scorecardresearch

স্বজনপোষণের কথা বলে আসলে বিজেপির অভ্যন্তরের বিষয়কেই তুলে ধরেছেন মোদী: কংগ্রেস

মোদী বলেছেন, ‘শুধুমাত্র রাজনীতি নয়, দেশের বিভিন্ন ক্ষেত্রে স্বজনপোষণ, পরিবারতন্ত্র রয়েছে। এবার সেই জাল ছিঁড়ে বেরিয়ে আসার প্রয়োজন রয়েছে। যোগ্যতার ভিত্তিতে অগ্রগতি করতে হবে।’

স্বজনপোষণের কথা বলে আসলে বিজেপির অভ্যন্তরের বিষয়কেই তুলে ধরেছেন মোদী: কংগ্রেস
পাল্টা দিল হাত শিবির।

দেশের ৭৫তম স্বাধীনতা দিবসের ভাষণে পরিবারতন্ত্র, স্বজনপোষণের বিরুদ্ধে মুখ খুলেছেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। মুখে না বললেও, মোদীর সমালোচনা মূলত কংগ্রেস সহ সমাজবাদী পার্টি, তৃণমূল, ডিএমকে-র মত আঞ্চলিক দলগুলিকে নিশানা করেই। পাল্টা মোদীর কটাক্ষের জবাব দিল কংগ্রেস।

কংগ্রেসের মুখপাত্র পবন খেরা বলেছেন, ‘২০২৪ যত এগচ্ছে মোদীকে ততই বিচলিত লাগছে। কারণ ২০১৪ সালে দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে নিজের দেওয়া প্রতিশ্রুতি একটাও রক্ষা করেননি। ফলে এখন তিনি প্রবল সমস্যায় পড়েছেন।’ খেরার টিপ্পনি, ‘ভারত মোদীর দেওয়া প্রতিশ্রুতির উপর যখন রিপোর্ট কার্ড প্রত্যাশী তখনই প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য হতাশ করছে।’

আরও পড়ুন- ‘ভাই-ভাতিজা সংস্কৃতির বিরুদ্ধে লড়তে হবে’, ফের মোদীর নিশানায় পরিবারতন্ত্র

খেরার প্রশ্ন, ‘প্রধানমন্ত্রী তাঁর নিজের কথার শিকার হয়েছেন এবং এখন বিরক্ত লাগছে। তার প্রতিশ্রুতি এখন তাকে বিরক্ত করছে। কৃষকদের আয় দ্বিগুণ, সবার জন্য আবাসন, কালো টাকা ফেরৎ আনার প্রতিশ্রুতির কী হল?’

স্বজনপোষণকে দেশের সামনে একটি বড় চ্যালেঞ্জ হিসাবে মোদীর চিহ্নিত করার বিষয়ে খেরা বলেছেন যে, ‘স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে রাজনৈতিক বিবৃতি দেওয়া উপযুক্ত নয়, তবে প্রথা পরিবর্তন করা হচ্ছে, প্রধানমন্ত্রী নিজেই সেই বদলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন।’ খেরার কথায়, ‘লালকেল্লায় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া রাজনৈতিক বিবৃতিগুলি আসলে বিজেপির অভ্যন্তরীণ সমস্যা বলেই মনে হচ্ছে। হতে পারে তিনি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে আক্রমণ করছিলেন, যাঁর ছেলে ক্রিকেট প্রশাসনের এত বড় পদে অধিষ্ঠিত হয়েছেন, খুবই আশ্চর্যজনক। সম্ভবত তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে আক্রমণ করছিলেন যাঁর ছেলে একটি বিদেশী থিঙ্ক-ট্যাঙ্কের বড় পদে অধিষ্ঠিত। সম্ভবত তিনি অ-সামরিক বিমান পরিবহণ মন্ত্রী বা প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর ছেলেকে আক্রমণ করেছিলেন।’

Stay updated with the latest news headlines and all the latest National news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Modi attack on nepotism linked to bjp s internal issues congress