বড় খবর

আলু থেকে নিঃসৃত ‘দুধ’ কি ডেয়ারির দুধের বিকল্প হতে পারে?

পানীয়টি খুবই সহজলভ্য কারণ অন্য যে কোনও দুধের তুলনায় এক লিটার পটেটো মিল্ক তৈরি করতে অনেক কম সম্পদ লাগে।

প্রতিদিনের জীবনে ছোট থেকে বড় সকলেরই দুধের প্রয়োজনীয়তা সকলের আছে। ছোট থেকেই দুধ না খেলে হবে না ভালও ছেলে এই বিশ্বাস থেকে যায় সকলের মনেই। এবং তার সঙ্গে দুধে উপস্থিত ক্যালসিয়াম, রিবোফ্লাভিন, ফসফরাস, ভিটামিন এ এবং বি-১২ শারীরিক পুষ্টি এবং গঠনে ভীষণ ভাবে কার্যকরী। কিন্তু দুধ যেমন শরীরের পক্ষে উপযুক্ত তেমনই এটি কিন্তু অনেকের পক্ষে বেশ সমস্যাজনিত একটি খাবার! পেটের সমস্যা, অ্যালার্জি, এসব সমস্যায় যারা ভুগছেন তাদের পক্ষে দুধ একদমই বারণ! 

তবে, এর কি কোনও সমাধান নেই? অবশ্যই আছে! এখন বাজারে নন-মিল্ক বিকল্প যেমন সয়া দুধ, বাদাম দুধ, ওট মিল্ক, কাজু দুধ অন্যান্য ব্যবহারের জন্য উপলব্ধ। এবং এর সর্বশেষ সংযোজন হল পটেটো মিল্ক বা আলু থেকে প্রাপ্ত দুধ! 

বেশ কয়েক দিন ধরেই পটেটো মিল্ক নজর কেড়েছে সকলের। সুইডিশ কোম্পানি ভেজ অফ লুন্ড ব্র্যান্ড DUG-এর অধীনে পটেটো মিল্ক নির্মাণের পর অনেকেই ট্রাই করেছেন এবং বলার অপেক্ষা রাখে না যথেষ্ট ভাল লেগেছে সকলেরই। একটি সাক্ষাৎকারে সিইও টমাস ওলান্ডার বলেন, পানীয়টি খুবই সহজলভ্য কারণ অন্য যে কোনও দুধের তুলনায় এক লিটার পটেটো মিল্ক তৈরি করতে অনেক কম সম্পদ লাগে। তিনি আরও দাবি করেন, উৎপাদনের জন্য ওট দুধের চেয়ে প্রায় হাফ পরিমাণ উপাদান এবং আলমন্ড দুধের চেয়ে প্রায় ৫৬ বারের কম উপাদান প্রয়োজনীয়। যদিও বা পুষ্টিবিদ আরোশি আগরওয়াল বলেছেন যে, পটেটো মিল্ক বা আলুর দুধ উৎপাদনকারী প্রথম সংস্থা এটি নয়। মূলত ২০১৫ সালে কানাডা এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে একটি ভেগান ব্র্যান্ড প্রথম এর উৎপাদন শুরু করে। 

কীভাবে এটি তৈরি হয়? 

পটেটো মিল্ক তৈরি করতে গেলে, গরম জলে আলু সেদ্ধ করে তারপর ক্যালসিয়াম, মটর প্রোটিন এবং চিকোরি ফাইবারের জন্য রেপসিড তেল এবং অন্যান্য খাবারের সঙ্গে মিশ্রিত করে তৈরি করা হয়। তারপর বিভিন্ন ভিটামিন এবং খনিজ দিয়ে একে বিশুদ্ধ এবং কার্যকরী করে তোলা হয়। 

আরও পড়ুন চকচকে আর উজ্জ্বল ত্বক চাই? আয়ুর্বেদেই সব সম্ভব

শরীরকে সুস্থ রাখতে এটি কীভাবে কাজ করে? 

• পটেটো মিল্ক বা আলুর দুধ ভিটামিন ডি এবং বি-২২ এর একটি ভাল উৎস। ভিটামিন এ, সি, ডি, ই এবং কে-সহ বি ভিটামিন, ক্যালসিয়াম এবং আয়রন-সহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ ভিটামিন এবং খনিজগুলির শরীরে জোগান দেয়। 

• এটি সহজলভ্য এবং পরিবেশ বান্ধব কারণ এর উৎপাদনে কম জল ও জায়গার প্রয়োজন হয়।

• এতে উপস্থিত ফাইবার হৃদরোগের সমস্যা কম করে এমনকি কোলেস্টরল কম করতে সহায়ক।

• এটি হজমে ভীষণ মাত্রায় কার্যকরী। তবে খাওয়ার আগে অবশ্যই গরম করে নেবেন। 

তারপরেও, অনেক ক্ষেত্রেই ভালও করে জেনে বুঝে এটি খাওয়া উচিত। ডায়াবেটিস, হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপ এবং ডিসপেপসিয়ায় আক্রান্ত ব্যক্তিদের জন্য এই দুধটি একটি ভাল বিকল্প হিসাবে প্রস্তাব করার কোনও প্রমাণ নেই বলেই জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। যেহেতু আলু প্রোটিনের ভাল উৎস নয়, তাই বাড়িতে তৈরি আলুর দুধে প্রোটিন এবং অন্যান্য পুষ্টির অভাব থাকবে বলে ধারণা অনেকের।

দুগ্ধজাত পণ্যের বিকল্পের চাহিদা ক্রমবর্ধমান । অতএব, পটেটো মিল্ক শুধু সয়া-মুক্ত, গ্লুটেন-মুক্ত তবে চিনি-মুক্ত নয় বরং এটি দুগ্ধের জন্য একটি চমৎকার প্রতিস্থাপন কারণ এটি ডেয়ারিজাত দুধের অনুরূপ।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বাংলা এখন টেলিগ্রামে, পড়তে থাকুন

Get the latest Bengali news and Lifestyle news here. You can also read all the Lifestyle news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Is potato milk the new non dairy alternative know all about it here

Next Story
চকচকে আর উজ্জ্বল ত্বক চাই? আয়ুর্বেদেই সব সম্ভব
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com