scorecardresearch

বড় খবর

‘ঐতিহাসিক অবিচারের সমাধানেই সিএএ’

সিএএ-এর মাধ্যমে পাকিস্তান, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ থেকে এদেশে আসা অ-মুসলমান শরণার্থীদের নাগরিকত্ব দেওয়া হবে।

প্রধানমন্ত্রী মোদী

বিতর্কে বিদ্ধ সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন। তারই মধ্যে নয়া আইন নিয়ে ফের মুখ খুললেন প্রধানমন্ত্রী। বললেন, ‘ঐতিহাসিক অবিচারের সমাধান করতেই সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন তৈরি করেছে বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ সরকার।’ সিএএ-এর মাধ্যমে পাকিস্তান, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ থেকে এদেশে আসা অ-মুসলমান শরণার্থীদের নাগরিকত্ব দেওয়া হবে। শরণার্থীদের প্রতি যা বিজেপির পুরনো প্রতিশ্রুতি বলে জানান মোদী।

মঙ্গলবার দিল্লিতে এনসিসি-র একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানেই তিনি সিএএ বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে কটাক্ষ করেন। বলেন, ‘কয়েক দশকের পুরনো সমস্যার সমাধান করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। ধর্মের রং মাখিয়ে সেই সিদ্ধান্তের প্রবল বিরোধিতা যারা করছেন গোটা দেশ তাদের আসল রূপ দেখতে পাচ্ছে। মানুষ চুপ করে আছে। কিন্তু, সব বুঝতে পারছে।’

আরও পড়ুন: ‘সিএএ নিয়ে এমন বিক্ষোভ হবে আঁচ করতে পারিনি, হয়তো বোঝান যায়নি’

এদিন জম্মু-কাশ্মীর প্রসঙ্গেও কংগ্রেস সহ তামাম বিরোধীদের নিশানা করেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। তাঁর কথায়, ‘স্বাধীনতার পর থেকে উপত্যাকায় সমস্যা রয়েছে। বেশ কিছু পরিবার ও রাজনৈতিক দল সেই সমস্যা জিইয়ে রাখেছিল। এর ফলে সন্ত্রাসবাদ মাথা চাড়া দিয়েছে। কেন্দ্রের সিদ্ধান্তের ফলে জম্মু-কাশ্মীরে বর্তমানে শান্তি বিরাজ করছে। কাশ্মীরের মতই উত্তর পূর্বের রাজ্যগুলির সমস্যা সমাধানেও দশকের পর দশক নজর দেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ করেন মোদী। উল্লেখ্য, কয়েক দশক ধরে চলা অশান্তি এড়াতে ও অসমের অখণ্ডতা বজায় রাখতে কেন্দ্র, রাজ্য সরকার ও বড়ো বিচ্ছিন্নতাবাদি সংগঠনে এনডিএফবির চার শাখা সংগঠন একটি চুক্তি করে। যাকে ‘ঐতিহাসিক’ বলেছেন প্রধানমন্ত্রী।

মোদীর কথায়, ‘আগের সরকার উত্তর পূর্বের ওই সমস্যাকে আইন-শৃঙ্খলার সমস্যা বলে মনে করত। কিন্তু, প্রয়োজনেও তারা সেনা পদক্ষেপের নির্দেশ দেয়নি।’ পূর্বতন সব সরকারের ‘নিস্ক্রিয়তা’র বিরুদ্ধে এদিন তোপ দাগেন প্রধানমন্ত্রী।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Politics news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Caa brought for correct historical injustice says pm modi