scorecardresearch

বড় খবর

বিরোধীদের প্রধানমন্ত্রী মুখ কে? অস্বস্তিকর প্রশ্নে বিব্রত নীতীশকে বসতে বললেন কেসিআর, তারপর…

ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, নীতীশকে কেসিআর বলছেন, ‘একটু বসুন’। জবাবে বেশ হাসিমুখে নীতীশকে পালটা বলতে শোনা যাচ্ছে, ‘৫০ মিনিট তো হয়ে গিয়েছে। ওঁরা তো ইতিমধ্যেই অনেক প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করে ফেলেছেন। আর কি চাইছে?’

বিরোধীদের প্রধানমন্ত্রী মুখ কে? অস্বস্তিকর প্রশ্নে বিব্রত নীতীশকে বসতে বললেন কেসিআর, তারপর…

লোকসভা নির্বাচন এখনও প্রায় দু’বছর বাকি। অনেক আশা নিয়ে তিনি ছুটে এসেছেন তেলেঙ্গানা থেকে। মোদী আর বিজেপি বিরোধিতার রাজনীতিকে কাজে লাগিয়ে বিরোধীদের জোটবদ্ধ করা। এই লক্ষ্য নিয়েই হায়দরাবাদ থেকে পাটনায় এসেছেন কালভাকুন্তলা চন্দ্রশেখর রাও। তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী তথা রাজনৈতিক মহলের কেসিআর। আগেই বলেছিলেন, তিনি প্রয়োজনে প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী হতে রাজি।

তার মধ্যেই বিরোধীদের প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে নাম ভেসে উঠেছে নীতীশ কুমারের। সদ্য বিহারের রাজনীতিতে হাতে হাত ধরেছে সংযুক্ত জনতা দল (জেডিইউ), রাষ্ট্রীয় জনতা দল (আরজেডি) ও কংগ্রেস। এই মহাগটবন্ধনে সমর্থন আছে বাম-সহ অন্য বিরোধীদেরও। এককথায় জাতীয় রাজনীতির প্রেক্ষাপটে আঞ্চলিক ভিত্তিতে বিহারে বিজেপির বিরোধী জোট।

সেই জোটের প্রধান আবার নীতীশ কুমার। যাঁর নাম সম্ভাব্য প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে ভাসিয়ে দিয়েছেন আরজেডি নেতা তথা বিহারের জোট সরকারের উপমুখ্যমন্ত্রী তেজস্বী যাদব। এই পরিস্থিতিতে বিজেপি-বিরোধী রাজনীতিকে পোক্ত করতেন কেসিআরের পাটনায় আসা। কিন্তু, সেই উদ্দেশ্যই যেন ভেস্তে দিচ্ছিল সাংবাদিক সম্মেলনের একটা নিরীহ প্রশ্ন- ‘বিরোধীদের প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী কে?’

নিরীহ হলেও বাস্তবের মতই তিক্ষ্ণ এই প্রশ্নে স্বভাবতই যেন নড়ে উঠেছে বিরোধী জোটের ছবিটা। সেটা বুঝতে দেরি হয়নি পোড়খাওয়া রাজনীতিবিদ কেসিআরের। নীতীশ বেশ উত্তেজিত ভঙ্গিমায় উত্তর দিতেই কেসিআর তাই নীতীশকে বলেন, ‘বইঠ জাইয়ে’। মানে, বসে পড়ুন। যেন, জোট পোক্ত হওয়ার আগেই যাতে কোনও বেফাঁস মন্তব্য জোটের সম্ভাবনা নষ্ট করে না-দেয়। সাংবাদিক বৈঠকে উত্তরটা দেন কেসিআর নিজেই। আর, অত্যন্ত কৌশলী কায়দায়। তিনি বলেন, ‘এটা এখন অনেকটা আগেভাগে বলে দেওয়া হয়ে যাবে। আগে আমাদের একসঙ্গে বৈঠক করতে দিন।’

আরও পড়ুন- ধরিয়ে দিলেই মিলবে ২৫ লক্ষ টাকা, দাউদের মাথার দাম ঘোষণা করল NIA

সেই ভিডিও ইতিমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে। যেখানে দেখা যায়, কেসিআর প্রশ্নটি কৌশলে এড়িয়ে যাওয়ার পর নীতীশ যৌথ সাংবাদিক বৈঠক ছেড়ে উঠে যাওয়ার চেষ্টা করেন। সেখানে ভিডিওতে দেখা গিয়েছে, নীতীশকে কেসিআর বলছেন, ‘একটু বসুন’। জবাবে বেশ হাসিমুখে নীতীশকে পালটা বলতে শোনা যাচ্ছে, ‘৫০ মিনিট তো হয়ে গিয়েছে। ওঁরা তো ইতিমধ্যেই অনেক প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করে ফেলেছেন। আর কি চাইছে?’

২০২০ সালে গালওয়ান উপত্যকায় প্রাণ হারানো ভারতীয় জওয়ানদের পরিবারের সদস্যদেরকে আর্থিক সহায়তা দেওয়ার অনুষ্ঠান শেষে এই যৌথ সাংবাদিক বৈঠকের আয়োজন করা হয়েছিল। এই সফরে নীতীশ কুমারকে ‘দেশের সম্মানিত নেতা’ বলে কেসিআর সম্বোধন করেন। আর, বিহারের মুখ্যমন্ত্রীকেও পালটা শোনা যায়, ‘নদীর জল গ্রামগুলোয় সেচ ও পানীয়র জন্য’ পৌঁছে দেওয়ায় কেসিআরের প্রশংসা করতে।

Read full story in English

Stay updated with the latest news headlines and all the latest Politics news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Kcr tells nitish baith jaiye when he replies to oppn pm candidate question