পাঁচটি এমন সংকেত, যেগুলি হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব ইঙ্গিত

হার্ট অ্যাটাক এখন বয়স মানে না, তাই সতর্ক হন

প্রতীকী ছবি

যে কোনও রোগের কিন্তু লক্ষণ থাকে, এবং বেশ কিছুদিন ধরেই নানা সময়ে শরীরে বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার ইঙ্গিত মেলে। মাঝে মধ্যেই হঠাৎ করে শরীর খারাপ হতে শুরু করে, নির্দিষ্ট কোনও অঙ্গে ব্যথা অনুভূত হয় অর্থাৎ এমন কিছু পরিলক্ষিত হয় যেটি দ্বারা আপনি কিছু আঁচ করতে পারেন। হার্টের ক্ষেত্রেও কিন্তু ব্যতিক্রম নয়। সারা বিশ্বে হার্টের সমস্যায় আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা প্রচুর এবং সেইক্ষেত্রে বয়সের কোনও বিভেদ নেই। শুধু তাই নয়, মৃত্যু হয়েছে এমন সংখ্যাও নিতান্তই কম নয়। 

তার সঙ্গেই, কোভিড পরিস্থিতি বাড়িয়ে তুলেছে এর প্রকোপ। মহামারী দ্বারা আক্রান্ত হলে ফুসফুসের সঙ্গে সঙ্গেই কিন্তু হৃদরোগের সমস্যা বাড়তে থাকছে। হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকিও কিন্তু এখন বেশ বেড়েছে। যেকোনও বয়সের মানুষের মধ্যেই কিন্তু এই সম্ভাবনা বেশি।চিকিৎসা শাস্ত্র বলছে, বেশ কিছু দৈহিক ইঙ্গিত আপনি অবশ্যই পাবেন। শরীরের বেশ কিছু অঙ্গ প্রত্যঙ্গ আপনাকে জানান দেবে যে আপনার হার্টের পরিস্থিতি ভাল নয়। সেগুলি কী কী? 

বুকে ব্যথা তার মধ্যে প্রধান এবং অন্যতম। প্রথমেই আপনি বুকে একটি অমায়িক কষ্ট অনুভব করবেন। হাঁপিয়ে ওঠা, বুকে চাপ, একদম মধ্যভাগে ব্যথা আপনার হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব লক্ষণ। আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়েশন বলছে, এগুলি আপনার শরীরে দেখা দিলেই আর এক মুহূর্ত দেরি করবেন না। অনেক সময় বুকে চিনচিন করে ওঠে, তখনও ভেবে দেখবেন না, সরাসরি চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলুন। 

বিশেষ করে মহিলাদের ক্ষেত্রে এই লক্ষণটি বেশি দেখা যায়। পিঠে ব্যথা কিন্তু হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব লক্ষণ হতে পারে। তাই আপনার পিঠ এবং কোমর সংলগ্ন অঞ্চলে যদি ব্যথা হয় তবে কিন্তু এটি এড়িয়ে না যাওয়াই ভাল। 

সাধারণত হৃৎপিন্ডের পেশীগুলোতেই রক্ত জমাট বেঁধে গিয়ে যখন রক্ত সঞ্চালনে বাধা সৃষ্টি করে তখনই বুকে ব্যথা অনুভূত হয়। তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে কিন্তু ঘাড়ে যন্ত্রণা শুরু করতে পারে। হঠাৎ করে ঘাড়ে যন্ত্রণা, ভারী ভাব এবং অস্বস্তি কিন্তু হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ হতে পারে।

কোনও কারণেই বুকে ব্যথার সঙ্গে সঙ্গে যদি আপনার বাম হাতে একটু বেশিই ব্যথা করে তবে জানবেন এটিও কিন্তু হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ। কারণ হার্টের সঙ্গেই বাঁদিকের হাত বেশ সম্পর্কিত। পালস রেট নিতে গেলেও বাম হাতের প্রয়োজন। 

বামদিকের চোয়ালে ব্যথা এবং জ্বলুনি ভাব দেখলে একেবারেই বসে থাকবেন না। চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলুন। এই ব্যথা থেকেই আপনার কথা বলায় ব্যাঘাত, শ্বাসকষ্ট, অতিরিক্ত ঘাম, বমি ভাব এগুলির লক্ষণ থাকতে পারে তাই একটু সচেতন থাকুন। হতে পারে হৃদরোগ।

রোগ এড়িয়ে যাবেন না, দরকারে আগে থেকেই চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। নইলে সমস্যায় আপনিই ভুগবেন।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Lifestyle news here. You can also read all the Lifestyle news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Five health signals you should have before heart attack

Next Story
ট্য়াটু নিয়ে মিথগুলো ভাঙুন, শখ পূরণ করতে পারেন আজই!tattoo
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com