scorecardresearch

সুপ্রিম কোর্টে শবরীমালা রায়ের পুনর্বিচার

প্রাথমিকভাবে পাঁচ বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চে এই আবেদনগুলির শুনানি ধার্য হয়েছিল। এই পাঁচ বিচারপতি হলেন- প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ, বিচারপতি রোহিংটন ফলি নরিম্যান, এ এম খানউইলকর, ডি ওয়াই চন্দ্রচূড় এবং মালহোতরা।

সুপ্রিম কোর্টে শবরীমালা রায়ের পুনর্বিচার
প্রায় চার ডজন 'রিভিউ পিটিশন' জমা পড়েছে সুপ্রিম কোর্টে।

শবরীমালা রায় পুনর্বিচার করবে সুপ্রিম কোর্ট। ৬ ফেব্রুয়ারি এ সংক্রান্ত মামলাগুলির শুনানি হবে। কেরালার শবরীমালা মন্দিরে সব বয়সের মহিলাদের প্রবেশাধিকার সুনিশ্চিত করেছিল সুপ্রিম কোর্ট। কিন্তু, সেই রায়ের প্রেক্ষিতে প্রায় চার ডজন ‘রিভিউ পিটিশন’ জমা পড়ায়, এবার তা পুনর্বিচারের সিদ্ধান্ত নিল দেশের শীর্ষ আদালত।

প্রাথমিকভাবে পাঁচ বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চে এই আবেদনগুলির শুনানি ধার্য হয়েছিল। এই পাঁচ বিচারপতি হলেন- প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ, বিচারপতি রোহিংটন ফলি নরিম্যান, এ এম খানউইলকর, ডি ওয়াই চন্দ্রচূড় এবং মালহোত্রা। সেই অনুযায়ী, কিছুদিন আগেই শুনানি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু, চিকিৎসা সংক্রান্ত কারণে ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত ছুটি নিয়েছেন বিচারপতি মালহোত্রা। সে জন্যই শুনানির দিন পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে যাতে বিচারপতি মালহোত্রাকে নিয়েই বেঞ্চ গঠন করা সম্ভব হয়।

আরও পড়ুন- লোকসভার আগে বিজেপি ১, কংগ্রেস ১

কেরালার শবরীমালা মন্দিরে শতাব্দী প্রাচীন রীতি অনুসারে ঋতুমতী মহিলাদের প্রবেশাধিকার নেই। গত বছরের ২৮ সেপ্টেম্বর তৎকালীন প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্র, বিচারপতি রোহিংটন ফলি নরিম্যান, এম এম খানউইলকর, ডি ওয়াই চন্দ্রচূড় এবং মালহোত্রার ডিভিশন বেঞ্চ এক রায়ে এই রীতি খারিজ করে দেয়। শীর্ষ আদালত বলে, সব বয়সের মহিলাদেরই মন্দিরে প্রবেশাধিকার রয়েছে।

সুপ্রিম কোর্টের এই রায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদে সোচ্চার হয় আয়াপ্পা ভক্তদের একাংশ। তাদের সমর্থনে এগিয়ে আসে বেশ কয়েকটি হিন্দুত্ববাদী সংগঠনও। সব মিলিয়ে বনধ এবং হিংসায় উত্তাল হয় কেরালা।

Read the full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest General news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Sc to hear review petitions challenging its verdict