনিটে ২.৫ গ্য়ালন জল বের করা যাবে। আইন শিথিল হলে, শাওয়ারহেড দিয়ে প্রতি মিনিটে ১০, ১৫ গ্য়ালন জল মিলবে। (Read in English)

বিশ্বের অন্য়ান্য় খবর পড়ুন নীচে

ভার্জিনিয়ায় পুলিশের হাত থেকে বাঁচতে গুলি চালাতে গিয়ে মৃত ব্য়ক্তি

Virginia
প্রতীকী ছবি।

হাইওয়ে ধরে বেপোরোয়াভাবে গাড়ি চালানোর অভিযোগে এক ব্য়ক্তিকে পাকড়াও করতে গিয়েছিল ভার্জিনিয়া পুলিশ। কিন্তু পুলিশকে প্রতিহত করতে গুলি চালাতে গিয়ে নিজেই গুলিবিদ্ধ হলেন এক ব্য়ক্তি। ঘটনাস্থলেই মৃত্য়ু হয়েছে ওই ব্য়ক্তির।

* এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে ভার্জিনিয়া সিটি পুলিশ জানিয়েছে, বুধবার রাতে ভার্জিনিয়া বিচে গুলি চালানোর ঘটনা ঘটে।

* পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, ওই ব্য়ক্তি বেপোরোয়াভাবে গাড়ি চালাচ্ছিলেন। তাঁকে থামানোর চেষ্টা করা হয়।

* পুলিশের দাবি, ওই ব্য়ক্তি নির্দেশ মানেননি বরং পার্ক করা একটি গাড়িতে ধাক্কা মারেন। তারপর পালানোর চেষ্টা করেন। এরপর তাঁকে ধরে ফেলা হয়। হেফাজতে নেওয়ার চেষ্টা করা হয়। তখনই বন্দুক বের করে গুলি চালাতে শুরু করেন ওই ব্য়ক্তি। একটা গুলি ওই ব্য়ক্তির গায়েই লাগে। সেখানেই তাঁর মৃত্য়ু হয়।

*তবে পুলিশ বাহিনীর কেউ হতাহত হননি। মৃত ব্য়ক্তির পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। (Read in English)

বিশ্বের সব গুরুত্বপূর্ণ খবর পড়ুন এই প্রতিবেদনে

Stay updated with the latest news headlines and all the latest World news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Todays top news world latest update international news 13 august 2020 trump h 1b kamala harris