বড় খবর


‘কিন্না সোনা’ আতিফের গান ইউটিউব চ্যানেল থেকে সরিয়ে শিবসেনার কাছে ক্ষমা চাইল টি-সিরিজ

টি-সিরিজ পাকিস্তানি গায়কেক ‘কিন্না সোনা’ ইউটিউবে আপলোড করতেই #টেকডাউনআতিফআসলাম সং ট্রেন্ড করছে টুইটারে।

মুক্তির দুদিন পর আতিফ আসলামের কিন্না সোনা গানের ভার্সন নিজেদের ইউটিউব চ্যানেল থেকে নামিয়ে নিল টি-সিরিজ। বুধবার তাদের ইউটিউব চ্যানেল থেকে গানটি সরিয়ে নেওয়ার পরই মহারাষ্ট্র নিবনির্মাণ শিবসেনার প্রধান রাজ ঠাকরের কাছে ক্ষমা চাইল মিউজিক কোম্পানি কর্তৃপক্ষ। ২০১৯ সালে সিদ্ধার্থ মলহোত্রা ও তারা সুতারিয়া অভিনয়ে মরজজাওয়া ছবিতে প্রথমবার শোনা গিয়েছিল আতিফের এই গান।

টি-সিরিজ পাকিস্তানি গায়কেক ‘কিন্না সোনা’ ইউটিউবে আপলোড করতেই #টেকডাউনআতিফআসলাম সং ট্রেন্ড করছে টুইটারে। তাছাড়া ওয়েস্টার্ণ ইন্ডিয়া সিনে এমপ্লয়িস আগেই পাকিস্তানি শিল্পীদের ভারতে কাজ করার উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল।

আরও পড়ুন, সুশান্তের সঙ্গে মিষ্টি স্মৃতি উসকে দিল মৌনীর কথা

এই বিষয়টি নজরে এসেছিল মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনার। তাদের সিনেমা বিভাগের প্রেসিডেন্ট আমেয়া খোপকর এদিন টুইট করে সতর্ক করেন টি-সিরিজকে। টুইটে লেখেন, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব টি-সিরিজ যেন তাদের ইউটিউব চ্যানেল সরিয়ে নেয়। নচেৎ তাদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ গ্রহণ করবে শিবসেনা।

শিবসেনা দলের সতর্কবার্তার পরই ক্ষম চেয়ে নেয় টি-সিরিজ এবং সরিয়ে ফেলা হয় সেই ভিডিয়ো।

ক্ষমা চেয়ে একটি বিবৃতিতে টি-সিরিদ লেখে, ”আমাদের নজরে পড়েছে গানটি আতিফ আসলামের গাওয়া এবং সেটা আমাদেরই প্রমোশনাল দলের এক কর্মী ইউটিউবে আপলোড করেছে। সে না জেনেই ভুলটা করে ফেলেছে এবং নজরে আসা মাত্র টি-সিরিজের পক্ষ থেকে তা শুধরে নেওয়া হয়েছে।”

আরও পড়ুন, প্রতিভাবান সঙ্গীতশিল্পীদের পিষে মেরে ফেলা হয়, মিউজিক ইন্ডাস্ট্রি প্রসঙ্গে বিস্ফোরক মোনালি

তারা আরও বলেন, ”এই অনিচ্ছাকৃত ভুলের জন্য লজ্জিত এবং ক্ষমাও চাইছি। আমরা আপনাকে আশ্বস্ত করছি যে এরপরে টি-সিরিজের কোনও প্ল্যাটফর্ম এই গান প্রকাশ করবে না, প্রচার করবে না। আমাদের ইউটিউব চ্যানেল থেকেও উল্লিখিত গানটি সরিয়ে দিচ্ছি।”

রেকর্ড কোম্পানি যোগ করে, ”আমরা আপনাকে আশ্বাসও দিচ্ছি যে এরপর থেকে আমরা কোনও পাকিস্তানি শিল্পীর কাজের প্রচার থেকে বিরত থাকব।”

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: T series removes atif aslams kinna sona from their youtube channel issues apology

Next Story
প্রতিভাবান সঙ্গীতশিল্পীদের পিষে মেরে ফেলা হয়, মিউজিক ইন্ডাস্ট্রি প্রসঙ্গে বিস্ফোরক মোনালিmonali thakur
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com