scorecardresearch

বড় খবর

করোনাভাইরাস বাতাসবাহিত, জানিয়ে দিল হু- এবার তাহলে কী হবে?

হুয়ের বক্তব্য,  জনবহুল স্থানে বা যথেষ্ট খোলামেলা নয় এমন জায়গায় দীর্ঘসময় সংক্রমিত ব্যক্তির উপস্থিতিতে কম দূরত্বের এয়ারোসোল সংক্রমণের সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যায় না।

Coronavirus Airborne WHO
হু বলেছে বদ্ধ জনবহুল স্থানে ও ড্রপলেট সংক্রমণের সঙ্গে এয়ারোসোল সংক্রমণের সম্ভাবনাও রয়েছে (ছবি- অমিত চক্রবর্তী)

বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এক আপডেটে জানিয়ে দিয়েছে বদ্ধ জনবহুল জায়গায় বাতাসেও করোনাভাইরাস থেকে যেতে পারে এবং স্বল্পদূরত্বে এই ভাইরাসের বায়ুবাহিত সংক্রমণের সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না।

হুয়ের এই আপডেটের তিন দিন আগে ৩২টি দেশের ২৩৯ জন বিজ্ঞানীর এক গোষ্ঠী একটি কমেন্টারি প্রকাশ করেছিলেন, যার শিরোনাম ছিল কোভিড-১৯-এর বায়ুবাহী সংক্রমণ নিয়ে কথা বলার সময় এসেছে। সেখানে তাঁরা চিকিৎসা গোষ্ঠী ও সংশ্লিষ্ট জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলিকে কোভিড-১৯-এর বায়ুবাহী সংক্রমণকে স্বীকার করার আবেদন জানান।

আরও পড়ুন, কোভিড চিকিৎসায় রেমডেসিভিরের তুলনায় ডেক্সোমেথোসোনে নজর দেওয়া কেন জরুরি?

মঙ্গলবার, ৭ জুলাই, বিজ্ঞানীদের খোলা চিঠি প্রকাশিত হওয়ার একদিন পর হুয়ের অতিমারী সম্পর্কিত টেকনিক্যাল প্রধান মারিয়া ভ্যান কেরখোভে দৈনন্দিন কোভিড-১৯ সম্পর্কিত সাংবাদিক সম্মেলনে বলে, আমরা এই ভাইরাসের এয়ারবোর্ন ও এয়ারোসেল সংক্রমণের সম্ভাবনার বিষয়টি খতিয়ে দেখছি।

তাহলে হু নতুন কী বলল?

সাম্প্রতিক কয়েকটি গবেষণার উল্লেখ করে হু বলেছে বদ্ধ জনবহুল স্থানে ও ড্রপলেট সংক্রমণের সঙ্গে এয়ারোসোল সংক্রমণের সম্ভাবনাও রয়েছে। এ ধরনের পরিস্থিতি কয়ার অনুশীলন, রেস্তোরাঁ বা ফিটনেস ক্লাসে ঘটতে পারে।

হুয়ের বক্তব্য,  জনবহুল স্থানে বা যথেষ্ট খোলামেলা নয় এমন জায়গায় দীর্ঘসময় সংক্রমিত ব্যক্তির উপস্থিতিতে কম দূরত্বের এয়ারোসোল সংক্রমণের সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যায় না।

তবে হু একই সঙ্গে বলছে এ রকম ক্ষেত্রেও কেবল মাত্র বাতাসের মাধ্যমেই এই সংক্রমণ ঘটে বলে মনে হয় না।

হুয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে বিস্তারিত গবেষণায় মনে হচ্ছে ড্রপলেট ও ফোমাইট সংক্রমণের মাধ্যমেও এই ক্লাস্টারে মানুষ থেকে মানুষে সংক্রমণ ঘটতে পারে।

আরও পড়ুন, একদিনে ২৫ হাজার সংক্রমণ, ওড়িশা-আসামের পরিস্থিতি ভাল নয়

ফোমাইট ট্রান্সমিশন দরজার হাতল, লিফটের বোতাম, হ্যান্ডরেল, ফোন, সুইচ, কলম, কীবোর্ড এমনকী ডিসইনফেক্ট না করা ডাক্তারের স্টেথোস্কোপ থেকেও ঘটতে পারে।

কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ হল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এর আগে বলে এসেছে কিছু মেডিক্যাল পদ্ধতিতে যেখানে এয়ারোসোল জন্ম নেয়, সেরকম ক্ষেত্রে স্বাস্থ্যকর্মীদের মধ্যে ছাড়া বায়ুবাহিত সংক্রমণ অসম্ভব।

