বড় খবর

‘বিরাট ভুল করেছে বিজেপি’, গেরুয়া সঙ্গ ছেড়ে শিবসেনার আশ্রয়ে যেতে পারেন বর্ষীয়ান নেতা

“এনসিপির অজিত পাওয়ারের সঙ্গে হাত মেলানোটা সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক ভুল। একজনের ভুলে দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে। দুর্নীতির বিরুদ্ধে মানুষের যে সমর্থন ছিল বিজেপির প্রতি, তা এক ধাক্কায় নষ্ট হয়ে গিয়েছে।”

মারাঠাভূমে মহানাটকের শেষ ধাপে দেবেন্দ্র ফড়নবিশের পদত্যাগের এক দিন পরই পদ্মসঙ্গ ত্যাগ করার সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন দীর্ঘদিনের বিজেপি নেতা তথা ওবিসি দলপ্রধান একনাথ খাড়সে। মহারাষ্ট্রের কুর্সি দখলের লড়াইয়ে বিজেপির ভাবমূর্তি বদল এবং রাজনৈতিক পদক্ষেপের ‘ভুলে ভরা অঙ্ক’ দেখেই গেরুয়া শিবির ছাড়ার সিদ্ধান্ত গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করবেন এই নেতা, এমনটাই জানিয়েছেন।

দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে খাড়সে বলেন, “আমি শিবসেনার থেকে একটি অফার পেয়েছিলাম। এখন ভাবতে শুরু করেছি এই অফার আমার গ্রহণ করা উচিত কি না। আমার আশ্চর্য লাগছে, কীভাবে বিজেপির মতো একটা দল মানুষের অনুভূতির না মেনে দলের নীতির সঙ্গে আপোষ করে যাচ্ছে।”

আরও পড়ুন: সেনা-কংগ্রেস জোট, আদর্শের তাড়নায় দল ছাড়লেন শিবসেনা নেতা

শুধু তাই নয়, ওবিসি দলনেতার বক্তব্য, দল যেভাবে কাজ করছে, তার ফলে দলের কর্মীদের মধ্যেই অসন্তোষ এবং অস্বস্তিকর বাতাবরণ তৈরি হচ্ছে। যদিও সরাসরি কেন্দ্র বা রাজ্যে দলীয় নেতাদের নাম নিলেন না একনাথ খাড়সে। তবে তাঁর ক্ষোভ যে সংগঠনের কার্যকারিতা নিয়েই, তা কার্যত স্পষ্ট। সরকার গঠন করতে মরিয়া বিজেপি যেভাবে এনসিপি নেতা অজিত পাওয়ারের সঙ্গে সরকার গঠনের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল, তা যে মেনে নিতে পারেনি গেরুয়া শিবিরের অন্দরের একাংশ, খাড়সের বক্তব্য সেই চিত্রই যেন ফুটে উঠল এদিন।

আরও পড়ুন: সংক্ষিপ্ততম সময়ের মুখ্যমন্ত্রী দেবেন্দ্র ফড়নবিশ, তালিকায় আর কে কে দেখে নিন

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে পুনের জমি কেলেঙ্কারির ঘটনায় কিছুটা জোর করেই দল থেকে পদত্যাগ করানো হয় একনাথ খাড়সেকে। মহারাষ্ট্র কিংবা দিল্লি থেকে দলের তরফে কোনও সমর্থন না পেলেও দলে ফিরে আসার জন্য বারবার প্রচেষ্টা করে গেলেও তা ব্যর্থ হয়। পরবর্তীতে উত্তর মহারাষ্ট্রের মুক্তাইনগরে খাড়সের কন্যা রোহিনী বিজেপি প্রার্থী হিসেবে লড়াই করলেও শিবসেনার প্রার্থীর কাছে পরাজিত হতে হয় তাঁকে।

এই ঘটনায় বিজেপিকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করান একনাথ। তিনি বলেন, “আমার মতো প্রার্থী, যে চল্লিশ বছর ধরে জনসংঘ এবং বিজেপির সঙ্গে ছিল। কিন্তু এনসিপির অজিত পাওয়ারের সঙ্গে হাত মেলানোটা সবচেয়ে বড় রাজনৈতিক ভুল। একজনের ভুলে দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে। দুর্নীতির বিরুদ্ধে মানুষের যে সমর্থন ছিল বিজেপির প্রতি, তা এক ধাক্কায় নষ্ট হয়ে গিয়েছে।”

আরও পড়ুন: বাল ঠাকরে থেকে উদ্ধব ঠাকরে: শিবসেনার কাছে শিবাজি পার্কের মাহাত্ম্য

যদিও খাড়সের এই বক্তব্য মানতে নারাজ পদ্ম শিবির। বিজেপির মুখপাত্র শিবরায় কুলকার্নির দাবি, কুর্সির পালাবদলের পিছনে মূল চক্রী শিবসেনাই। তিনি বলেন, “শনিবার দেবেন্দ্র ফড়নবিশ যখন শপথ গ্রহণ করেছিলেন তখন দলে আনন্দের বাতাবরণ তৈরি হয়েছিল। অজিত পাওয়ার এবং নির্দলদের সঙ্গে নিয়ে সরকার গঠনের প্রয়োজনীয় সিট ছিল বিজেপির হাতে। অজিত পাওয়ার বেরিয়ে আসতেই বিজেপি পরিষ্কার জানিয়ে দেয়, তারা সরকার গঠন করতে পারবে না। তাহলে আমরা কেন কেন্দ্রকে দোষারোপ করব? দ্বিতীয়ত, শুরু থেকেই বিজেপি এবং সেনা একইসঙ্গে লড়াই করেছিল। শেষে শিবসেনাই সেই জোট ভেঙ্গেছে। সুতরাং কেন কর্মীরা বিজেপি নেতাদের দোষ দেবেন?”

Read the full story in English

Get the latest Bengali news and Politics news here. You can also read all the Politics news by following us on Twitter, Facebook and Telegram.

Web Title: Our party made political blunders thinking of taking up sena offer eknath khadse

Next Story
মুকুলের ভূমিকায় সফল মমতাmamata banerjee
The moderation of comments is automated and not cleared manually by bengali.indianexpress.com