বড় খবর

‘জম্মু-কাশ্মীর ভারতেরই’, দাবি ব্রিকসের উদ্যোক্তা ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূতের

বৈঠকে কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে আলোচনার সম্ভাবনা নেই বলে জানালেন ভারতে নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত আন্দ্রে আরানহা কোরিয়া দো লাগো।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

বুধবার থেকে শুরু হচ্ছে একাদশ ব্রিকস সম্মেলন। বৈঠকে কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে আলোচনার সম্ভাবনা নেই বলে জানালেন ভারতে নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত আন্দ্রে আরানহা কোরিয়া দো লাগো। ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে তিনি বলেন, ‘জম্মু-কাশ্মীর ভারতের অভ্যন্তরী বিষয়।’

এক সাক্ষাৎকারে ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত আন্দ্রে আরানহা জানান, ‘ব্রিকস সম্মেলনে সদস্য রাষ্ট্রের বিভিন্ন সমস্যা মতানৈক্যের ভিত্তিতে আলোচনা হয়ে থাকে। ভিন্নতা থাকলেও সদস্য রাষ্ট্রগুলি একে অপরকে সম্মান করে। কয়েকটি দেশ বেশি গণতান্ত্রিক, কেই আবার বেশি উন্নত, কেউ কেউ আবার নিরাপত্তা পরিষদেরর সদস্য। যে সমস্যা নির্দিষ্ট মঞ্চে আলোচনা হয়ে গিয়েছে তা নিয়ে ফের আলোচনার খুব প্রয়োজন রয়েছে বলে মনে হয় না।’ পরিষ্কারভাবে তিনি জানিয়ে দেন, ‘ব্রাজিল মনে করে জম্মু-কাশ্মীর ভারতের একান্তই নিজস্ব বিষয়। ভারত-পাকিস্তান বিরোধ দ্বিপাক্ষিক আলোচনার মাধ্যমে মেটানো উচিত।’ ব্রিকসের সদস্য রাষ্ট্র রাশিয়া ও চিন। কাশ্মীর ইস্যুতে তাদের নির্দিষ্ট অবস্থান রয়েছে। আন্দ্রে আরানহা জানান, ‘বৈঠকে এমন কিছু নিয়ে আলোচনা হবে না যেখানে দুটি বিশেষ দেশের অবস্থান রয়েছে।’

আরও পড়ুন: পাক বায়ুসেনার মিউজিয়ামে অভিনন্দনের ম্যানিকুইন

১১ তম ব্রিকস সম্মেলনে যোগ গিতে ব্রাজিলের রাজধানী রিও-ডি-জেনিরোতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মূলত সন্ত্রাসবাদ দমন, যৌথ সহযোগিতার ক্ষেত্রগুলি সম্প্রসারিত করা, বাণিজ‌্য, বিনিয়োগ ইত‌্যাদি নিয়ে ব্রিকস গোষ্ঠীভুক্ত দেশগুলির রাষ্ট্রপ্রধানদের সঙ্গে তাঁর আলোচনা হবে। ব্রিকসের শীর্ষ সম্মেলনের পাশাপাশি মোদি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনের সঙ্গেও দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করবেন বলে নয়াদিল্লিতে রুশ রাষ্ট্রদূত মঙ্গলবার জানিয়েছেন। সম্মেলনে যোগ দিচ্ছেন চিনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং, দক্ষিণ আফ্রিকার প্রেসিডেন্ট এবং ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট বোলসোনেরো।

জোহানেসবার্গে ব্রিকস সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী মোদী।

ব্রিকস সম্মেলনে যাওয়ার আগে প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, আন্তর্জাতিক মঞ্চে অর্থনীতি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির পাশাপাশি সন্ত্রাস দমনের উপর জোর দেবেন তিনি। ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত আন্দ্রে আরানহা-এর কথায়, ‘সন্ত্রাস মোকাবিলা’ ব্রিকসের অন্যতম আলোচনার বিষয়। বিশ্বজুড়ে বাড়ছে অপরাধের সংখ্যা, সংগঠিত অপরাধ, ড্রাগ পাচার বাড়ছে। তাই আলোচনায় সন্ত্রাসবাদ ইস্যু বেশ তাৎপর্যপূর্ণ।

আরও পড়ুন: তিন মাস বাদে কাশ্মীরে চালু রেল পরিষেবা, রাস্তায় নামল বাস

মতপার্থক্য থাকলেও, বিভিন্ন দেশের মধ্যে সৌজন্য যাতে ঘাটতি দেখা না যায় সেদিকটি বিশেষভাবে নজরে রাখা উচিুত বলে মনে করেন আন্দ্রে আরানহা। তিনি জানিয়েছেন, ‘ভারত ও ব্রাজিল উভয়ই গণতন্ত্রের সমর্থক। দুই দেশই রাষ্ট্রসংঘ ও ব্রিকসের বিভিন্ন বিধি মেনে চলে। তবে অনেক সময় আমাদের ভূমিকা গুরুত্ব পায় না।’

২০১৪ সালে ব্রাজিলেই প্রথমবার ব্রিকস সম্মেলনে যোগ দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী মোদি। তারপর থেকে এই নিয়ে ছ’বার বিশ্বের প্রধান পাঁচ অর্থনীতির বৈঠকে যোগ দিচ্ছেন তিনি। ব্রিকসের সদস্য দেশগুলির মধ্যে রয়েছে ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চিন এবং দক্ষিণ আফ্রিকা।

Read  the full story in English

Get the latest Bengali news and General news here. You can also read all the General news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Jk jk internal issue brics brazils envoy

Next Story
পাক বায়ুসেনার মিউজিয়ামে অভিনন্দনের ম্যানিকুইনabhinandan varthaman, অভিনন্দন বর্তমান, অভিনন্দন, অভিনন্দন বর্তমানের ম্যানিকুইন, abhinandan varthaman mannequin, abhinandan varthaman mannequin in pakistan, পাকিস্তানে অভিনন্দনের ম্যানিকুইন, pakistan air force ভারতীয় বায়ুসেনার উইং কমান্ডার অভিনন্দন, abhinandan varthaman mannequin, india news
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com