বড় খবর

আমেরিকার প্রত্যাঘাত, আফগানিস্তানে ISIS ডেরায় এয়ারস্ট্রাইক মার্কিন বাহিনীর

এই প্রত্যাঘাতে কাবুল হামলার নেপথ্যে থাকা মূল ষড়যন্ত্রীকে নিকেশ করা সম্ভব হয়েছে বলে দাবি পেন্টাগনের।

আফগানিস্তানের পতাকা

কাবুল বিমানবন্দরে বিস্ফোরণের প্রত্যাঘাত করল আমেরিকা। এবার ইসলামিক স্টেটের গোপন ডেরায় ড্রোন অভিযান চালাল মার্কিন বাহিনী। এখনও পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুসারে, পূর্ব আফগানিস্তানের নঙ্গাহার প্রদেশে অবস্থিত আইএস- জঙ্গি গোষ্ঠীর ডেরায় নাগাড়ে ড্রোন অভিযান চালিয়েছে মার্কিন সেনা। এই প্রত্যাঘাতে কাবুল হামলার নেপথ্যে থাকা মূল ষড়যন্ত্রীকে নিকেশ করা সম্ভব হয়েছে বলে দাবি পেন্টাগনের।

সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদন অনুসারে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আফগানিস্তানের নঙ্গাহারে আইএসআইএস-য়ের বিরুদ্ধে ড্রোন হামলার কথা স্বীকার করেছেন।

মার্কিন সেনার সেন্ট্রাল কম্যান্ডের মুখপাত্র বিল আর্বান এক বিবৃতি জানিয়েছেন, “মার্কিন সামরিক বাহিনী আজ আইএসআইএস পরিকল্পনাকারীর বিরুদ্ধে সন্ত্রাস দমন অভিযান পরিচালনা করেছে। পাক সীমান্তের কাছে আফগানিস্তানের নঙ্গাহার প্রদেশে এয়ার স্ট্রাইক করা হয়েছে। প্রাথমিক ইঙ্গিত, মার্কিন সেনা বিমানবন্দরের বিস্ফোরণের মূল টার্গেটকে খতম করেছে। এই অভিযানে অসামরিক কোনও ব্যক্তির হতাহতের খবর নেই।”

বৃহস্পতিবার কাবুল বিমানবন্দরের গেটের কাছে পরপর দু’বার বিস্ফোরণ ঘটে। সঙ্গে চলেছিল গুলি বৃষ্টি। এই হামলায় ১৩ মার্কিন সেনা সহ শতাধিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। আইএসআইএস জঙ্গি সংগঠনের খোরাসন গোষ্ঠী এই হামলা চালায় বলে দায় স্বীকারও করে।

ভয়ঙ্কর এই হামলার পরেই আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন জঙ্গিদের হুঁশিয়ারি গিয়ে বলেছিলেন, “যারা এই কাজ করেছে, তাদের জেনে রাখা ভাল, আমরা ভুলব না। তোমাদের এর মূল্য দিতে হবে।” পাশাপাশি কাবুলে হামলায় যুক্ত দোষীদের খুঁজে বার করারও কড়া বার্তা দেন তিনি। বলেন, “আমরা সম্পূর্ণ নিশ্চিত না হলেও অনুমান করতে পারি কারা এই কাজ করিয়েছে। ভয়ঙ্কর সামরিক অভিযান ছাড়া কিভাবে এদের সন্ধান পেতে হয়, সেই উপায়ও আমরা বের করব।’

এরপরই শুক্রবার রাতে ইসলামিক স্টেটের খোরাসান গোষ্ঠীর গোপন ডেরায় ড্রোন অভিযান চালাল মার্কিন বাহিনী।

এরই মধ্যে কাবুলের মার্কিন দূতাবাসের তরফে এখনও আফগানিস্তানে অবস্থানকারী মার্কিন নাগরিকদের সতর্ক করা হয়েছে। অবিলম্বে সেদেশ ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কাবুল বিমানবন্দরে যাতায়াত ও সেখানকার গেটগুলিতে ভিড় জমাতেও নিষেধ করা হয়েছে।

আমেরিকার আশঙ্কা, বৃহস্পতিবারের বিস্ফোরণের মত আরও হামলা চালাতে পারে তালিবান ও আইএসআইএস খোরাসান গোষ্ঠী। যা রুখতে অবশ্য মার্কিন বাহিনী সচেষ্ট বলেও দাবি করা হয়েছে।

Read in English

ইন্ডিয়ানএক্সপ্রেসবাংলাএখনটেলিগ্রামে, পড়তেথাকুন

Get the latest Bengali news and World news here. You can also read all the World news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Us military conducts airstrike against isis k planner in afghanistan

Next Story
কাবুল এয়ারপোর্টে আরও হামলা চালাবে ISIS! আশঙ্কা মার্কিন সেনাকর্তারIt was a tragic mistake, says United States on Kabul drone strike
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com