scorecardresearch

বড় খবর

লন্ডনে স্টেশনের নাম বাংলায়, ‘গর্বের মুহূর্ত’, টুইট করে জানালেন মমতা

লন্ডনের অত্যন্ত ব্যস্ত এই স্টেশনের নামে বাংলা ভাষার ব্যবহারে খুব খুশি এখানকার প্রবাসী বাঙালিরা।

Whitechapel station name in Bengali
গর্বের মুহূর্ত নিয়ে টুইট করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

বাঙালিদের জন্য গর্বের মুহূর্ত। লন্ডনের হোয়াইট চ্যাপেল টিউবরেল স্টেশনের নাম বাংলা হরফে লেখা হল। সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই ছবি ভাইরাল। বাঙালিদের গর্বের মুকুটে আরও একটি পালক যোগ করেছে এই উদ্যোগ। লন্ডনের বাঙালিদের জন্যই এটা সম্ভব হয়েছে। এবার সেই গর্বের মুহূর্ত নিয়ে টুইট করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মুখ্যমন্ত্রী টুইটে লিখেছেন, “অত্যন্ত গর্বের সঙ্গে জানাচ্ছি লন্ডন টিউবরেল কর্তৃপক্ষ হোয়াইট চ্যাপেল স্টেশনের নাম লেখার জন্য বাংলা ভাষাকে বেছে নিয়েছে। হাজার বছর পুরনো বাংলা ভাষার বিশ্বব্যাপী যে গুরুত্ব বাড়ছে এটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এটা আমাদের সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যের জয়।”

পূর্ব লন্ডনের এই টিউবরেল স্টেশনটি গত একবছর ধরে সংস্কার হয়েছে। এই অঞ্চলটি বাঙালি ভাষাভাষী মানুষ অধ্যুষিত এলাকা। দীর্ঘদিন ধরে এখানকার বাঙালি কমিউনিটির দাবি ছিল, স্টেশনের নাম বাংলা ভাষাতেও রাখা হোক।

লন্ডনে বসবাসকারী বাঙালিদের বহুদিনের দাবি মেনেই এই পরিবর্তন। প্রতিদিন ওই স্টেশন দিয়ে শুধু বাঙালি নন, যাতায়াত করেন প্রায় বিভিন্ন ভাষাভাষী, বিভিন্ন দেশের হাজার হাজার মানুষ। সেখানে আলাদা করে বাংলা ভাষায় সাইনবোর্ড, বাঙালি হিসেবে বিশেষ সম্মানের বলেই মনে করছেন সেখানকার বাংলা কমিউনিটি।

আরও পড়ুন বিলেতে বাঙালির স্বীকৃতি, লন্ডনে মেট্রো স্টেশনের নাম ‘বাংলায়’

লন্ডনের অত্যন্ত ব্যস্ত এই স্টেশনের নামে বাংলা ভাষার ব্যবহারে খুব খুশি এখানকার প্রবাসী বাঙালিরা। তাঁদের কাছে বিষয়টি অত্যন্ত গর্বের। ব্রিটেনের বুকে এই প্রথম কোনও টিউবরেল স্টেশনের নাম লেখা হল বাংলায়। যা নিয়ে উচ্ছ্বসিত বাংলার মুখ্যমন্ত্রীও। ইতিমধ্যেই স্টেশনের নামে ইংরাজির পাশে বাংলা লেখা ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। স্টেশনের মূল প্রবেশপথে বাংলায় লেখা রয়েছে, ‘হোয়াইটচ্যাপেল স্টেশনে আপনাকে স্বাগত’।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Kolkata news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Mamata banerjee praises bengali language used in londons white chapel station