নতুন বিজ্ঞপ্তিতে হু মেনে নিয়েছে চিকিৎসা ক্ষেত্রের বাইরেও এয়ারোসোল সংক্রমণ সম্ভব।

তবে নতুন বিজ্ঞপ্তিতে ড্রপলেট, ফোমাইট এবং এয়ারোসোলের মাধ্যমে সংক্রমণের তুলনামূলক হিসেব দেওয়া হয়নি। এ ব্যাপারে যথেষ্ট প্রমাণ নেই বলে জানানো হয়েছে।

এয়ারোসোল সংক্রমণের ব্যাপারে কিছু প্রমাণ ইতিমধ্যেই সামনে এসেছে।

উহানের উচাং ফাংচাং ফিল্ড হাসপাতাল ও রেনমিন হাসপাতালের গবেষণা নেচারে প্রকাশিত হয়েছিল।

এখানে দেখা গিয়েছিল আইসোলেশন ওয়ার্ড বা ভেন্টিলেডের রোগীর ঘরে এয়ারোসোলে ভাইরাসের উপস্থিতি নগণ্য কিন্তু রোগীদের ব্যবহার্য শৌচাগারে তার পরিমাণ বেশি।

এপ্রিল মাসে আমেরিকান গবেষকদের এক লেখা প্রকাশিত হয় এনইজেএম-এ। সেথানে তাঁরা বলেন, সার্স কোভ ২ একটি এক্সপেরিমেন্ট চলাকালীন ৩ ঘণ্টা ধরে এয়ারোসোলে উপস্থিত ছিল বলে দেখা গিয়েছে। তাঁরা বলেন, আমাদের পাওয়া ফলাফল ইঙ্গিত দিচ্ছে যে সার্স কোভ ২-র এয়ারোসোল এবং ফোমাইট সংক্রমণ সম্ভব,এবং তা এয়ারোসোলে ঘণ্টার পর ঘণ্টা সংক্রামক হিসেেব থাকতে পারে।

মে মাসে মার্কিন সংস্থা সিডিসি একটি গবেষণা প্রকাশ করে। সেখানে জানানো হয় গবেষকরা দেখেছেন এক জন উপসর্গযুক্ত রোগী সহ ৬১ জনকে নিয়ে ২.৫ ঘণ্টা ধরে চলা কয়ার প্র্যাকটিসের পর ৩২ জন নিশ্চিত সংক্রমিত ও ২০ জন দ্বিতীয় পর্যায়ে সম্ভাব্য সংক্রমিত হন। তিনজনকে হাসপাতালে ভর্তি করতে হয়, দুজন মারা যান।

এই গবেষণায় বলা হয় শুধু গান গাওয়ার ক্ষেত্রেই এয়ারোসোলে সংক্রমণ হতে পারে। যাঁঁদের কথা বলার সময়ে অন্যদের তুলনায় বেশি এয়ারোসোল নির্গত হয়, তাঁরা এ ধরনের সুপারস্প্রেডিংয়ের ঘটনার কারণ হতে পারেন।

 তাহলে এবার আমার-আপনার জীবনে কী বদল ঘটে গেল? বায়ুবাহিত সংক্রমণ সম্ভব হওয়ার অর্থ কী?

এর অর্থ মাস্ক পরা আগের চেয়ে অনেক বেশি জরুরি হয়ে পড়ল।

এবার থেকে হাসপাতালে স্বাস্থ্যকর্মীদের ব্যবহার্য N-95 মাস্ক এয়ারোসোল সংক্রমণের মোকাবিলায় ব্যবহার করার সুপারিশ করা হতে পারে, তবে তা নির্ভর করছে এ ধরনের মাস্কের প্রাপ্তিযোগ্যতার উপরে এবং সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির শারীরিক অবস্থার উপর নির্ভর করে।

কীভাবে সংক্রমণ প্রতিরোধ করা যায়, এ সম্পর্কে হাত ধোয়া ও শারীরিক দূরত্ব ছাড়াও হু বলেছে জনবহুল স্থান, ঘন হয়ে বসা, এবং খোলামেলা নয় এরকম রুদ্ধস্থান এড়িয়ে চলা প্রয়োজন। এ ছাড়া বদ্ধ ও জনবহুল স্থানে অন্যদের সুরক্ষার জন্য কাপড়ের মাস্ক পরা ও সমস্ত বন্ধ জায়গায় খোলামেলা বায়ুচলাচলের ব্যবস্থা ও যথাযথ পরিবেশগত পরিচ্ছন্নতা ও জীবাণুনাশের ব্যাপারেও নিশ্চয়তার কথা বলা হয়েছে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Explained news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Coronavirus airborne recognises world health organisation what next