বড় খবর


সরকারি কর্মীদের বেতন থেকে ১৫৭ কোটি পিএম কেয়ারে! ফাঁস চাঞ্চল্যকর তথ্য

শুধুমাত্র রেলের কর্মীদের বেতন থেকেই ১৪৬.৭২ কোটি টাকা গিয়েছে প্রধানমন্ত্রীর এই বিশেষ তহবিলে।

নরেন্দ্র মোদী। ফাইল চিত্র

রেল থেকে শুরু করে মহাকাশ গবেষণা বিভাগ। অন্তত ৫০টি সরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মচারীদের বেতন থেকে ১৫৭.২৩ কোটি টাকা জমা পড়েছে পিএম কেয়ার ফান্ডে। আরটিআইয়ের মাধ্য়মে জানতে পেরেছে দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। শুধুমাত্র রেলের কর্মীদের বেতন থেকেই ১৪৬.৭২ কোটি টাকা গিয়েছে প্রধানমন্ত্রীর এই বিশেষ তহবিলে। এরপরেই তালিকায় রয়েছে মহাকাশ গবেষণা বিভাগ। তাঁদের কর্মীদের বেতন থেকে জমা পড়েছে ৫.১৮ কোটি টাকা।

আরটিআইয়ের উত্তরে মহাকাশ গবেষণা বিভাগ জানিয়েছে, বেতন থেকে নিজের সামর্থ্য অনুযায়ী কর্মীরা পিএম কেয়ার ফান্ডে সাহায্য দান করেছেন। তবে বড় সরকারি প্রতিষ্ঠান যেমন, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের অধীনস্থ সংস্থা, পিএমও, পোস্ট অফিস আরটিআইয়ের জবাব দেয়নি। পিএম কেয়ার ফান্ডের দায়িত্বে থাকা প্রধানমন্ত্রীর দফতর বা পিএমও এর আগে এতদিন যা সাহায্য জমা পড়েছে তার তথ্য দিতে অস্বীকার করেছিল। জানিয়েছিল, পিএম কেয়ার ফান্ড জনগণের তথ্য জানার অধিকারের আইনের আওতায় পড়ে না। তবে যাবতীয় তথ্য পিএমকেয়ারস ডট গভ ডট ইন ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবে।

আরও পড়ুন দ্রুত বাদ পড়বে ‘অযোগ্যদের’ নাম! চূড়ান্ত NRC তালিকা তৈরি হচ্ছে অসমে

প্রসঙ্গত, এই ফান্ড গত ২৮ মার্চ তৈরি করা হয়েছিল। করোনা সংক্রমণের জেরে দেশজুড়ে লকডাউনের ফলে মানুষের সাহায্যার্থে এই ফান্ড গঠন করেন প্রধানমন্ত্রী। ৩১ মার্চের মধ্যে ফান্ডে ৩,০৭৬.৬২ কোটি টাকা জমা পড়ে যায়। যার মধ্যে ৩,০৭৫.৮৫ কোটি টাকা স্বেচ্ছায় দান করা বলে জানানো হয়েছিল। দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের আরটিআইয়ের আবেদনে এখনও পর্যন্ত জানা গিয়েছে, মোট ২,১০৫ কোটি টাকা ৩৮টি রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার মারফত কর্পোরেট সোশ্যাল রেসপনসিবিলিটি হিসাবে পিএম কেয়ার ফান্ডে জমা পড়েছে। আর ২০৪.৭৫ কোটি টাকা সাতটি ব্যাঙ্ক এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠানের তরফে জমা পড়েছে। ২১.৮১ কোটি টাকা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের তরফে এবং কর্মীদের বেতন থেকে কেটে জমা করা হয়েছে।

Read the full story in English

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Web Title: Rs 157 crore from central staff salaries for pm cares

Next Story
সম্পর্কের বরফ গলাতে নেপালে যাচ্ছেন সেনাপ্রধান নারাভানে
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com