scorecardresearch

বড় খবর

করোনায় আর্থিক ক্ষতি সবচেয়ে বেশি ভারতেই, বৃদ্ধির হার নামতে পারে ২.৫ শতাংশে

এর আগে মুডিজ আভাস দিয়েছিল ৫.৩ শতাংশ থাকতে পারে আর্থিক বৃদ্ধির হার। করোনার প্রকোপ যে আচ্ছন্ন করেছে ভারতের অর্থনীতিকে, তা বেশ স্পষ্টই বোঝা যাচ্ছে মুডিজের এই আভাস থেকে।

করোনা সংক্রমণ আটকানোর জন্য দেশে জারি করা হয়েছে তিন সপ্তাহের লকডাউন। এই পরিস্থিতিতে চূড়ান্ত সংকটের মুখে দেশের অর্থনীতি। দিনমজুররা কর্মহীন হয়ে পড়েছেন সঙ্গে সঙ্গেই। কার্যত ধুকতে শুরু করেছে অর্থনীতি। এই অবস্থায় ২০২০ সালে দেশের আর্থিক বৃদ্ধির হার অর্ধেক হওয়ার আভাস দিল মুডিজ ইনভেস্টর্স সার্ভিসেস। আশঙ্কা করা হচ্ছে চলতি বছরে দেশের জিডিপি বৃদ্ধির হার নামতে পারে ২.৫ শতাংশে।

আরও পড়ুন, করোনা মোকাবিলায় রেপো রেট কমাল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক

এর আগে মুডিজ আভাস দিয়েছিল ৫.৩ শতাংশ থাকতে পারে আর্থিক বৃদ্ধির হার। করোনার প্রকোপ যে আচ্ছন্ন করেছে ভারতের অর্থনীতিকে, তা বেশ স্পষ্টই বোঝা যাচ্ছে মুডিজের এই আভাস থেকে। বুধবার সারা দেশে তিন সপ্তাহের লকডাউন ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তার জেরে বিমান পরিবহণ, রেল স্তব্ধ। সরকারি-বেসরকারি বাসও চলাচল কার্যত স্তব্ধ।

আরও পড়ুন, করোনা ক্ষতে প্রলেপ দিতে ইপিএফ-এ বড় ঘোষণা মোদী সরকারের

পৃথিবীর প্রায় ১৯৫ টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে মারণ ভাইরাস করোনা। বিশ্ব অর্থনীতিও ধুকছে। তবে বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, সবচেয়ে খারাপ প্রভাব পড়তে চলেছে ভারতের ওপর। মুডিজ অন্য যে সমস্ত দেশের গড় আর্থিক উৎপাদন বৃদ্ধির পূর্বাভাস দিয়েছে, তার মধ্যে ভারতের স্থান সবচেয়ে নীচে। করোনার এপিসেন্টার চিনে আর্থিক বৃদ্ধির সম্ভাব্য হার ৩.৩ শতাংশ।
সারা বিশ্ব জুড়েই অর্থনীতিতে থাবা বসিয়েছে করোনা। মুডিজের পূর্বাভাস বলছে সারা দুনিয়ায় চলতি বছরে আর্থিক বৃদ্ধির হার কমবে 0.৫ শতাংশ।

Read the full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Business news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Moodys cuts 2020 growth forecast to 2 5 from 5 3 6335089