scorecardresearch

বড় খবর

একদিন আগেই নিয়েছেন অবসর, প্রাক্তন ইডি কর্তাকে প্রার্থী করল বিজেপি

টুজি, সাহারা, কয়লা কেলেঙ্কারি, এয়ারসেল ম্যাক্সিসের মতো বহু গুরুত্বপূর্ণ মামলার তদন্তভার ছিল রাজরাজেশ্বর সিং-এর হাতে।

After voluntary retirement accepted, ED joint director Rajeshwar Singh set to join politics
ইডি-র যুগ্ম অধিকর্তা রাজেশ্বর সিং। তাঁর স্বেচ্ছাবসরে অনুমোদন দিয়েছে অর্থমন্ত্রক।

একদিন আগেই স্বেচ্ছাবসর নিয়েছেন। সেই ইডি অফিসার রাজরাজেশ্বর সিং-কে উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা নির্বাচনে প্রার্থী করল বিজেপি। টুজি, সাহারা, কয়লা কেলেঙ্কারি, এয়ারসেল ম্যাক্সিসের মতো বহু গুরুত্বপূর্ণ মামলার তদন্তভার ছিল রাজরাজেশ্বর সিং-এর হাতে। তবে চমকের এখানে শেষ না। মাত্র একদিন আগেই স্বেচ্ছাবসর নিয়েছেন রাজরাজেশ্বর। আর তারপরই মিলল উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা নির্বাচনের টিকিট।

মঙ্গলবারই বিধানসভা নির্বাচনের প্রথমদফা প্রার্থীতালিকা প্রকাশ করেছে বিজেপি। প্রকাশিত ১৭ জনের তালিকায় অনেকেই ভেবেছিলেন নাম থাকবে অপর্ণা যাদবের। সমাজবাদী পার্টির প্রতিষ্ঠাতা মুলায়ম সিং যাদবের এই পুত্রবধূ কয়েক সপ্তাহ আগেই যোগ দিয়েছেন বিজেপিতে। তাঁকে লখনউ ক্যান্টনমেন্টের টিকিট দেওয়া হবে বলে শোনা যাচ্ছিল। তবে এখন বিজেপির অভ্যন্তর থেকেই শোনা যাচ্ছে, অপর্ণা টিকিট পাচ্ছেন না। তাঁকে সংগঠনের কোনও গুরুত্বপূর্ণ পদ পেয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হবে।

বিজেপি সূত্রে খবর, অপর্ণার পথে কাঁটা বিছিয়েছেন রীতা বহুগুণা জোশি। তিনি ছেলের জন্য লখনউ ক্যান্টনমেন্টের টিকিট চেয়েছেন। তবে, বিজেপি সেই দাবিও মানেনি। লখনউ ক্যান্টনমেন্টের প্রার্থী করা হয়েছে মন্ত্রী বৃজেশ পাঠককে। এই কেন্দ্রের বর্তমান বিধায়ক সুরেশচন্দ্র তিওয়ারিকেও টিকিট দেয়নি দল। তবে তিওয়ারি একা নন। উত্তরপ্রদেশ বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির টিকিট না -পাওয়া জনপ্রতিনিধিদের তালিকা বেশ লম্বা। খোদ বিদায়ী বিধানসভার স্পিকার হৃদয় নারায়ণ দীক্ষিতই টিকিট পাননি। টিকিট জোটেনি মন্ত্রী স্বাতী সিংয়েরও।

শুধু নতুন মুখই না। বিজেপির প্রথম দফা প্রার্থীতালিকা বলছে, কেন্দ্রও বদল হয়েছে অনেকের। যেমন ২০১৭ বিধানসভা নির্বাচনে মন্ত্রী বৃজেশ পাঠক জিতেছিলেন লখনউ মধ্য আসনে। সেই কেন্দ্রে এবার বিজেপি প্রার্থী করেছে স্থানীয় কাউন্সিলর তথা ব্যবসায়ী রজনীশ গুপ্তাকে। ‘বক্সি কা তালাব’ আসনেও হয়েছে মুখবদল। বর্তমান বিধায়ক অবিনাশ ত্রিবেদীর বদলে এখানে বিজেপি প্রার্থী করেছে যোগেশ শুক্লাকে।

আরও পড়ুন নাম বদলের দাবি উঠতেই তেরঙায় সেজে উঠল জিন্নাহ টাওয়ার

লখনউ পশ্চিমের বিধায়ক সুরেশকুমার শ্রীবাস্তব গতবছর করোনায় মারা গেছেন। তারপর থেকে ওই আসন খালি ছিল। সেখানে এবার বিজেপি প্রার্থী অঞ্জনী শ্রীবাস্তব। সদ্যপ্রাক্তন ইডি অফিসার রাজরাজেশ্বর সিং-কে প্রার্থী করা হয়েছে সরোজিনী নগর কেন্দ্রে। এখানকার টিকিটেরই দাবিদার ছিলেন মন্ত্রী স্বাতী সিং। পাঁচবারের বিধায়ক ও বর্তমান স্পিকার হৃদয় নারায়ণ দীক্ষিতের কেন্দ্র ভগবন্ত নগর। উন্নাও জেলার এই কেন্দ্রে এবার বিজেপির প্রার্থী আশুতোষ শুক্লা।

উনচাহার কেন্দ্রে প্রার্থী করা হয়েছে উত্তরপ্রদেশ বিজেপির সাধারণ সম্পাদক অমরপাল মৌর্যকে। প্রথমদফা তালিকায় আরও চমক আছে। সীতাপুরের বিধায়ক রাকেশ রাঠৌর কয়েকদিন আগেই যোগ দিয়েছেন সমাজবাদী পার্টিতে। এই কেন্দ্রে একই নামের প্রার্থী দিয়েছে বিজেপি। তবে এবারের বিজেপি প্রার্থী রাকেশের রাঠৌরের ডাকনাম ‘গুরু’। সূত্রের খবর, প্রচারে সেটাও লিখে দেওয়া হবে দেওয়ালের গায়ে।

Stay updated with the latest news headlines and all the latest National news download Indian Express Bengali App.

Web Title: Up polls bjp drops speaker fields ed officer who got vrs a day ago