বড় খবর

দুই প্রজন্মের ফারাক থেকেই তৈরি হল ‘জেনারেশন আমি’

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে হইচই অরিজিনালসের ছবি জেনারেশন আমি-র ট্রেলার। মুক্তি পাওয়ার দু-তিন দিনের মধ্যেই সোশালে ট্রেন্ড করছে এটা। আঙুলের চাপে সোশালের দেওয়াল সরালেই একের পর এক নেটপাড়ার সদস্য শেয়ার করে চলেছেন এই ছবির ঝলক।

প্রথম ঝলকেই টের পাওয়া গেল সমস্যার দোরগোড়ায় দাঁড়িয়ে কথা বলছে 'জেনারেশন আমি'।
একের পর এক প্রজন্ম আসে আয়া যায়, তাদের প্রত্যেকের নিজস্ব অঙ্ক থাকে। ছকে বাঁধা জীবনের বাইরে চলতে গিয়ে পাওয়া না পাওয়া, দুঃখ-হতাশা সঙ্গী হয়ে যায়। এই প্রজন্মের না বলা আবেগের ছবি এঁকেছেন মৈনাক ভৌমিক। যার প্রথম ঝলকেই টের পাওয়া গেল, সমস্যার দোরগোড়ায় দাঁড়িয়ে কথা বলছে  ‘জেনারেশন আমি’। আজকাল প্রায়শই শুনতে হয়, এই জেনারেশনের শুধু আমি আমি করেই শেষ হয়ে গেল। কথাটা সংলাপে বদলে যেন বাস্তবের দুটো দিককে সামনে আনার চেষ্টা করলেন পরিচালক।

সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে হইচই অরিজিনালসের ছবি জেনারেশন আমি-র ট্রেলার। মুক্তি পাওয়ার দু-তিন দিনের মধ্যেই সোশালে ট্রেন্ড করছে সেটি। আঙুলের চাপে সোশালের দেওয়াল সরালেই একের পর এক নেটপাড়ার সদস্য শেয়ার করে চলেছেন এই ছবির ঝলক। ছবিতে দুটো প্রজন্মের চাওয়া-পাওয়ার গল্পের বুনন আঁটোসাটো হয়েছে চিত্রনাট্যের শৈলীতে। এক স্কুল পড়ুয়ার বয়ঃসন্ধিকালের স্বপ্ন ও তার বাবা-মায়ের ইচ্ছে, এই দুইয়ের চাপানউতোরের বাস্তব পরিণতি কি হয় সেটাই ছবির কাহিনি। ছবিতে পরবর্তী জেনারেশনের প্রতীক ঋতব্রত মুখোপাধ্যায়, সৌরসেনী মিত্ররা, আর আগের প্রজন্মের হয়ে পর্দায় আসেন শান্তিলাল মুখোপাধ্যায়, অপরাজিতা আঢ্যরা।

আরও পড়ুন, গুয়াহাটির কনর্সাটে বাংলা গান গাওয়ায় হেনস্থা শানকে

“প্রথমে বাবাই চিত্রনাট্যটা পড়েছিল, এবং বলেছিল ভীষণ দরকারি একটা ছবি,” বললেন ঋতব্রত। অভিনেতার কথায়, “তারপর যখন আমি পড়লাম, দেখলাম আমার বড় হওয়ার সঙ্গে আশেপাশে এরকম প্রচুর বন্ধুবান্ধব রয়েছে যাদের এই সমস্যার মধ্যে পড়তে হয়েছে। ট্রেলারটা দেখার পর অনেকেই বলেছে, এটা তো আমাদের গল্প।” তাহলে চরিত্রটা তৈরি করতে এরাই কি সাহায্য করেছে? ঋতর সটান উত্তর, “আমায় তো কোনওদিন এসবের মধ্যে পড়তে হয়নি। তবে বন্ধুদের দেখেছি, তাদের বাবা-মায়েদেরও লক্ষ্য করেছি। সেটাই আমার কাছে রেফারেন্স ছিল।” তবে ঝগড়ার দৃশ্যতে তো ইউনিটের সদস্যরা বলত, “বাপ রে! বাবার সঙ্গে ঝগড়া করছে।”

এই প্রজন্মের না বলা আবেগের ছবি এঁকেছেন মৈনাক ভৌমিক।

ছবিতে আরও একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় রয়েছে সৌরসেনী। অভিনেত্রী বললেন, “ভাবতেও পারিনি ছবিটার ট্রেলার ট্রেন্ড করবে। আমি আপ্লুত। মানুষ যে বাংলা ছবিকে আবার সমর্থন করতে শুরু করেছেন, এটা তারই প্রমাণ। শুধু আমাদের জেনারেশন নয়, বাবা-মায়ের জেনারেশনের জন্যও এই ছবিটা গুরুত্বপূর্ণ, আর আমাদের চেষ্টা ছিল যাতে চরিত্রগুলোর সঙ্গে মানুষ রিলেট করতে পারেন।”

ঋতব্রত, সৌরসেনী, শান্তিলাল ও অপরাজিতা ছাড়াও এই ছবিতে অভিনয় করেছেন লিলি চক্রবর্তী, নন্দিনী চ্যাটার্জী, ইন্দ্রজিৎ দেব, দীপ্তরূপ বসু, অভিরূপ চক্রবর্তী, পূষন দাশগুপ্ত, অনুষা বিশ্বনাথন ও আরও অনেকে। জেনারেশন আমি মুক্তি পাচ্ছে আগামী ২৩ নভেম্বর।

Get the latest Bengali news and Entertainment news here. You can also read all the Entertainment news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Generation ami trailer ritoborto mukherjee hoichoi originals

The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com